Inqilab Logo

ঢাকা, শুক্রবার, ১৬ নভেম্বর ২০১৮, ০২ অগ্রহায়ণ ১৪২৫, ০৭ রবিউল আউয়াল ১৪৪০ হিজরী

কাশ্মীর সমস্যার সমাধান ভারত ও পাকিস্তানকেই করতে হবে : টেরেসা মে

প্রকাশের সময় : ২৮ অক্টোবর, ২০১৬, ১২:০০ এএম

ইনকিলাব ডেস্ক : কাশ্মীর প্রসঙ্গে ব্রিটেনের মত সবসময় একই থাকবে। এটি ভারত ও পাকিস্তানের মধ্যে একটি দ্বিপাক্ষিক সমস্যা, যা এই দুই প্রতিবেশী রাষ্ট্রকেই সমাধান করতে হবে বলে মনে করেন ব্রিটিশ প্রধানমন্ত্রী টেরেসা মে। এক আলোচনা সভায় তিনি এমনটাই জানিয়েছেন। প্রসঙ্গত কাশ্মীর প্রসঙ্গের উত্থাপন করা হয়েছিল হাউস অফ কমনস-এ প্রধানমন্ত্রীকে করা সাপ্তাহিক প্রশ্ন-উত্তর পর্বে। প্রধানমন্ত্রীকে প্রশ্ন-উত্তর পর্বে লেবার দলের প্রতিনিধি পাকিস্তানি বংশদ্ভূত সংসদ সদস্য জসমিন কুরেশি বলেন, কোনোভাবে কী তিনি পরবর্তী মাসে তাঁর ভারত সফরের সময় কাশ্মীর প্রসঙ্গের উত্থাপন করবেন মোদির সামনে। এ প্রসঙ্গে মে-র মন্তব্য এই দল যখন ক্ষমতায় এসেছিল তখন কাশ্মীর প্রসঙ্গে ব্রিটেনের যা মত ছিল আগামী দিনেও তাই থাকবে। তবে ৬ থেকে ৮ নভেম্বর টেরেসা তাঁর ভারত সফরের সময় কাশ্মীর ইস্যু নিয়ে অবশ্যই আলোচনা করবেন মোদির সঙ্গে। কুরেশির দাবি, কাশ্মীরের মানুষের গণতান্ত্রিক অধিকারে ভারত যেভাবে হস্তক্ষেপ করছে সে ব্যাপারে কী তিনি কোনও জবাবদিহি চাইবেন ভারতের থেকে। এ প্রসঙ্গে ব্রিটেনের প্রধানমন্ত্রী কোনও মন্তব্য করতে অস্বীকার করেন।
কুরেশি উত্তর-পশ্চিম ইংল্যান্ডের বোল্টন থেকে পাকিস্তানিদের হয়ে প্রতিনিধিত্ব করেন হাউস অফ কমনসে। ক্ষমতায় আসার পর এই প্রথম ইউরোপের বাইরে বিদেশ সফরে যাছেন ব্রিটেনের প্রধানমন্ত্রী টেরেসা মে। ভারক সফরে ভারত-ব্রিটেন টেক সামিটের উদ্বোধন করবেন। তারপর বেঙ্গালুরু যাবেন মে। মে-র সঙ্গে ভারতে আসছেন ব্রিটেনের শিল্পমন্ত্রী এবং বিভিন্ন ছোট ও মাঝারি শিল্পের প্রতিনিধিরা। টাইমস অব ইন্ডিয়া, দ্য হিন্দুস্তান টাইমস।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।