Inqilab Logo

বুধবার, ১৯ জানুয়ারী ২০২২, ০৫ মাঘ ১৪২৮, ১৫ জামাদিউস সানি ১৪৪৩ হিজরী

১২ ঘণ্টা পর আবার শুরু হয়েছে ফেরি উদ্ধার কাজ

ইনকিলাব ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ২৮ অক্টোবর, ২০২১, ১০:৩৯ এএম

মানিকগঞ্জের পাটুরিয়ায় কাত হয়ে ডুবে যাওয়া রো রো ফেরি আমানত শাহর উদ্ধার অভিযান দ্বিতীয় দিনের মতো শুরু হয়েছে। ঘাট এলাকায় ফায়ার সার্ভিসের ডুবুরি দলের সঙ্গে উদ্ধার কার্যক্রম শুরু করে হামজা। বৃহস্পতিবার সকাল সোয়া ৮টার দিকে অভিযান শুরু করে উদ্ধারকারী জাহাজ হামজা।

এদিকে উদ্ধার অভিযানে যুক্ত হওয়ার জন্য নারায়ণগঞ্জ থেকে উদ্ধারকারী জাহাজ প্রত্যয় বুধবার রাতেই পাটুরিয়ায় পৌঁছানোর কথা ছিল। তবে প্রায় ১৫ ঘণ্টা পার হয়ে গেলেও জাহাজটি এখনো এসে পৌঁছায়নি। এ কারণে ফেরিটি উদ্ধার নিয়ে সংশয় দেখা দিয়েছে বলে মনে করছেন ক্ষতিগ্রস্ত ট্রাকের চালক ও মালিকরা।

আরিচা স্থলকাম ফায়ার সার্ভিস স্টেশনের পরিদর্শক মো. মুজিবুর রহমান জানান, ফায়ার সার্ভিসের ৩ ইউনিট কাজ করেছে। একই সঙ্গে উদ্ধারকারী জাহাজ হামজাও কাজ শুরু করেছে। সকাল সাড়ে ৭টায় উদ্ধার অভিযান শুরু হওয়ার কথা থাকলেও প্রস্তুতিজনিত কারণে কাজে যোগ দিতে কিছুটা সময় লেগেছে।

উদ্ধারকারী জাহাজ হামজার যুগ্ম পরিচালক সানোয়ার হোসেন জানান, প্রস্তুতিজনিত কারণে কাজে যোগ দিতে সামান্য বিলম্ব হলেও ফেরি আমানত শাহর উদ্ধার অভিযান শুরু করা হয়েছে। আমাদের সঙ্গে ফায়ার সার্ভিসের ৩ ইউনিট সহযোগিতা করছে। আশা করছি দ্রুত উদ্ধার অভিযান শেষ হবে।

উল্লেখ্য, গতকাল বুধবার (২৭ অক্টোবর) সকাল সাড়ে ৯টার দিকে ১৪টি যানবাহনসহ ডুবে যায় ফেরিটি। এরপরই শুরু হয় উদ্ধার অভিযান। দীর্ঘ সাড়ে ১০ ঘণ্টা উদ্ধার অভিযান চালিয়ে দুর্ঘটনা কবলিত ফেরি আমানত শাহ থেকে চারটি পণ্যবাহী ট্রাক উদ্ধার করতে সক্ষম হয় হাজমা। পরে রাত সাড়ে ৮টার দিকে প্রথম দিনের মতো উদ্ধার অভিযান সমাপ্ত ঘোষণা করে কর্তৃপক্ষ। ফেরি দুর্ঘনার ঘটনায় এখন পর্যন্ত কোনো হতাহতের খবর পাওয়া যায়নি।

তবে ফেরি ডুবির ঘটনায় এখনো নিখোঁজ রয়েছে পাঁচটি ট্রাক। ট্রাকগুলো ফেরির নিচে বা আসেপাশে চাপা পড়ে আছে বলে ধারণা করছে কর্তৃপক্ষ। এছাড়া পাঁচটি ট্রাক পদ্মা নদীর বিভিন্ন এলাকায় শনাক্ত করে রাখা হয়েছে।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: ফেরি উদ্ধার
আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ