Inqilab Logo

সোমবার, ১৭ জানুয়ারী ২০২২, ০৩ মাঘ ১৪২৮, ১৩ জামাদিউস সানি ১৪৪৩ হিজরী

নির্বাচন কর্মকর্তার কার্যালয়ে সেবা নিতে গিয়ে মারধরের শিকার প্রবাসী

নোয়াখালী ব্যুরো | প্রকাশের সময় : ২৯ নভেম্বর, ২০২১, ৬:৩২ পিএম | আপডেট : ৬:৩৫ পিএম, ২৯ নভেম্বর, ২০২১

সোনাইমুড়ী উপজেলা নির্বাচন কর্মকর্তার কার্যালয়ে এক সেবা প্রার্থী সৌদি প্রবাসীকে মারধর করার অভিযোগ উঠেছে।

সোমবার সোনাইমুড়ী উপজেলা নির্বাচন কর্মকর্তার কার্যালয়ে এ ঘটনা ঘটে।

বিচার চেয়ে ভুক্তভোগী আজগর হোসেন সোনাইমুড়ী উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তার বরাবর লিখিত অভিযোগ দিয়েছেন।

ভুক্তভোগী ও লিখিত অভিযোগে জানা যায়, সোমবার সকাল ১১ টার দিকে জাতীয় পরিচয় পত্র সংশোধনের আবেদন ভুল হওয়ার কারণে অনলাইন আবেদন কপি ডিলিট করার জন্য সোনাইমুড়ী উপজেলা নির্বাচন অফিসে যান প্রবাসী আজগর হোসেন যান। আকস্মিক উপজেলা নির্বাচন কর্মকর্তা শেখ ফরিদ উত্তেজিত হয়ে কাগজপত্র ছুঁড়ে ফেলে দেয়। এ সময় প্রবাসী প্রতিবাদ করলে অফিস সহকারী আইয়ুব উল্যাহ ও উপজেলা নির্বাচন কর্মকর্তা শেখ ফরিদ তাকে কয়েক বার ধাক্কা মেরে ও কিলঘুষি দিয়ে অফিস থেকে বের দেয়। এরপর নির্বাচন কর্মকর্তা শেখ ফরিদ তেড়ে এসে তাকে পুলিশের ভয়-ভীতি ও বাথরুমে আটকে রাখার হুমকি ধমকি দেয়। ভুক্তভোগী প্রবাসী এ ঘটনার সুষ্ঠু তদন্ত করে দোষীদের শাস্তি দাবি করেন।

সোনাইমুড়ী উপজেলা নির্বাচন কর্মকর্তা শেখ ফরিদ জানান, এ উপজেলায় ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনের তফসিল ২৭ তারিখে ঘোষণা হয়েছে। তারা নির্বাচন নিয়ে ব্যস্ত আছেন। সকালে অফিসে এক প্রবাসীর সাথে ভুল বুঝাবুঝি হয়েছে। তবে তিনি প্রবাসীকে মারধর করার অভিযোগ অস্বীকার করেন।

সোনাইমুড়ী উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা ফজলুর রহমান বলেন, নির্বাচন কর্মকর্তা ও তার অফিসের এক কর্মচারীর বিরুদ্ধে এক প্রবাসীকে মারধর ও অসদাচরণ করার অভিযোগ এনে লিখিত অভিযোগ করেছেন ভুক্তভোগী প্রবাসী।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: মারধর

৭ ডিসেম্বর, ২০২১

আরও
আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ
গত​ ৭ দিনের সর্বাধিক পঠিত সংবাদ