Inqilab Logo

মঙ্গলবার, ১৮ জানুয়ারী ২০২২, ০৪ মাঘ ১৪২৮, ১৪ জামাদিউস সানি ১৪৪৩ হিজরী

চীনে সংক্রমণ ঠেকাতে করোনা রোগীদের রাখা হচ্ছে ধাতব বাক্সে

ইনকিলাব ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ১৩ জানুয়ারি, ২০২২, ১০:০২ এএম

চীনে করোনা সংক্রমণ ঠেকাতে সন্দেহভাজন করোনা রোগীদের রাখা হচ্ছে ধাতব বাক্সে। দেশটির সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমের বেশ কয়েকটি ভিডিওতে এমনটি দেখা গেছে।

ভিডিওতে দেখা যাচ্ছে, কোয়ারেন্টিন সেন্টারে সারির পর সারি করে রাখা হয়েছে ধাতব বাক্স। বাসে করে সেখানে আনা হচ্ছে করোনা রোগীদের।
চীন ‘শূন্য-কোভিড’ নীতিতে দেশটিতে করোনার সংক্রমণ রোধে কঠোর বিধিনিষেধ আরোপ করা হয়েছে। আগামী মাসেই চীনে শীতকালীন অলিম্পিক শুরু হবে। এর আগে করোনার সংক্রমণ নিয়ন্ত্রণে রাখতে লাখ লাখ মানুষকে কোরায়েন্টিনে রাখা হয়েছে।

যুক্তরাজ্যভিত্তিক সংবাদমাধ্যম ডেইলি মেইলের প্রতিবেদনে বলা হয়, অন্তঃসত্ত্বা নারী, শিশু ও বৃদ্ধসহ অন্যান্য করোনা আক্রান্তদের কাঠের বিছানা এবং একটি টয়লেট দিয়ে সজ্জিত ধাতব বাক্সে দুই সপ্তাহ আবদ্ধ করে রাখা হচ্ছে। একটি এলাকার মধ্যে একজন করোনা আক্রান্ত হলেও ওই এলাকার সবাইকে এভাবে কোয়ারেন্টিনে রাখা হচ্ছে।

ডেইলি মেইল আরও জানায়, চীনের বেশ কিছু এলাকায় গভীর রাতে গিয়ে মানুষজনকে কোয়ারেন্টিন সেন্টারে যেতে নির্দেশ দেওয়া হচ্ছে। করোনার সংক্রমণ বাড়ায় চীনে প্রায় ২ কোটি মানুষ এখন ঘরবন্দী রয়েছে। এমনকি তারা বাড়ির বাইরে খাবার কেনার জন্যও যেতে পারছে না।

সম্প্রতি কঠোর লকডাউনের কারণে চিকিৎসা করাতে দেরি হওয়ায় চীনের একজন অন্তঃসত্ত্বা নারীর গর্ভপাত হয়। এসব ঘটনার পর চীনের ‘শূন্য-কোভিড’ নীতি নিয়ে প্রশ্ন উঠেছে। চীনে ২০১৯ সালের প্রথম করোনা রোগী শনাক্ত হয়। এরপর থেকেই দেশটিতে কঠোর বিধিনিষেধ আরোপ করা হয়। সূত্র : ডেইলি মেইল



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: চীন

১৬ জানুয়ারি, ২০২২
১৫ জানুয়ারি, ২০২২

আরও
আরও পড়ুন
গত​ ৭ দিনের সর্বাধিক পঠিত সংবাদ