Inqilab Logo

ঢাকা বুধবার, ২১ অক্টোবর ২০২০, ৫ কার্তিক ১৪২৭, ০৩ রবিউল আউয়াল ১৪৪২ হিজরী
শিরোনাম

খুলনায় দায়িত্বরত ট্রাফিক সার্জেন্টকে পিটিয়ে জখম

প্রকাশের সময় : ২১ অক্টোবর, ২০১৬, ১২:০০ এএম

খুলনা ব্যুরো : খুলনা মহানগরীর পাওয়ার হাউজ মোড়ে কর্তব্যরত ট্রাফিক সার্জেন্ট মোঃ আবু বক্কার সিদ্দিককে পিটিয়ে আহত করেছে দুর্বৃত্তরা। সহকর্মীকে প্রকাশ্যে রাস্তায় মারপিটের ঘটনায় পুলিশের মধ্যে উত্তেজনা দেখা দিয়েছে। বিষয়টি নিয়ে স্থানীয়ভাবে মীমাংসার চেষ্টা করা হয়েছে; কিন্তু হয়নি। আহত সার্জেন্টকে চিকিৎসার জন্য হাসপাতালে নেয়া হয়েছে। গতকাল বৃহস্পতিবার বিকেলে খুলনা-২ আসনের সংসদ সদস্য আলহাজ মিজানুর রহমান মিজানের বোন মহানগর দায়রা জজ আদালতের পিপি সুলতানা রহমান শিল্পীসহ ৩/৪ জন একটি ইজিবাইকে চড়ে আদালত থেকে শিববাড়ির দিকে যাওয়ার পথে এ ঘটনা ঘটে।
আহত সার্জেন্ট মোঃ আবু বক্কার সিদ্দিক জানান, গতকাল বৃহস্পতিবার বিকেল ৫টার দিকে নগরীর পাওয়ার হাউজ মোড়ে ডিউটি করছিলেন ট্রাফিক পুলিশ কনস্টেবল ফসিয়ার রহমান। ডাকবাংলো মোড় হয়ে একটি ইজিবাইক পাওয়ার হাউজ মোড় হয়ে শিববাড়ির দিকে যাওয়ার পথে ট্রাফিক পুলিশ সদস্য ফসিয়ার বাধা দেন। এসময় ইজিবাইকে থাকা এ্যাড. সুলতানা রহমান শিল্পীর সাথে কথা কাটাকাটি হয়। খবর পেয়ে সার্জেন্ট মোঃ আবু বক্কার সিদ্দিক ঘটনাস্থলে এসে ওই রাস্তায় ইজিবাইক যেতে দেয়া হবে না বলে জানান। এর কিছু সময় পরেই ১৫/১৬ জন যুবক ঘটনাস্থলে এসে সার্জেন্ট মোঃ আবু বক্কার সিদ্দিককে প্রকাশ্যে মারপিট শুরু করে।
এ ঘটনার খবর পেয়ে কেএমপি (সদর জোনের) সহকারী কমিশনার কনক কুমার দাস, ট্রাফিক বিভাগের সহকারী কমিশনার তারেক আল মেহেদী, সদর থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) মোঃ শফিকুল ইসলাম ঘটনাস্থলে যান। এসময় স্থানীয় কাইফেং রেস্টুরেন্টে বসে ঘটনার বিষয়ে উভয় পক্ষের কথা শোনা হয়। সেখানে খুলনা-২ আসনের সংসদ সদস্য আলহাজ মিজানুর রহমান মিজানের বোন মহানগর দায়রা জজ আদালতের পিপি সুলতানা রহমান শিল্পী উপস্থিত ছিলেন। তবে সেখানে আলাপ আলোচনা করে কোনো সুরাহা হয়নি।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: খুলনায় দায়িত্বরত ট্রাফিক সার্জেন্টকে পিটিয়ে জখম
আরও পড়ুন