Inqilab Logo

মঙ্গলবার, ১৮ জানুয়ারী ২০২২, ০৪ মাঘ ১৪২৮, ১৪ জামাদিউস সানি ১৪৪৩ হিজরী

ইসলাম ও মুসলমানের বিরুদ্ধে গভীর ষড়যন্ত্র চলছে

পীর সাহেব চরমোনাই

স্টাফ রিপোর্টার | প্রকাশের সময় : ২৬ নভেম্বর, ২০২১, ১২:০২ এএম

ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশ-এর আমীর মুফতি সৈয়দ মুহাম্মাদ রেজাউল করীম পীর সাহেব চরমোনাই বলেছেন, ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনগুলোতে সকল তাগুতি শক্তিগুলো উঠে পড়ে লেগেছে। বিশেষ করে চরমোনাই ইউপি নির্বাচনকে কেন্দ্র করে দেশের বড় দু’টি দল আওয়ামী লীগ ও বিএনপির জোট হওয়ার পরও ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশ মনোনীত হাতপাখার প্রার্থী মাওলানা সৈয়দ জিয়াউল করিম সাহেবের বিপুল ভোটে বিজয়ী হওয়ার মধ্য দিয়ে ইসলামের গুরুত্ব বেড়েছে। পীর সাহেব চরমোনাই বলেন, নির্বাচনের নামে মূলত চরমোনাই ইউনিয়নে ভিন্ন খেলা শুরু করেছিল চক্রান্তকারীরা। মহান আল্লাহ পাক তাদের চক্রান্ত নস্যাৎ করে দিয়েছেন। এ কৃতিত্ব চরমোনাই ইউনিয়নবাসীর। তিনি বলেন, ইসলাম ও মুসলমানের বিরুদ্ধে গভীর ষড়যন্ত্র চলছে। আল্লাহ পাক সবদিক থেকে চরমোনাই দরবার, মাদরাসা, ইউনিয়নবাসীসহ পুরোদেশকে হেফাজত করুন।

গতকাল বৃহস্পতিবার বিকেলে ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশ চরমোনাই ইউনিয়ন শাখার উদ্যোগে অনুষ্ঠিত শোকরিয়া মাহফিলে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন। চরমোনাই ইউনিয়নে হাতপাখার চেয়ারম্যান পুনরায় নির্বাচিত হওয়ায় চরমোনাইবাসী এ শোকরিয়া মাহফিলের আয়োজন করেন। শোকরিয়া মাহফিলশেষে মনোজ্ঞ সাংস্কৃতিক সন্ধ্যার আয়োজন করা হয়। এতে দেশের শীর্ষ সাংস্কৃতিক সংগঠন কলরবসহ অন্যান্য সাংস্কৃতিক সংগঠনের শিল্পীরা হামদ, নাত নাশিদ পরিবেশন করেন। ইসলামী আন্দোলনের এক বিজ্ঞপ্তিতে এতথ্য জানানো হয়েছে।

মুফতী সৈয়দ মুহাম্মদ ফয়জুল করীম এর সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত শোকরিয়া মাহফিলে আরো বক্তব্য রাখেন, আল্লামা নূরুল হুদা ফয়েজী, নবনির্বাচিত চরমোনাই ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান মুফতী সৈয়দ জিয়াউল করীম, মাওলানা সৈয়দ কাওছার আহমদসহ চরমোনাই ইউনিয়নের বিশিষ্ট ব্যক্তিবর্গ, ইউনিয়ন নেতৃবৃন্দ, চরমোনাই ইউনিয়নের হিন্দুনেতারা।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: ইসলাম

১৫ জানুয়ারি, ২০২২
১৫ জানুয়ারি, ২০২২
১৪ জানুয়ারি, ২০২২

আরও
আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ
গত​ ৭ দিনের সর্বাধিক পঠিত সংবাদ