Inqilab Logo

বুধবার, ১৯ জানুয়ারী ২০২২, ০৫ মাঘ ১৪২৮, ১৫ জামাদিউস সানি ১৪৪৩ হিজরী

চিকিৎসা নিতে এসে দালালের খপ্পরে

রামেকসহ বিভিন্ন হাসপাতাল থেকে গ্রেফতার ১৫

রাজশাহী ব্যুরো : | প্রকাশের সময় : ১০ নভেম্বর, ২০২১, ১২:০০ এএম

রাজশাহী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালসহ বিভিন্ন বে-সরকারী হাসপাতাল ও ক্লিনিক থেকে নারীসহ দালালচক্রের ১৫ সদস্যকে গ্রেফতার করেছে রাজশাহী মহানগর গোয়েন্দা পুলিশ (ডিবি)।
গ্রেফতারকৃতরা হলো, মো. শাহজাহান আলী, মোসা. খাতিজা তিশা, মো. আব্দুল হান্নান, মো. শামসুজ্জোহা ভুট্টু, মো. জিম, মো. সুমন, মো. হাদিউল ইসলাম, মো. নাইম হোসেন, মোসা. প্রিয়া, মোসা. তাহমিনা বেগম, মোসা. আসমা, মোসা. রিতা, মো. মুকুল হোসেন, মো. সোহানুর রহমান ও মো. পলাশ।
গত মঙ্গলবার আরএমপির এক বিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য জানানো হয়। এতে বলা হয়, রাজশাহী জেলার তানোর থানার মো. আব্দুল খালেক গত ৬ নভেম্বর সকাল ১০ টায় শ্বাসকষ্ট, মাথা ব্যাথা ও জ্বরে আক্রান্ত মেয়েকে রাজশাহী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে যায়। জরুরী বিভাগে কর্তব্যরত ডাক্তার তার মেয়েকে রাজশাহী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের বহির্বিভাগে চিকিৎসার জন্য স্থানান্তর করেন। আব্দুল খালেক তার স্ত্রী ও মেয়েকে সাথে নিয়ে বহিঃ বিভাগে গিয়ে শ্লিপ জমা দেয়। সেখানে কয়েকজন দালাল বলে যে, আপনার মেয়েকে অনেক গুলো পরীক্ষা করাতে হবে। তারপর বহির্বিভাগ হতে তাকে নিয়ে একটি প্রাইভেট ক্লিনিকে তার মেয়ের রক্ত পরীক্ষা এবং বুকের এক্স-রে করে।
কিন্তু রাজশাহী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের বহির্বিভাগের চিকিৎসার ¯িøপে চিকিৎসক কোন পরীক্ষা-নিরীক্ষার কথা উল্লেখ করেন নাই। তথাপিও দালালচক্রের সদস্যরা পরীক্ষার নামে আব্দুল খালেকের নিকট থেকে ৩ হাজার ৫০ টাকা হাতিয়ে নেয় এবং রিপোর্ট প্রদানের জন্য আরো ২ হাজার টাকা দাবি করে। দাবিকৃত টাকা না দিলে খালেকের স্ত্রী ও মেয়েকে অপহরণ করে গুম করাসহ ভয়ভীতি দেখায়।
সে দালাল চক্রের সদস্যদের হাতে-পায়ে ধরে কোন মতে রিপোর্ট না নিয়ে সেখান থেকে তার মেয়েকে নিয়ে ফিরে আসেন। আব্দুল খালেক তার মেয়ের চিকিৎসা শেষে রাজশাহী মহানগর ডিবি অফিসে গিয়ে মৌখিক ভাবে অভিযোগ করলে রাজশাহী মহানগর গোয়েন্দা পুলিশ এ বিষয়ে আইনগত ব্যবস্থা গ্রহণের আশ্বাস দেন।
পরবর্তীতে হাসপাতাল ও ক্লিনিকে প্রতারক, চাঁদাবাজ এবং দালালচক্রের সদস্যদের শনাক্ত করে গ্রেফতারে অভিযানে নামে মহানগর গোয়েন্দা পুলিশ। অবশেষে সোমবার বেলা সাড়ে ১১ টা হতে বিকেল সাড়ে ৪ টা পর্যন্ত রাজশাহী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালসহ বিভিন্ন বে-সরকারী হাসপাতাল/ক্লিনিক এলাকায় অভিযান চালিয়ে প্রতারক, চাঁদাবাজ ও দালালচক্রের সক্রিয় ১৫ সদস্যকে গ্রেফতার করে। এ সংক্রান্তে আব্দুল খালেকের লিখিত এজাহারের প্রেক্ষিতে রাজপাড়া থানায় একটি নিয়মিত মামলা রুজু হয়েছে। গ্রেফতারকৃতদের বিরুদ্ধে আইনগত ব্যবস্থা গ্রহণ করা হয়।

 



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: গ্রেফতার


আরও
আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ