Inqilab Logo

মঙ্গলবার, ২৪ মে ২০২২, ১০ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৯, ২২ শাওয়াল ১৪৪৩ হিজরী
শিরোনাম

যশোর চৌগাছায় সাইফুল মেম্বরের বিরুদ্ধে মামলা

যশোর ব্যুরো | প্রকাশের সময় : ২২ ডিসেম্বর, ২০২১, ৭:৫৬ পিএম

যশোরের চৌগাছা উপজেলার সুখপুকুরিয়া ইউনিয়নের ৮ নম্বর ওয়ার্ডের (বল্লভপুর) মেম্বর সাইফুল ইসলাম বিশ্বাস ওরফে সাইফুল বিশ্বাস ও তার দুই সহযোগীর বিরুদ্ধে এবার জমি দখলের অভিযোগ উঠেছে। অতিরিক্ত জেলা ম্যাজিস্ট্রেট আদালতে জমি দখলের অভিযোগ দাখিল করেছেন চৌগাছার বল্লভপুর গ্রামের ফকির চাঁদের ছেলে মো. আইজেল হক। একইদিনে বল্লভপুর বাওড় দখলচেষ্টা ও কয়েক লাখ টাকার মাছ লুটের অভিযোগ রয়েছে মেম্বর সাইফুলের বিরুদ্ধে। অতিরিক্ত জেলা ম্যাজিস্ট্রেট বাদীর অভিযোগ আমলে নিয়ে আগামী ২৪ মার্চের (২০২২ সাল) মধ্যে চৌগাছা থানার অফিসার ইনচার্জকে তদন্তপূর্বক প্রতিবেদন দাখিলের নির্দেশ দিয়েছেন।

অভিযুক্তরা হলেন, চৌগাছা উপজেলার বল্লভপুর গ্রামের কাউছার আলীর ছেলে ও ৮ নম্বর ওয়ার্ডের মেম্বর সাইফুল বিশ্বাস, একই গ্রামের ছলেমান বিশ্বাসের ছেলে আনছার আলী বিশ্বাস ও আব্দার আলী বিশ্বাসের ছেলে বিপুল হোসেন বিশ্বাস।

বাদীর অভিযোগ, যশোরের চৌগাছা উপজেলার ৩১ নম্বর বল্লভপুর মৌজার আরএস খতিয়ান ৫৩৪ ও আরএস ২৯৮৬ দাগের ১১ শতক জমির মালিক তিনি ও তার পরিবার। আইজেল হক, তার মা ও ভাইবোন ওই জমি শান্তিপূর্ণভাবে ভোগদখল করছিলেন। ওই জমিতে বাদী দুটি চালা ঘর নির্মাণ করে বৈঠকখানা হিসেবে দীর্ঘদিন ধরে ব্যবহার করে আসছেন। ইতোমধ্যে বিনা উস্কানিতে আসামিরা ওই জমি জোরপূর্বক জবরদখল করার ষড়যন্ত্রে লিপ্ত রয়েছে। গত ১৬ ডিসেম্বর (২০২১) বেলা ১১টার দিকে আসামিরা হাতে দা, বাঁশের লাঠি, খোটা, ইট ইত্যাদি নিয়ে ওই জমি (নালিশী জমি) দখল করার জন্য আক্রমণ করে। বাদী ও সাক্ষীগণ বাঁধা প্রদান করলে আসামিরা প্রচন্ড ক্ষিপ্ত হয়ে অকথ্য ভাষায় গালিগালাজ করতে করতে চলে যায়। এসময় তারা হুমকি দিয়ে যায় ওই জমি দখল করে বাদীকে গ্রামছাড়া করবে।

মামলার বাদী মো. আইজেল হক বলেন, ন্যায় বিচার পাওয়ার জন্য আদালতের শরণাপন্ন হয়েছি। আদালতে চৌগাছা থানার ওসিকে তদন্তপূর্বক প্রতিবেদন জমার আদেশ দিয়েছেন।

এইকদিন মঙ্গলবার বল্লভপুর বাওড়ের দখলের চেষ্টা ও মাছ লুটের অভিযোগে সাইফুল মেম্বরের বিরুদ্ধে চৌগাছা উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা বরাবর এই অভিযোগ করেছেন বল্লভপুর মৎস্যজীবী সমবায় সমিতির সদস্যরা। সমিতির অভিযোগ, বাওড়ে হামলা চালিয়ে সাইফুল মেম্বর ও তার লোকজন কয়েক লাখ টাকার মাছ লুট করে নিয়েছে।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: যশোর


আরও
আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ
গত​ ৭ দিনের সর্বাধিক পঠিত সংবাদ