Inqilab Logo

শুক্রবার, ২১ জানুয়ারী ২০২২, ০৭ মাঘ ১৪২৮, ১৭ জামাদিউস সানি ১৪৪৩ হিজরী

ড্যানিশ ফুডসের বিরুদ্ধে ভ্যাট ফাঁকির মামলা

অর্থনৈতিক রিপোর্টার | প্রকাশের সময় : ২৪ নভেম্বর, ২০২১, ১২:০৩ এএম

ভ্যাট ফাঁকির অভিযোগে ড্যানিশ ফুডসের বিরুদ্ধে মামলা করেছে ভ্যাট গোয়েন্দা অধিদফতর। অধিদফতর বলছে, পারটেক্স গ্রæপের এ প্রতিষ্ঠানটির বিরুদ্ধে তদন্ত করে ৩ কোটি ৪৬ লাখ টাকার ভ্যাট ফাঁকির প্রমাণ মিলেছে। অধিদফতর থেকে পাঠানো এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে গতকাল এ বিষয়টি জানানো হয়েছে।
বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, ভ্যাট গোয়েন্দার সহকারী পরিচালক আলমগীর হুসেনের নেতৃত্বাধীন একটি দল ড্যানিশ ফুডসের গত ২০১৭-১৮ অর্থবছরের কার্যক্রম তদন্ত করে। তদন্তকালে প্রতিষ্ঠানের দেওয়া দলিলপত্র, মূসক পরিশোধ সংক্রান্ত ট্রেজারি চালান যাচাই-বাছাই করে একটি তদন্ত প্রতিবেদন করা হয়।
তদন্ত প্রতিবেদনে বলা হয়, প্রতিষ্ঠানটি ওই অর্থবছরে বিভিন্ন সেবা খাতের বিপরীতে উৎসে ভ্যাট বাবদ ১২ লাখ ৬ হাজার টাকা পরিশোধ করেছে। তবে প্রতিষ্ঠানের ভ্যাটের পরিমাণ ছিল ৩১ লাখ ৭৯ হাজার টাকা। তার মানে ১৯ লাখ ৭৩ হাজার টাকা অপরিশোধিত ছিল। এই ফাঁকির ওপর ভ্যাট আইন অনুসারে, মাসিক ২ শতাংশ হারে ২ লাখ ৩২ হাজার ৮৪৬ টাকা বিলম্বজনিত সুদ প্রযোজ্য হবে। এ ছাড়া ২০১৭-১৮ অর্থবছরে বিজ্ঞাপনের বর্ধিত মূল্যের ওপর অতিরিক্ত রেয়াত, চায়ের জন্য টি পেপার ক্রয়ে অতিরিক্ত রেয়াতসহ বিভিন্ন খাতে ড্যানিশ ফুডসের ৬৪ লাখ ২১ হাজার ৮০৬ টাকা ভ্যাট দেওয়ার কথা ছিল। প্রতিষ্ঠানটি সেই টাকা পরিশোধ করেনি।
আবার সাড়ে ৭ শতাংশ উপকরণ মূল্যবৃদ্ধি পাওয়ায় সংশোধিত মূল্য ঘোষণা না দেওয়ায় বর্ধিত মূল্যের ওপর গৃহীত রেয়াত কর্তন বাবদ ৩ কোটি ৭০ লাখ প্রদান করার কথা ছিল প্রতিষ্ঠানটির। তারা ১ কোটি ১১ লাখ টাকা সমন্বয় করে। ফলে প্রতিষ্ঠানটির অপরিশোধিত ভ্যাটের পরিমাণ দাঁড়ায় ২ কোটি ৫৯ লাখ ৬২ হাজার টাকা। প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, সব মিলিয়ে ড্যানিশ ফুডসের অপরিশোধিত ভ্যাটের পরিমাণ ৩ কোটি ৪৩ লাখ ৫৭ হাজার টাকা। আর সুদের পরিমাণ ২ লাখ ৩২ হাজার ৮৪৬ টাকা। ইতোমধ্যে প্রতিষ্ঠানটির কর্তৃপক্ষ অপরিশোধিত ভ্যাটের অভিযোগ মেনে নিয়ে স্বতঃপ্রণোদিত হয়ে ২ কোটি ৪৫ লাখ ৯০ হাজার টাকা সরকারি কোষাগারে জমা দিয়েছে। সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে আরও বলা হয়, তদন্তে উদ্ঘাটিত অপরিশোধিত বাকি রাজস্ব আদায় ও পরবর্তী কার্যক্রম গ্রহণের জন্য ড্যানিশ ফুডসের বিরুদ্ধে মামলা করা হয়েছে।

 



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ