Inqilab Logo

মঙ্গলবার, ১৮ জানুয়ারী ২০২২, ০৪ মাঘ ১৪২৮, ১৪ জামাদিউস সানি ১৪৪৩ হিজরী

মওলানা ভাসানীর মাজারে রেজা কিবরিয়া-নুরের ওপর হামলা : সোশ্যাল মিডিয়ায় নিন্দার ঝড়

সোশ্যাল মিডিয়া ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ১৭ নভেম্বর, ২০২১, ১১:১৯ পিএম

মজলুম জননেতা মাওলানা আবদুল হামিদ খান ভাসানীর ৪৫তম মৃত্যুবার্ষিকীতে তাঁর মাজারে শ্রদ্ধা জানাতে গিয়ে টাঙ্গাইলের সন্তোষে ছাত্রলীগের হামলার শিকার হয়েছেন গণঅধিকার পরিষদের আহ্বায়ক ড. রেজা কিবরিয়া এবং সদস্য সচিব ও ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের সাবেক ভিপি নুরুল হক নুর। বুধবার (১৭ নভেম্বর) দুপরে এ হামলার ঘটনা ঘটে। এতে আমাদের আহ্বায়ক ড. রেজা কিবরিয়া ও সদস্য সচিব নুরুল হক নুরসহ সংগঠনটির বেশ কয়েকজন নেতাকর্মী আহত হয়।

ছাত্রলীগের পক্ষ থেকে বলা হয়েছে, সরকার ও প্রধানমন্ত্রী বিরোধী শ্লোগান দেয়ায় তারা প্রতিবাদ জানালে তাদের উপর হামলা চালালো হয়েছে।

টাঙ্গাইলের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (সদর সার্কেল) সরোয়ার হোসেন বলেন, ‘গণঅধিকার পরিষদের নেতারা মওলানা ভাসানীর মাজারে কাছাকাছি পৌঁছার পর বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্রলীগের নেতাকর্মীরা হামলা চালান। পরে ধাওয়া-পাল্টা ধাওয়ার ঘটনা ঘটে। একপর্যায়ে ড. কিবরিয়া ও ভিপি নুরসহ গণঅধিকার পরিষদের নেতাকর্মীদের পুলিশি নিরাপত্তায় ঘটনাস্থল থেকে সরিয়ে দেওয়া হয়। পরে তারা চলে গেছেন।’

হামলার শিকার হওয়ার পৌনে তিন ঘণ্টা পর পুলিশি নিরাপত্তায় টাঙ্গাইল ছেড়েছেন রেজা কিবরিয়া, ভিপি নুর ও তাদের সফর সঙ্গীরা।

এ ঘটনার প্রতিবাদে বুধবার সন্ধ্যায় ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের সন্ত্রাস বিরোধী রাজু ভাস্কর্যের পাদদেশে প্রতিবাদী বিক্ষোভ মিছিল করেছে বাংলাদেশ ছাত্র অধিকার পরিষদ।

এদিকে এ হামলা গণতন্ত্রের জন্য মারাত্মক হুমকি ও অশনি সংকেত বলে মন্তব্য করেছেন গণফোরামের সভাপতি ড. কামাল হোসেন। পাশাপাশি এ ধরনের হামলার তীব্র নিন্দা জ্ঞাপন এবং যারা এ ধরনের হামলা চালিয়েছে তাদেরকে বিচারের আওতায় আনার জন্য সরকারের প্রতি জোর দাবি জানান তিনি।

এই ইস্যুতে ফেইসবুকসহ বিভিন্ন সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমেও বইছে তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদের ঝড়।

এইচ এ সাদ্দাম ফেইসবুকে লিখেছেন, ‘মাওলানা ভাসানী বাংলাদেশের গর্ব। তার মৃত্যুর পরে তার কবর জেয়ারতকে কেন্দ্র করে এমন পরিস্থিতি কখনোই কাম্য নয়।’

ক্ষোভ প্রকাশ করে মোস্তফা কামাল মামুন লিখেছেন, ‘ফুল নিয়ে এসে রক্ত দিয়ে শ্রদ্ধাঞ্জলি জানানো হলো মাওলানা ভাসানীকে।’

দৃষ্টান্তমুলক বিচারের আহ্বান জানিয়ে এমপি রহিম লিখেছেন, ‘টাঙ্গাইলের সন্তান হিসেবে আমি আজকের এই ন্যাক্কারজনক ঘটনার জন্য খুবই মর্মাহত। এই জঘন্য ঘটনার জন্য সর্বোচ্চ নিন্দা জ্ঞাপন করছি এবং ঘটনার জন্য দায়ীদের দৃষ্টান্তমুলক বিচারের আহ্বান করছি।’

নিন্দা জানিয়ে নুরুন্নবী মন্ডল লিখেছেন, ‘মাওলানা ভাসানী সর্বোস্তরের মানুষের নেতা। দল মত নির্বিশেষে সবাই ওনাকে শ্রদ্ধা জানাবে এটা খারাপ কিছু না। কিন্তু কিছু .....দের এরকম আক্রমণ সত্যিই নিন্দনীয়। এরা নাকি আবার আদর্শের বুলি ছড়িয়ে বেড়ায় আফসোস!’

সাইদুর রহমান রকির জিজ্ঞাসা, ‘পুলিশের উপস্থিতিতে আক্রমণ হয় কি করে? প্রত্যেক দলের তার নিজস্ব কার্যক্রম পরিচালনার অধিকার আছে। এই আক্রমণগুলোর বিচার হয় না বলেই আজ বাংলাদেশে এই জঘন্য রাজনীতির চর্চা চলে আসছে।’



 

Show all comments
  • দেশপ্রেমিক সৈনিক ১৮ নভেম্বর, ২০২১, ১০:১২ এএম says : 0
    বাংলাদেশে ছাত্রলীগ বলে কোন কিছু নেই, ওটা ...............লীগ।
    Total Reply(0) Reply
  • Nazrul Bangla ১৭ নভেম্বর, ২০২১, ১১:৫১ পিএম says : 0
    শেকড় যদি ঠিক না থাকে ডালপালা কি ভাবে ভাল হবে।
    Total Reply(0) Reply

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ
গত​ ৭ দিনের সর্বাধিক পঠিত সংবাদ