Inqilab Logo

বৃহস্পতিবার, ২০ জানুয়ারী ২০২২, ০৬ মাঘ ১৪২৮, ১৬ জামাদিউস সানি ১৪৪৩ হিজরী

ডাক্তারদের সংগঠন থেকে মুরাদকে অব্যাহতি দেয়ার দাবি ডা. রফিকুল ইসলামের

স্টাফ রিপোর্টার | প্রকাশের সময় : ৭ ডিসেম্বর, ২০২১, ৮:৫৬ পিএম

কুরুচিপূর্ণ মন্তব্যের মাধ্যমে চিকিৎসক সমাজের ভাবমূর্তি বিতর্কিত করার জন্য ডাক্তারদের সকল সংগঠন থেকে মুরাদকে অব্যাহতি দেয়ার দাবি জানিয়েছেন বিএনপির স্বাস্থ্য বিষয়ক সম্পাদক ডা. মো. রফিকুল ইসলাম। একইসাথে বাংলাদেশ মেডিকেল ও ডেন্টাল কাউন্সিল (বিএমডিসি)-কে তার রেজিষ্ট্রেশন বাতিল করার দাবি জানান তিনি। মঙ্গলবার গণমাধ্যমে পাঠানো এক বিবৃতিতে ডা. মো. রফিকুল ইসলাম বলেন, জিয়া পরিবারকে নিয়ে করা মুরাদ হাসানের বক্তব্য, মন্তব্য পুরোটাই বানোয়াট, মিথ্যা ও ভিত্তিহীন। তার বক্তব্য বিকারগ্রস্ত মনেরই বহিঃপ্রকাশ। জিয়া পরিবার বাংলাদেশের স্বাধীনতা যুদ্ধ ও গণতান্ত্রিক সংগ্রামের অবিচ্ছেদ্য অংশ। তাঁদেরকে হেয় করার অর্থ দেশের মর্যাদাকে অসম্মান করার শামিল।

বিবৃতিতে তিনি বলেন, ডা. মুরাদ হাসান সমগ্র বাংলাদেশের চিকিৎসক সমাজের নিকট ধিকৃত একটি নাম। সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে তার ঔদ্ধত্যপূর্ণ আচরণ, বিভিন্ন অডিও ক্লিপ এ প্রচারিত তার কুরুচিপূর্ণ মন্তব্য ডাক্তার সমাজের ভাবমূর্তিকে বিতর্কিত করেছে। ব্যক্তিজীবন ও শিক্ষাজীবনেও তার বেপরোয়া জীবনযাপনের ঘটনা প্রমাণ করে যে, অসদাচরণ, উচ্ছৃঙ্খলতা ও মিথ্যাচার তার জীবনের অনুষঙ্গ।

ডা. রফিকুল ইসলাম বলেন, দলমত নির্বিশেষে সমগ্র চিকিৎসক সমাজ মনে করে-তার নামের আগে ডা. (ডাক্তার) যোগ করলে সম্মানজনক এই মহান পেশাকে অসম্মানিত করা হবে। তাই বাংলাদেশ মেডিকেল ও ডেন্টাল কাউন্সিল (বিএমডিসি)-কে তার রেজিষ্ট্রেশন বাতিল করার দাবি জানান তিনি। পাশাপাশি ডাক্তারদের সকল সংগঠন থেকেও তার অব্যাহতি চিকিৎসক সমাজ প্রত্যাশা করে বলেও মন্তব্য করেন বিএনপির এই নেতা।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: ডা. মুরাদ

১৬ জানুয়ারি, ২০২২
১৪ ডিসেম্বর, ২০২১

আরও
আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ