Inqilab Logo

শুক্রবার, ২১ জানুয়ারী ২০২২, ০৭ মাঘ ১৪২৮, ১৭ জামাদিউস সানি ১৪৪৩ হিজরী
শিরোনাম

এখনও ওমিক্রনে মৃত্যু হয়নি কারো!

অনলাইন ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ৪ ডিসেম্বর, ২০২১, ১২:৪৫ পিএম

ওমিক্রন কাঁটায় আটকে বিশ্ববাসীর জীবন। এই মুহূর্তে করোনার নতুন এই স্ট্রেন ছড়িয়ে পড়েছে বিশ্বের ৩৮টি দেশে। এমনকী, ভারতেও ইতিমধ্যেই থাবা বসিয়েছে কোভিডের এই নতুন স্ট্রেন। স্বাভাবিকভাবেই প্রশ্ন উঠছে, করোনার এই নতুন স্ট্রেন কতটা ঘাতক?

এবার এই প্রশ্নের উত্তর দিল বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা। তারা জানাচ্ছে, ৩৮টি দেশে ওমিক্রন থাবা বসালেও এখনও পর্যন্ত একজনেরও মৃত্যু হয়নি। সম্প্রতি আমেরিকা এবং অস্ট্রেলিয়াতেও ছড়িয়ে পড়েছে এই ভ্যারিয়্যান্ট। এদিকে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার তরফে জানানো হয়েছে, এই ভ্যারিয়্যান্ট আদতে কতটা সংক্রামক তা জানার জন্য কমপক্ষে কয়েক সপ্তাহ সময় লাগবে।

তবে ওমিক্রন সংক্রামক হলেও এই ভ্যারিয়্যান্টে আক্রান্তদের অধিকাংশই উপসর্গহীন বা তাদের শরীরে খুব সামান্য উপসর্গ দেখা দিচ্ছে। এই পরিস্থিতিতে হাসপাতালে নিয়ে যাওয়ার প্রয়োজন পড়ছে না। আক্রান্তরা চিকিৎসকদের পরামর্শে বাড়িতেই ওষুধ খেলে বা প্রাথমিক চিকিৎসা পেলে সুস্থ হয়ে যাচ্ছেন বলে খবর। বিশ্বে ওমিক্রন এখনও কোনও প্রাণ না কাড়ায় আশার আলো দেখছেন গবেষকরা। তাঁদের কথায়, এই ভ্যারিয়্যান্ট সংক্রামক হলেও ঘাতক নয় বলেই প্রাথমিকভাবে মনে হচ্ছে। তবে এই সম্পর্কে আরও গবেষণার প্রয়োজন রয়েছে।

ওমিক্রন প্রসঙ্গে ভাইরোলজিস্ট মার্ক ভ্যান র‌্যান্ট বলেছিলেন, 'ডেল্টা ভ্যারিয়্যান্টের সংক্রমণে করোনা আক্রান্ত রোগীর শরীরে একাধিক উপসর্গ দেখা যেত। এই ভ্যারিয়্যান্ট অত্যন্ত ঘাতক বলে প্রমাণিত হয়েছে। অন্যদিকে, ওমিক্রণ দ্রুত ছড়িয়ে পড়ে ঠিকই, কিন্তু, আক্রান্তের দেহে অনেক কম উপসর্গ দেখা যায়। এদিকে ওমিক্রন দ্রুত ছড়িয়ে পড়ে। সেক্ষেত্রে ডেল্টার পরিবর্তে ওমিক্রনকে জায়গা করে দেওয়া যেতে পারে। এটি একটি পজিটিভ খবর।'

এদিকে চেনা উপসর্গ গায়েব হয়ে গিয়েছে রাতারাতি। ওমিক্রনের এই ভ্যারিয়্যান্টের জেরে একাধিক নতুন উপসর্গ দেখা যাচ্ছে আক্রান্তদের মধ্যে। দক্ষিণ আফ্রিকার মেডিক্যাল অ্যাসোসিয়েসনের চেয়ারপার্সন ডা: অ্যাঞ্জেলিক কোয়েটজির কথায়, 'আক্রান্তদের মধ্যে জ্বরে আক্রান্ত হওয়া, স্বাদ-গন্ধ চলে যাওয়ার মতো উপসর্গগুলি থাকছে না। তার পরিবর্তে শরীরে দুর্বল ভাব, শরীরে যন্ত্রণার মতো নতুন উপসর্গগুলি দেখা যাচ্ছে।' এছাড়াও অনেকে ভুগছেন প্রবল মাথাব্যাথার সমস্যায়। সূত্র: টিওআই।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: করোনা

১৭ জানুয়ারি, ২০২২

আরও
আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ