Inqilab Logo

ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ০৬ আগস্ট ২০২০, ২২ শ্রাবণ ১৪২৭, ১৫ যিলহজ ১৪৪১ হিজরী

ভবিষ্যতের পথ নির্দেশ ও ব্রিটেনের সঙ্গে ইইউর সম্পর্কই গুরুত্বপূর্ণ

ব্রেক্সিট নিয়ে ফের গণভোট হবে না : তেরেসা মে

প্রকাশের সময় : ২২ অক্টোবর, ২০১৬, ১২:০০ এএম

ইনকিলাব ডেস্ক : ইইউতে থাকা বা না থাকা নিয়ে (ব্রেক্সিট) ফের গণভোট অনুষ্ঠান করবে না ব্রিটেন। এ ব্যাপারে ব্রিটেন যে সিদ্ধান্ত নিয়েছে তা অপরিবর্তনীয় থাকবে বলে খবরে বলা হয়েছে। গত বৃহস্পতিবার ব্রাসেলসে ইউরোপিয়ান কাউন্সিলের সঙ্গে বৈঠকে ব্রিটিশ প্রধানমন্ত্রী তেরেসা মে ইউরোপীয় ইউনিয়নের (ইইউ) ২৭টি দেশের নেতৃবৃন্দকে এ বার্তা দেন। তিনি বলেন, ব্রিটেনের সঙ্গে ইইউর সম্পর্ক ও ভবিষ্যতের পথ নির্দেশই গুরুত্বপূর্ণ। ব্রিটিশ সংবাদমাধ্যম এক প্রতিবেদনে এ তথ্য জানিয়েছে। গত জুনে ব্রেক্সিট ইস্যুতে গণভোটের পর এই প্রথম কাউন্সিলের সঙ্গে বৈঠকে বসেছেন তেরেসা মে। ১০ নং ডাউনিংস্ট্রিটের একটি সূত্র জানিয়েছে, তেরেসা মে ইইউ নেতাদের বলেন, ব্রিটেনের জনগণ তাদের নিজেদের সিদ্ধান্ত নিয়েছে এবং এটা সঠিক ও যথার্থ যে এ সিদ্ধান্তকে সম্মান জানানো হয়েছে। দ্বিতীয়বার কোনো গণভোট হবে না। ইইউ ছেড়ে যাওয়ার পর ব্রিটেনের সঙ্গে সম্পর্ক ও ভবিষ্যতের পথ নির্দেশই গুরুত্ব দেয়া উচিৎ। ওই সূত্র আরো জানিয়েছে, ব্রেক্সিটের কারণে ব্রিটেন ও ইউরোপের অন্যান্য দেশগুলোতে অর্থনৈতিক ও রাজনৈতিক অস্থিরতা তৈরি হতে পারে বলে যে আশঙ্কা করা হচ্ছে তা নাকচ করে দিয়ে ইইউ নেতাদের বৈঠকে আশ্বস্ত করেন তেরেসা মে। সূত্র বলেন, তিনি (ব্রিটিশ প্রধানমন্ত্রী) চান বিদায় প্রস্তুতির শেষ পর্যায়ে ইইউ যেমন শক্তিশালী হবে তেমনি ব্রিটেনও শক্তিশালী অংশীদার হবে। ব্রিটেনের বের হয়ে যাওয়ার প্রক্রিয়ার কারণে ইইউর অন্য দেশগুলোর ক্ষতি হবে এটা তিনি চান না। তিনি চান এটি হবে মসৃণ, গঠনমূলক ও ধারাবাহিক প্রক্রিয়ার মধ্য দিয়ে। প্রসঙ্গত, ব্রেক্সিট নিয়ে ইতোমধ্যে বিশ্ব নেতৃবৃন্দের মাঝে মিশ্র প্রতিক্রিয়া দেখা গেলেও কারো পক্ষ থেকে সুনির্দিষ্ট কোন সমাধান আসেনি। তবে অনেকেই মনে করছিলেন যে, হয়তো পুনরায় গণ ভোট অনুষ্ঠিত হতে পারে। কিন্তু তেরেসা মে’র মন্তব্য থেকে স্পষ্ট হয়ে গেল যে, ব্রেক্সিট নিয়ে ফের গণভোট হচ্ছে না। সূত্র : গার্ডিয়ান।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: ভবিষ্যতের পথ নির্দেশ ও ব্রিটেনের সঙ্গে ইইউর সম্পর্কই গুরুত্বপূর্ণ
আরও পড়ুন
গত​ ৭ দিনের সর্বাধিক পঠিত সংবাদ