Inqilab Logo

সোমবার, ১৭ জানুয়ারী ২০২২, ০৩ মাঘ ১৪২৮, ১৩ জামাদিউস সানি ১৪৪৩ হিজরী
শিরোনাম

সুশান্তের মৃত্যু রহস্য তদন্তে গুগল-ফেসবুকের দ্বারস্থ সিবিআই

বিনোদন ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ১০ নভেম্বর, ২০২১, ১০:৫৩ এএম

আবার নতুন করে মাথা চাড়া দিল বলিউড অভিনেতা সুশান্ত সিং রাজপুত মৃত্যু মামলার তদন্ত। অভিনেতার মুছে ফেলা ইমেইল ও সোশ্যাল মিডিয়া পোস্ট সংক্রান্ত সব তথ্য হাতে পেতে গুগল-ফেসবুকের সহায়তা চেয়েছে ভারতের সেন্ট্রাল ব্যুরো অফ ইনভেস্টিগেশন (সিবিআই)। জানা গেছে, তদন্তকারীরা আমেরিকার সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষের কাছ থেকে উত্তর পাওয়ার অপেক্ষায় রয়েছে।

ভারতীয় সংবাদমাধ্যম সূত্রের খবর, সুশান্ত সিং রাজপুতের মৃত্যু কান্ডের তদন্ত হাতে নিয়ে সিবিআই প্রচুর মানুষের বয়ান রেকর্ড ও একগুচ্ছ ফরেনসিক টেস্ট করিয়েছে। এখন সিবিআই সুশান্তের মুছে ফেলা ইমেইল ও সোশ্যাল মিডিয়ায় পোস্ট ও তার মৃত্যুর সঙ্গে কোনও সংযোগ রয়েছে কিনা তা তদন্ত করতে চাইছে। সিবিআইয়ের পক্ষ থেকে সুশান্তের ইমেইল ও সোশ্যাল মিডিয়া অ্যাকাউন্টের ডিলিট হওয়া তথ্য চাওয়া হয়েছে মার্কিন সরকারের কাছ থেকে। দুই দেশের মধ্যে একটি এমএলএটি অর্থাৎ মিউচুয়াল লিগাল অ্যাসিসটেন্স ট্রিটি রয়েছে যার জেরে ক্যালিফোর্নিয়ায় অবস্থিত দুই কোম্পানি গুগল এবং ফেসবুকের কাছ থেকে অভিনেতার অ্যাকাউন্টের মুছে দেওয়া তথ্য চাওয়া হয়েছে।

এর আগে সিবিআই সুশান্ত সিং রাজপুতের রুমমেট, বান্ধবী রিয়া চক্রবর্তী, তার কর্মী, পরিবারের সদস্য সহ একাধিক ব্যক্তির বয়ান রেকর্ড করেছে। যদিও এত কিছুর পরও কোনও শক্ত প্রমাণ পাওয়া যায়নি যাতে এটা প্রমাণিত হয় যে সুশান্ত সিংকে খুন করা হয়েছে। একাধিক সরকারি ল্যাবে হওয়া ফরেনসিক টেস্টেও সুশান্ত সিং রাজপুতের মৃত্যুতে অন্য কিছুর গন্ধ পাওয়া যায়নি। তবে সুশান্তের পরিবারের পক্ষ থেকে অভিনেত্রী রিয়া চক্রবর্তীর বিরুদ্ধে সুশান্তকে আত্মহত্যায় প্ররোচনা দেওয়ার অভিযোগ আনা হয়। যদিও মুম্বাই পুলিশের তদন্তে জানা যায় যে এই মৃত্যুর জন্য কোনও ব্যক্তি দায়ী নন।

উল্লেখ্য, ২০২০ সালের ১৪ জুন মুম্বাইয়ের বান্দ্রার ফ্ল্যাটে ঝুলন্ত অবস্থায় সুশান্ত সিং রাজপুতের মৃতদেহ পাওয়া যায়। মৃত্যুর দেড় বছর পরেও সুশান্তকে ঘিরে থেকে গিয়েছে অনেক অজানা দিক। আজও উত্তর পাওয়া যায়নি বহু প্রশ্নের। সে জন্য সুপ্রিম কোর্টের নির্দেশের পরই সুশান্ত সিং রাজপুতের মৃত্যু তদন্ত হাতে নেয় সিবিআই।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: সিবিআই


আরও
আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ
গত​ ৭ দিনের সর্বাধিক পঠিত সংবাদ