Inqilab Logo

শুক্রবার, ২৮ জানুয়ারী ২০২২, ১৪ মাঘ ১৪২৮, ২৪ জামাদিউস সানি ১৪৪৩ হিজরী

‘নাফতালির সরকার ইসরাইলের জঘন্যতম সরকার’

ইনকিলাব ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ২০ নভেম্বর, ২০২১, ২:১৪ পিএম

ইসরাইলে নাফতালি বেনেতের নেতৃত্বের বর্তমান সরকারকে আগের সব সরকারের চেয়ে ‘জঘন্যতম’ হিসেবে মন্তব্য করেছেন ফিলিস্তিনি কর্তৃপক্ষের প্রেসিডেন্ট দফতরের এক মুখপাত্র। গত বৃহস্পতিবার ফিলিস্তিনি রেডিও ভয়েস অব প্যালেস্টাইনের সাথে এক সাক্ষাতকারে এমন মন্তব্য করেন নাবিল আবু রুদাইনা নামের এই কর্মকর্তা।

তিনি বলেন, ‘আমাদের জনগণ এক নাগাড়ে বিভিন্ন ইসরাইলি সরকারের মুখোমুখি হয়েছে যারা শান্তি প্রক্রিয়া প্রতিষ্ঠার যে কোনো ব্যবস্থাকেই ধ্বংস করেছে। বর্তমান দখলদার সরকার দৈনিক হত্যাকাণ্ড ও অন্যান্য যুদ্ধাপরাধের মাধ্যমে তাদের পূর্বসূরীদের ছাড়িয়ে গিয়েছে।’

আবু রুদাইনা সতর্ক করে বলেন, ‘ফিলিস্তিনি নেতৃত্ব আন্তর্জাতিক আইন লঙ্ঘন করা অপরাধের দায়ে আন্তর্জাতিক ফোরামসমূহে ইসরাইলকে অভিযুক্ত করার আইনি প্রক্রিয়ার প্রস্তুতি নিচ্ছেন।’

তিনি জানান, ফিলিস্তিনি প্রেসিডেন্ট মাহমুদ আব্বাস বুধবার রামাল্লায় জাতিসঙ্ঘে যুক্তরাষ্ট্রের দূত লিন্ডা টমাস-গ্রিনফিল্ডের সাথে এক বৈঠক করেন। বৈঠকে আব্বাস জেরুসালেমের অবস্থান ও মর্যাদা পরিবর্তনে ইসরাইলের যে কোনো চেষ্টার প্রতি সতর্কতা জানান। এই ধরনের চেষ্টা পরিস্থিতিকে গুরুতর করবে এবং দুই রাষ্ট্রভিত্তিক সমাধানকে নস্যাৎ করবে বলে জানান তিনি।

আবু রুদাইনা বলেন, ‘বৈঠকে আব্বাস জানান, তিনি বাইডেন প্রশাসনের কাছে দুই রাষ্ট্রভিত্তিক সমাধান, বসতি নির্মাণ (ইসরাইলি বসতি নির্মাণ) ও (জেরুসালেমে ফিলিস্তিনিদের জন্য) মার্কিন কনস্যুলেট খোলার বিষয়ে প্রতিশ্রুতি ও প্রতিজ্ঞায় বহাল থাকবেন।’
জাতিসঙ্ঘের তথ্য অনুসারে, চলতি বছরের ১ জানুয়ারি থেকে ৩১ অক্টোবর পর্যন্ত ইসরাইল জেরুসালেমসহ পশ্চিম তীর ও গাজা উপত্যকায় তিন শ’ ৩১ ফিলিস্তিনিকে খুন ও ১৬ হাজারের বেশি ফিলিস্তিনিকে আহত করেছে।

অপরদিকে একইসময়ে জেরুসালেমসহ পশ্চিম তীরে ফিলিস্তিনিদের সাত শ’ ২১টি বাড়ি গুড়িয়ে দিয়েছে ইসরাইলি কর্তৃপক্ষ। সূত্র : মিডল ইস্ট মনিটর



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: ইসরাইল


আরও
আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ
গত​ ৭ দিনের সর্বাধিক পঠিত সংবাদ