Inqilab Logo

মঙ্গলবার, ০৫ জুলাই ২০২২, ২১ আষাঢ় ১৪২৯, ০৫ যিলহজ ১৪৪৩ হিজরী
শিরোনাম

ছাতকের ভাতগাঁও ইউপিতে শান্তিপূর্ন ভোট গ্রহণ

ছাতক (সুনামগঞ্জ) উপজেলা সংবাদদাতা | প্রকাশের সময় : ২ নভেম্বর, ২০২১, ৫:৩৬ পিএম

সুনামগঞ্জের ছাতক উপজেলার ভাতগাঁও ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে ১১টি কেন্দ্রে শান্তিপূর্ণ ভাবে ভোট গ্রহণ অনুষ্ঠিত হয়েছে। উৎসব মূখর পরিবেশে মঙ্গলবার সকাল ৮টা থেকে বিকেল ৪টা পর্যন্ত টানা ভোট গ্রহণ অনুষ্টিত হয়। নির্বাচনে ভোট গ্রহন শুরু থেকে শেষ পর্যন্ত কোথাও কোন অপ্রতিকর ঘটনার খবর পাওয়া যায়নি। ভোট কেন্দ্র গুলোতে ভোটার উপস্থিতি লক্ষ্য করা গেছে। ভোটের পরিবেশ শান্তিপূর্ণ রাখতে এলাকায় অস্থায়ী বিজিবি ক্যাম্প স্থাপন করা হয়। প্রতিটি কেন্দ্রেই ছিলো র‌্যাব ও পুলিশের কড়া নজরদারী। কেন্দ্র গুলোতে পুরুষের তুলনায় নারী ভোটারের সংখ্যা ছিল চোখে পড়ার মতো।
বেলা দুইটায় ইউনিয়নের ১১ কেন্দ্র পরিদর্শন করতে গিয়ে দেখা গেছে, পৃথক লাইনে নারী-পুরুষ ভোটাররা দাড়িয়ে থেকে শৃঙ্খল ভাবে নিজেদের ভোটাধিকার প্রয়োগ করেন। ভোট কেন্দ্রের ভেতর-বাইরে আইন-শৃংখলা রক্ষাকারী বাহিনীর সদস্যরাও ছিলেন সতর্ক অবস্থায়।
একতা সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়ে হায়দরপুর গ্রামের বাসিন্দা, শরিফ উদ্দিন (১১০) তিনি তার ছেলের কাঁদে ভর করে ভোট দিতে এসেছেন। জানতে চাইলে তিনি বলেন, এবার ভোটের পরিবেশ ভালো তাই তিনি ভোট দিতে এসেছি। আনুজানি সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয় ভোট কেন্দ্রে পছন্দের প্রার্থীকে ভোট দিতে হুইল চেয়ারে আসেন ওই গ্রামের বাসিন্দা ইয়াছির আলী (৬৭)। শান্তিপূর্ন পরিবেশ দেখে তিনিও সন্তোষ প্রকাশ করেন।
হায়দরপুর গ্রামের আনা মিয়ার কলেজে পড়–য়া কন্যা তানজিনা বেগম ভোট দিতে এসে বলেন, আমি আমার পছন্দের প্রার্থীকে ভোট দিতে পেরে আনন্দিত। প্রতিটি নির্বাচনে এভাবে শান্তিপূর্ণ পরিবেশ থাকলে আগামী নির্বাচনেও ভোটারদের উপস্থিতি আরও বাড়বে।
ঝিগলী স্কুল এন্ড কলেজ কেন্দ্রের আইন-শৃংখলা রক্ষার দায়িত্বে থাকা ছাতক থানার ওসি (ভারপ্রাপ্ত) মিজানুর রহমান বলেন, ভোটের পরিবেশ শান্তিপূর্ণ। কোন প্রকার বিশৃংখলা ছাড়াই ভোট গ্রহন চলছে। নির্বাচনে অংশ গ্রহনকারী চেয়ারম্যান প্রার্থী উবায়দুল হক শাহীন ও লিক্সন মিয়া নির্বাচনের পরিবেশ ও ভোট গ্রহন নিয়ে সন্তোষ প্রকাশ করেন। বিকেল ৩টা পর্যন্ত মোট ১১টি কেন্দ্রে গড়ে ৬০ শতাংশ ভোট কাষ্টিং হয়েছে বলে সংশ্লিষ্ট সূত্রে জানা গেছে।
উপজেলা নির্বাচন কর্মকর্তা ফয়েজুর রহমান বলেন, সুষ্ঠু ও শান্তিপূর্ণ পরিবেশে ভোট গ্রহণের জন্য সার্বক্ষণিক তদারকি করা হচ্ছে। কোথায় কোন বিশৃংখলার খবর পাওয়া যায়নি।
এই ইউনিয়নে চেয়ারম্যান প্রার্থী ৪ জন, সংরক্ষিত নারী আসনে ১০ জন ও সাধারন সদস্য পদে ৪২ জন ভোট যুদ্ধে অংশ নিয়েছেন। চেয়ারম্যান পদে আওয়ামীলীগের দলীয় মনোনীত (নৌকা) প্রতীকে লড়ছেন বর্তমান চেয়ারম্যান আওলাদ হোসেন মাস্টার। তার সাথে দলের বিদ্রোহী প্রার্থী হিসেবে মাঠে রয়েছেন কবির মিয়া (চশমা)। কেন্দ্রীয় ভাবে বিএনপি’র দলীয় মনোনয়ন দেওয়া না হলেও বিএনপি সমর্থিত প্রার্থী মো. লিক্সন মিয়া (ঘোড়া) ও উবায়দুল হক শাহীন (টেলিফোন) প্রতীকে দু’জনই স্বতন্ত্র প্রার্থী হিসেবে ভোট যুদ্ধে অংশ নিয়েছেন। এ ইউনিয়নের মোট ভোটার সংখ্যা ২০ হাজার ৪শ’৩৭ জন। ##



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: ভোট গ্রহণ


আরও
আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ