Inqilab Logo

সোমবার, ১৭ জানুয়ারী ২০২২, ০৩ মাঘ ১৪২৮, ১৩ জামাদিউস সানি ১৪৪৩ হিজরী

‘নৌকার বাইরে ভোট দিলে বাড়ি ঘুমাতে পারবেন না’

যশোর ব্যুরো : | প্রকাশের সময় : ২২ নভেম্বর, ২০২১, ১২:০৩ এএম

যশোরের বাঘারপাড়ার উপজেলার জহুরপুর ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে নৌকার প্রার্থী নির্বাচনী সভায় ভয়ভীতি প্রদর্শন ও হুমকি ধামকি প্রদানের অভিযোগ পাওয়া গেছে। গত ১৮ নভেম্বর রাতে ইউনিয়নের উত্তর চাঁদপুরে নির্বাচনী সভায় জহুরপুর ইউনিয়নের সাবেক চেয়ারম্যান যুবলীগ নেতা দ্বীন মোহাম্মদ দিলু পাটোয়ারী এই আতঙ্ক ছড়ানো বক্তব্য উপস্থাপন করেন। ফেসবুকে এই বক্তব্যের ভিডিও ভাইরাল হওয়ায় এ নিয়ে নানা আলোচনা সমালোচনা হচ্ছে।

সভায় সাবেক চেয়ারম্যান দ্বীন মোহাম্মদ দিলু পাটোয়ারী বলেন, কতিপয় বিএনপি-জামায়াত নেতাকর্মী বলছে ওমুক মার্কায় ভোট দেবো। তারা ভোট দেয়ার সুযোগ পাবে না। এমন জায়গায় চুলকিয়ে দেবো, কাউকে দেখাতে পারবে না, হাসপাতালেও চিকিৎসা হবে না। পুলিশের কাছে যেয়েও কাজ হবে না। পুলিশ প্রজাতন্ত্রের কর্মচারী, তারা কি স্বতন্ত্র প্রার্থীর পক্ষে অবস্থান নেবে?

নৌকার প্রার্থী আসাদুজ্জামান মিন্টু চেয়ারম্যান নির্বাচিত হবেন দাবি করে দিলু পাটোয়ারী বলেন, বিএনপি-জামায়াতের প্রধান বলেছেন তারা নির্বাচনে যাবেন না। তাহলে আপনারা কেন চুলকো-চুলকি করছেন? আমরা কি করতে পারি আপনারা জানেন। ২০১৬ সালে দেখাইছি। আমি চাই না জহুরপুরের কারো ক্ষতি হোক। তাই নৌকার বাইরে যারা ভোট দিতে চান, তাদের ভোটকেন্দ্রে যাওয়ার দরকার নেই। বাড়ি ঘুমান ভালো থাকবেন। ভোট দিতে গেলে অনেক বড় ক্ষতি হয়ে যাবে। ইতিহাসের সাক্ষী হয়েন না।

দিলু পাটোয়ারী আরও বলেন, ‘মাস্টার মনিরুল সাহেব বলেছেন, উত্তর চাঁদপুরে নৌকার মিটিং করা যাবে না। নৌকার মিটিং বন্ধ করতে চাইলে পাছার চামড়া থাকবে না। নকশাল সর্বহারাদের আমি গুনি না। বুড়ো বান্দরদের আপনারা ২৮ তারিখ জবাব দেবেন।’

‘নির্বাচন নিয়ে খেলতে আইসেন না; এমন খেলা খেলে দিবানে যে বাড়ি ঘুমাতে পারবেন না। বাড়ি যদি ঘুমাতে চান ২৮ তারিখ ভোট দিতে যাওয়ার চেষ্টা করবেন না। ২৭ তারিখ ব্যাপক ভাঙচুর হবে, ২৮ তারিখের পর ২৯ তারিখও আরও ভাঙচুর হবে। যারা আপনাদের আশস্ত করছে, বদর মোল্লা চেয়ারম্যান হলে আর কেউ কাছে আসতে পারবে না।

নেতাকর্মীদের উদ্দেশে দিলু পাটোয়ারী বলেন, আপনারা ভয় পাবেন না। আপনারা কিসের ভয় পান? ওদের কাছে কি আছে? আপনাদের কাছে যা আছে, যদি ওরা দেখে তাহলে ওদের কলিজা শুকিয়ে যাবে। যারা নৌকার বাইরে ভোট দিতে যেতে চায় তাদের নিষেধ করবেন। তারপরও যারা যেতে চায় তাদের তালিকা করবেন।

তিনি আরো বলেন, নির্বাচনের পর বদর মোল্লাকে খুঁজেও পাবেন না। ভোটের পর তো সে ঝিনেদা পলাবে। যারা অন্য জায়গায় ভোট দিতে চায় তালিকা দেন। কিভাবে বাড়ি ঘুমায় দেখবো। কোন নেতা আর কোন পুলিশ তাদের বাঁচায় আমি দেখবো। এদের ঘুম হারাম করে দেবো।
সভায় ভয়ভীতি প্রসঙ্গে সাবেক ইউপি চেয়ারম্যান যুবলীগ নেতা দিলু পাটোয়ারীর সঙ্গে যোগাযোগ করা হলে তিনি ভয়ভীতি প্রদর্শনের বিষয়টি অস্বীকার করেন। তিনি দাবি করেন, বিএনপি প্রধান খালেদা জিয়া যেহেতু নির্বাচন বর্জন করেছেন। তাই তিনি বিএনপি নেতাকর্মীদের নির্বাচনে আসতে নিরুৎসাহিত করেছেন।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: ভোট


আরও
আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ
গত​ ৭ দিনের সর্বাধিক পঠিত সংবাদ