Inqilab Logo

বৃহস্পতিবার, ২০ জানুয়ারী ২০২২, ০৬ মাঘ ১৪২৮, ১৬ জামাদিউস সানি ১৪৪৩ হিজরী
শিরোনাম

মালালা বললেন, আমি বিয়ের বিরুদ্ধে ছিলাম না

ইনকিলাব ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ১৩ নভেম্বর, ২০২১, ৭:৪৯ পিএম

৪ মাস পর নিজের সেই মন্তব্য পরিবর্তন করার বিষয়ে এবার মুখ খুলেছেন নোবেলজয়ী নারী অধিকারকর্মী মালালা ইউসুফজাই। নববিবাহিত এই নোবেল বিজয়ী ফ্যাশনবিষয়ক জনপ্রিয় সাময়িকী ভোগের এক নিবন্ধে মালালা বলেছেন, ২০১৮ সালে আমাদের দেখা হওয়ার পর ধীরে ধীরে আমরা ঘনিষ্ঠ বন্ধু হয়ে পড়ি। আমাদের মূল্যবোধে মিল ছিল। দুজনে সঙ্গও উপভোগ করছিলাম। সুখ-দুঃখের সময়গুলো পাশাপাশি দাঁড়িয়ে কাটিয়েছি। জীবনের ওঠা-নামায় আমরা দুজন দুজনের কথা শুনেছি।
মালালা আরও বলেছেন, আমি বিয়ের বিরুদ্ধে ছিলাম না। আমি প্রথাটি নিয়ে সতর্ক ছিলাম। আমি পুরুষতান্ত্রিকতা নিয়ে প্রশ্ন তুলেছিলাম। পাশাপাশি বিয়ের পর নারীদের নানা বিষয়ে আপসের প্রস্তুতি নিতে হয় এবং বিশ্বের বিভিন্ন প্রান্তে বিয়েসংক্রান্ত আইনগুলোতে সাংস্কৃতিক প্রথা ও নারীবিদ্বেষী মনোভাবের প্রভাব পড়ে তা নিয়ে কথা বলেছিলাম। সব প্রশ্নের জবাব হয়তো আমার কাছে নেই। তবে বিবাহিত জীবনে আমি বন্ধুত্ব, ভালোবাসা ও সমঅধিকার উপভোগ করতে পারব বলে বিশ্বাস করি।

উল্লেখ্য, গত জুলাইয়ে এই ফ্যাশন সাময়ীকী 'ভোগ'কেই মালালা বলেছিলেন, 'আমি এখনো বুঝতে পারি না কেনো মানুষকে বিয়ে করতে হবে? আপনি যদি একজন জীবনসঙ্গী চান, তাহলে কেন বিয়ের কাগজপত্রে সই করতে হবে? এটা কি শুধু একটি অংশীদারত্ব হতে পারে না?' মালালা বিয়ে করার পর তসলিমা নাসরিন তার ফেসবুকে দীর্ঘ পোস্টে লিখেছিলেন, 'ভেবেছিলাম মালালা যেহেতু ইংরেজের দেশে থাকে, কোনো ইংরেজের সঙ্গেই হয়তো... অথচ সর্বোচ্চ ডিগ্রি না নিয়েই মাত্র ২৪ বছর বয়সে বিয়ে করে বসলো মালালা, তাও এক পাকিস্তানি মুসলিমকে!'

প্রবাস জীবন বিভাগে সংবাদ পাঠানোর ঠিকানা
[email protected]



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ