Inqilab Logo

শুক্রবার, ২০ মে ২০২২, ০৬ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৯, ১৮ শাওয়াল ১৪৪৩ হিজরী

বিজয় দিবসের অনুষ্ঠান উদযাপন উপলক্ষে চার স্তরের নিরাপত্তা বলয় গড়ে তোলা হয়েছে : ডিএমপি কমিশনার

অনলাইন ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ১৪ ডিসেম্বর, ২০২১, ১০:৪৩ পিএম | আপডেট : ১০:৪৪ পিএম, ১৪ ডিসেম্বর, ২০২১

মহান বিজয় দিবস ও স্বাধীনতার ৫০ বছর উদযাপন ও জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের জন্মশতবার্ষিকী উদযাপন উপলক্ষে চার স্তরের নিরাপত্তা বলয় গড়ে তোলা হয়েছে বলে জানিয়েছেন ঢাকা মেট্রোপলিটন পুলিশ (ডিএমপি) কমিশনার মোহা. শফিকুল ইসলাম। আজ দুপুরে জাতীয় সংসদ ভবনের দক্ষিণ প্লাজায় আয়োজিত আইন-শৃঙ্খলা সংক্রান্ত এক প্রেসব্রিফিংয়ে তিনি একথা বলেন ।

ডিএমপি কমিশনার বলেন, ‘বিজয় দিবসের অনুষ্ঠানকে ঘিরে সুনির্দিষ্ট কোনো হুমকি নেই। বৈশ্বিক পরিস্থিতি ও দেশীয় অভ্যন্তরীণ বিভিন্ন ইস্যু মাথায় রেখেই নিরাপত্তা ব্যবস্থা গ্রহণ করা হয়েছে। গোয়েন্দা পুলিশ, এপিবিএন, এসএসএফ, পিজিআরের সমন্বয়ে চার স্তরের নিরাপত্তা ব্যবস্থা নেওয়া হয়েছে।’ এছাড়া প্রতিটি ভেন্যুতে এসবি, এসএসএফ, র‌্যাব ও ডিএমপির ডগ স্কোয়াড দিয়ে সুইপিং করা হবে বলে জানান তিনি।

মোহা. শফিকুল ইসলাম বলেন, মহান বিজয় দিবস ও জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের জন্মশতবার্ষিকী উদযাপন উপলক্ষে সংসদ ভবনের আশ-পাশে এলাকার প্রতিটি বহুতল ভবনে পোশাকে ও সাদা পোশাকে নিযুক্ত থাকবেন আইন-শৃঙ্খলা বাহিনীর সদস্যরা। এছাড়া সোয়াতের বিশেষায়িত ও বোম ডিস্পোজাল ইউনিট ২৪ ঘণ্টা প্রস্তুত থাকবে। যেকোনো পরিস্থিতি মোকাবিলায় নোটিশ পাওয়ার সঙ্গে সঙ্গে তারা কাজ শুরু করবে।

নিশ্ছিদ্র নিরাপত্তা বলয় নিশ্চিত করতে ব্লক রেইড করা হচ্ছে জানিয়ে ডিএমপি কমিশনার বলেন, গত এক সপ্তাহ ধরে যতগুলো ভেন্যু রয়েছে, সবগুলোর আশপাশে সন্দেহভাজন আবাসিক হোটেল, বহুতল ভবন, মেস, বাসাবাড়িতে ব্লক রেইড করা হচ্ছে। যাতে করে আমাদের নিরাপত্তা বলয়ের মধ্যে আগে থেকেই কোনো সন্ত্রাসী-জঙ্গি ঢুকে থাকতে না পারে। তবে, বিশেষ পরিস্থিতি মোকাবিলায় সোয়াত ও বোম ডিসপোজাল ইউনিট সার্বক্ষণিক প্রস্তুত থাকবে বলেও জানান ডিএমপি কমিশনার।

নিরাপত্তা ব্যবস্থা গড়ে তোলা প্রসঙ্গে তিনি বলেন, আমন্ত্রিত দেশি-বিদেশি ভিভিআইপি, ভিআইপিরা যেসব রুটে চলাচল করবে সেসব রুটে প্রটেকশনের পাশাপাশি, রুফটপ নিরাপত্তা নিশ্চিত করা হবে। সংসদ ভবন এলাকার আশপাশে যতগুলো ভবন আছে সেখানে প্রত্যেক ফ্লোরে পুলিশ সদস্যরা মোতায়েন থাকবে। সংসদ ভবন এলাকায় ডাইভারসন করা হবে। সেটির প্লান আমরা জানিয়ে দেবো। আর এই অনুষ্ঠান উপলক্ষে প্রতিটি ভেন্যুতেই আমন্ত্রিত অতিথিরা যানবাহন ব্যবহার করে আসবেন। চারদিক থেকে যানবাহন আসবে। তাদের যানবাহন পার্ক করতে আমাদের বেগ পেতে হবে। তাই ভেন্যুর আশপাশে যানজট তৈরির সম্ভাবনা আছে। তাই আমন্ত্রিত অতিথিদের প্রতি অনুরোধ থাকবে সময় নিয়ে আসার জন্য।

প্যারেড স্কোয়ারে বিদেশি অতিথিরা অংশ নেবেন জানিয়ে তিনি বলেন, ‘সেখানেও আমাদের আলাদা নিরাপত্তা ব্যবস্থা থাকবে। এবারও সাধারণ দর্শকদের জন্য প্যারেড স্কোয়ারের ৩,৪,৫, ১৪, ১৫ ও ১৬ নম্বর গেট খোলা থাকবে। আমন্ত্রিত অতিথিদের প্রত্যেককে ধৈর্যসহকারে বিরক্ত না হয়ে অংশ নেওয়ার অনুরোধ, কারণ আমাদের নিরাপত্তা আপনাদের জন্যই। আর প্রত্যেককেই তল্লাশির মধ্য দিয়ে ঢুকতে হবে।

করোনার কারণে স্বাস্থ্যবিধি কঠোরভাবে পরিপালন করা হবে জানিয়ে ডিএমপি কমিশনার বলেন, আমন্ত্রিত অতিথিদের নিরাপত্তায় তল্লাশির মধ্য দিয়ে প্রবেশ করতে হবে। স্বাস্থ্যবিধি পরিপালনে স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয় থেকে যে বিধি-নিষেধ দেওয়া হয়েছে তা কঠোরভাবে পালন করা হবে।

পুলিশ কমিশনার বলেন, আগামীকাল এইচএসসি পরীক্ষার্থী যারা আছেন তারা সবাই হাতে যথেষ্ট সময় নিয়ে বাসা থেকে বের হবেন। কারণ ভারতের রাষ্ট্রপতি আমাদের দেশে আসবেন আগামীকাল। ফলে তার নিরাপত্তার স্বার্থে বেশকিছু রাস্তা বন্ধ রাখা হবে। ফলে শিক্ষার্থী ও তাদের অভিভাবকদের হাতে সময় নিয়ে বের হতে অনুরোধ করছি। আর যদি কোথাও আটকে যান তখন ৯৯৯-এ কল দিলে পুলিশ সদস্যরা হলে পৌঁছে দেওয়ার ব্যবস্থা করবে বলে জানান ডিএমপি কমিশনার।

এসময় অতিরিক্ত পুলিশ কমিশনার (অ্যাডমিন) মীর রেজাউল আলম, অতিরিক্ত পুলিশ কমিশনার (ক্রাইম অ্যান্ড অপারেশনস্) কৃষ্ণ পদ রায়, অতিরিক্ত পুলিশ কমিশনার (গোয়েন্দা) এ কে এম হাফিজ আক্তার, অতিরিক্ত পুলিশ কমিশনার (ট্রাফিক) মোঃ মুনিবুর রহমান; যুগ্ম পুলিশ কমিশনার, উপ-পুলিশ কমিশনারগণ সহঅন্যান্য ঊর্ধ্বতনরা উপস্থিত ছিলেন।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: ডিএমপি কমিশনার


আরও
আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ
গত​ ৭ দিনের সর্বাধিক পঠিত সংবাদ