Inqilab Logo

মঙ্গলবার, ২৫ জানুয়ারী ২০২২, ১১ মাঘ ১৪২৮, ২১ জামাদিউস সানি ১৪৪৩ হিজরী

সূচকের বড় পতন

সর্বনিম্ন লেনদেন সাত মাসে

অর্থনৈতিক রিপোর্টার | প্রকাশের সময় : ২৯ নভেম্বর, ২০২১, ১২:০২ এএম

বাংলাদেশ সিকিউরিটিজ অ্যান্ড এক্সচেঞ্জ কমিশন (বিএসইসি) এবং বাংলাদেশ ব্যাংকের মধ্যে দেখা দেওয়া মতবিরোধের মধ্যেই আতঙ্ক ছড়িয়েছে করোনার নতুন ধরন ওমিক্রন। এতে গতকাল দেশের শেয়ারবাজারে বড় দরপতন হয়েছে। প্রধান শেয়ারবাজার ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জ (ডিএসই) এবং অপর শেয়ারবাজার চট্টগ্রাম স্টক এক্সচেঞ্জে (সিএসই) সবকটি মূল্যসূচকের বড় দরপতনের সঙ্গে কমেছে লেনদেনের পরিমাণ। লেনদেন কমে ডিএসইতে সাত মাসের মধ্যে সর্বনিম্ন লেনদেন হয়েছে। সেইসঙ্গে কমেছে লেনদেনে অংশ নেওয়া বেশিরভাগ প্রতিষ্ঠানের শেয়ার ও ইউনিটের দাম।
সপ্তাহের প্রথম কার্যদিবসে লেনদেন শুরু হতেই বিনিয়োগকারীদের একটি অংশ শেয়ার বিক্রির চাপ বাড়ান। ফলে লেনদেন শুরু হতেই সূচক ঋণাত্মক হয়ে পড়ে। যা অব্যাহত থাকে লেনদেনের শেষ পর্যন্ত। ফলে সূচকের বড় পতন দিয়ে দিনের লেনদেন শেষ হয়। যদিও বিশ্লেষকরা বলছেন, এই দরপতনের পেছনে করোনার নতুন ধরনের তেমন প্রভাব নেই। তাদের দাবি, বিএসইসি এবং বাংলাদেশ ব্যাংকের মধ্যে দেখা দেওয়া মতবিরোধের কারণে শেয়ারবাজারে দরপতন হচ্ছে।
বাজার পর্যালোচনায় দেখা যায়, ডিএসইতে লেনদেন শুরুর ১০ মিনিটের মাথায় প্রধান মূল্যসূচক ডিএসইএক্স ১১ পয়েন্ট পড়ে যায়। সময়ের সঙ্গে সূচকের পতনের মাত্রা বাড়তে থাকে। ফলে দিনের লেনদেন শেষে ডিএসইর প্রধান সূচক ডিএসইএক্স আগের দিনের তুলনায় ৭৮ পয়েন্ট কমে ছয় হাজার ৭৭৩ পয়েন্টে নেমে গেছে।
অপর দুই সূচকের মধ্যে বাছাই করা ভালো কোম্পানি নিয়ে গঠিত ডিএসই-৩০ সূচক ২৬ পয়েন্ট কমে দুই হাজার ৫৭৬ পয়েন্টে অবস্থান করছে। আর ডিএসই শরিয়াহ্ সূচক ১৩ পয়েন্ট কমে এক হাজার ৪২৯ পয়েন্টে দাঁড়িয়েছে।
দিনভর ডিএসইতে লেনদেনে অংশ নেওয়া ৬৬ প্রতিষ্ঠানের শেয়ার ও ইউনিট দাম বাড়ার তালিকায় নাম লিখিয়েছে। বিপরীতে দাম কমেছে ২৯১টির। আর ১৫টির দাম অপরিবর্তিত রয়েছে।
ডিএসইতে লেনদেন হয়েছে ৮৩৭ কোটি ১০ লাখ টাকা। যা চলতি বছরের ২৭ এপ্রিলের পর সর্বনিম্ন। ২৭ এপ্রিল ডিএসইতে ৮২৪ কোটি ৩৬ লাখ টাকার লেনদেন হয়।
লেনদেন খরার বাজারে টাকার অঙ্কে ডিএসইতে সব থেকে বেশি লেনদেন হয়েছে বেক্সিমকোর শেয়ার। কোম্পানিটির ৯১ কোটি ৭২ লাখ টাকার শেয়ার লেনদেন হয়েছে। দ্বিতীয় স্থানে থাকা ওয়ান ব্যাংকের ৫৭ কোটি ১৫ লাখ টাকার লেনদেন হয়েছে। ৪৬ কোটি ৪৫ লাখ টাকার শেয়ার লেনদেনের মাধ্যমে তৃতীয় স্থানে রয়েছে আইএফআইসি ব্যাংক।
এছাড়া ডিএসইতে লেনদেনের দিক থেকে শীর্ষ দশ প্রতিষ্ঠানের তালিকায় রয়েছে-প্যারামাউন্ট টেক্সটাইল, ফার্স্ট সিকিউরিটি ইসলামী ব্যাংক, ডেল্টা লাইফ ইন্স্যুরেন্স, আনোয়ার গ্যালভানাইজিং, ওরিয়ন ফার্মা, সাইফ পাওয়ারটেক এবং এনআরবিসি ব্যাংক।
অপর শেয়ারবাজার চট্টগ্রাম স্টক এক্সচেঞ্জের (সিএসই) সার্বিক মূল্যসূচক সিএএসপিআই কমেছে ২২০ পয়েন্ট। বাজারটিতে লেনদেন হয়েছে ৩৯ কোটি ১২ লাখ টাকা। লেনদেনে অংশ নেওয়া ২৬৬টি প্রতিষ্ঠানের মধ্যে ৫৩টির দাম বেড়েছে। বিপরীতে দাম কমেছে ১৯২টির এবং ২১টির দাম অপরিবর্তিত রয়েছে।

 

 



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: বিএসইসি

২৯ নভেম্বর, ২০২১

আরও
আরও পড়ুন