Inqilab Logo

ঢাকা, বৃহস্পতিবার , ২১ নভেম্বর ২০১৯, ০৬ অগ্রহায়ণ ১৪২৬, ২৩ রবিউল আউয়াল ১৪৪১ হিজরী

সনদ বাতিলের সিদ্ধান্তের বিষয়টি সঠিক নয় -টিপু মুন্সী

প্রকাশের সময় : ৩০ অক্টোবর, ২০১৬, ১২:০০ এএম

বিশেষ সংবাদদাতা : ভুয়া আবেদন দিয়ে একটি মহল উদ্দেশ্যপ্রণোদিতভাবে গণপূর্তের প্রধান প্রকৌশলী হাফিজুর রহমান ওরফে টিপু মুন্সীকে হয়রানি করছে। এই মহলটি তাকে ভুয়া মুক্তিযোদ্ধা বানাতে এবং তার সনদ যাতে বাতিল করা হয় এ জন্যও নানা ধরনের অপচেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছে বলে টিপু মুন্সী দাবি করেন।
অভিযোগ রয়েছে, গণপূর্ত অধিদপ্তরের অভ্যন্তরেই ঘাপটি মেরে থাকা একটি চক্র এ ধরনের কর্মকাÐের সাথে জড়িত রয়েছে। তার মুক্তিযুদ্ধের সনদ বাতিলের সিদ্ধান্তের বিষয়টি সঠিক নয় বলে জানিয়েছেন গণপূর্তের প্রধান প্রকৌশলী হাফিজুর রহমান ওরফে টিপু মুন্সী। তিনি বলেন, আমি রণাঙ্গনে যুদ্ধ করেছি। ভুয়া মুক্তিযোদ্ধা নই।
জানা যায়, টিপু মুন্সীর বিরুদ্ধে যে ভুয়া আবেদন মুক্তিযুদ্ধবিষয়ক মন্ত্রণালয় সম্পর্কিত সংসদীয় কমিটির কাছে দেয়া হয়েছে; এ আবেদনটিকে খোদ জাতীয় মুক্তিযোদ্ধা কাউন্সিলের (জামুকা) সদস্যরাই ভিত্তিহীন বলে উল্লেখ করেছেন। নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক জামুকার এক সদস্য বলেন, টিপু মুন্সীর মুক্তিযোদ্ধা সনদ বাতিলের সুযোগ নেই। কারণ তার সনদটি যে জাল এমন কোনো প্রমাণ পাওয়া যায়নি।
এ ব্যাপারে জানতে চাইলে টিপু মুন্সী বলেন, তিনি একজন মুক্তিযোদ্ধা এবং একাত্তরে রণাঙ্গনে পাক বাহিনীর বিরুদ্ধে যুদ্ধ করেছেন। তিনি আরো জানান, স্বাধীনতার পর বুয়েটে ভর্তি হওয়ার সময়ও মুক্তিযোদ্ধা হিসেবে তার ডিক্লারেশন দেয়া ছিল। তিনি বলেন, বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান মুক্তিযোদ্ধাদের যখন ১৩ টাকা ৬৭ পয়সা ভাতা দিয়েছেন তখন এই ভাতা আমিও গ্রহণ করেছি। আমার স্কুল রেজিস্টারে তা লিপিবদ্ধ আছে।
এ ব্যাপারে থানা কমান্ডার বীর মুক্তিযোদ্ধ মো: নুরুল ইসলাম ইনকিলাবকে বলেন, টিপু মুন্সী একজন মুক্তিযোদ্ধা। আমরা একসাথেই মুক্তিযুদ্ধে অংশগ্রহণ করেছি। উল্লেখ্য, টিপু মুন্সী ‘দেশ রক্ষা বিভাগ স্বাধীনতা সংগ্রামের সনদ’ এবং ১১ নম্বর সেক্টরে কাদেরিয়া বাহিনীর ১ নম্বর হাতেম আলী কোম্পানি কমান্ডার লোকমান হোসেনের নামে ২০০৭ সালের ২৫ মে স্বাক্ষরিত ‘১১ নং সেক্টর, কাদেরিয়া বাহিনী, ১ নং হাতেম কোম্পানি, রণাঙ্গন ৭১’ নামে সনদ জমা দিয়েছেন।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ
গত​ ৭ দিনের সর্বাধিক পঠিত সংবাদ