Inqilab Logo

বৃহস্পতিবার, ২৬ মে ২০২২, ১২ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৯, ২৪ শাওয়াল ১৪৪৩ হিজরী
শিরোনাম

ইসলামকে রাষ্ট্রীয়ভাবে প্রতিষ্ঠা করতে প্রয়োজন দক্ষ কর্মীবাহিনী : ইসলামী আন্দোলনের মহাসচিব

রামগতি (লক্ষ্মীপুর) উপজেলা সংবাদদাতা : | প্রকাশের সময় : ৬ জানুয়ারি, ২০২২, ৯:৩৬ পিএম

ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশের মহাসচিব প্রিন্সিপাল হাফেজ মাওলানা ইউনুছ আহমাদ বলেছেন, দেশের কোথাও আজ ইসলাম নেই, রাষ্ট্রের প্রত্যেক সেক্টরে ইসলাম উপেক্ষিত। ইসলামকে রাষ্ট্রীয়ভাবে প্রতিষ্ঠা করা ওলামায়ে কেরামদের অন্যতম দায়িত্ব ও কর্তব্য। একথা আলেম সমাজ আজ ভুলে গেছেন। সারাদেশের আলেম ওলামা ও ধর্মপ্রাণ মুসলমানদেরকে ঐক্যবদ্ধ করতে ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশ কাজ করে যাচ্ছে। ইসলামকে রাষ্ট্রীয়ভাবে প্রতিষ্ঠা করতে হলে দক্ষ কর্মী বাহিনী গড়ে তুলতে হবে। ইসলামী আন্দোলন আজ দেশের সর্ববৃহৎ ইসলামী দলে পরিণত হয়েছে। তাই তাদের দায়িত্ব এখন অনেক বেশী। দেশের স্বাধীনতা, মুক্তিযুদ্ধ, ইসলাম ও জনগণের স্বার্থসংশ্লিষ্ট কোনো বিষয়ে আপোষ করবেনা ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশ।

ইসলামী আন্দোলনের মহাসচিব আরো বলেন, দেশে নির্বাচনের নামে কি হচ্ছে, তা বিশ্ববাসী মিডিয়ার মাধ্যমে দেখেছেন। বর্তমান সরকারের মেরুদÐহীন কমিশন নির্বাচনের নামে তামাশা করছেন। ইসলামী আন্দোলনের হাতপাখার বিজয়কে ছিনিয়ে নিয়ে সরকার ও নির্বাচন কমিশন জঘন্য অপরাধ করে নির্বাচনকে বিতর্কিত করেছে। অবাধ সুষ্ঠু নিরপেক্ষ নির্বাচন দিলে নৌকার প্রার্থীদের জামানত বাজেয়াপ্ত হবে। সারাদেশে হাতপাখার গণজাগরণ সৃষ্টি হয়েছে। তাই সরকার এখন হাতপাখাকে ভয় পায়।
ইউনুছ আহমাদ বলেন, রাষ্ট্রের অভিভাবক হলেন রাষ্ট্রপতি। তিনি সংলাপের নামে প্রহসন করছেন। তাই ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশ এই প্রহসনের সংলাপে যাবেনা। আমরা নির্বাচনকালীন সরকার নিয়ে সংলাপ বা আলোচনার জন্য রাষ্ট্রপতির নিকট আহবান জানাই। ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশ ল²ীপুরের রামগতি উপজেলা শাখার উদ্যোগে এক কর্মী সম্মেলনে প্রধান অতিথির বক্তব্যে দলটির মহাসচিব মাওলানা ইউনুছ আহমাদ এসব কথা বলেন।
রামগতি উপজেলা সভাপতি মাওলানা ইয়াকুব শরীফের সভাপতিত্বে গতকাল বৃহস্পতিবার উপজেলার জমিদারহাট ভাই ভাই কমিউনিটি সেন্টারে অনুষ্ঠিত কর্মী সম্মেলনে বিশেষ অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন, ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশ ল²ীপুর জেলা সভাপতি অনারারী ক্যাপ্টেন (অব.) মুহাম্মাদ ইব্রাহীম, সহ-সভাপতি মাওলানা দেলাওয়ার হোসেন, জয়েন্ট সেক্রেটারি মাওলানা নোমান সিরাজীসহ প্রমুখ নেতৃবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: ইসলামী আন্দোলন


আরও
আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ