Inqilab Logo

মঙ্গলবার, ২৪ মে ২০২২, ১০ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৯, ২২ শাওয়াল ১৪৪৩ হিজরী
শিরোনাম

পাপ যখন বাপেরেও ছাড়ে না

ইনকিলাব ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ১৭ জানুয়ারি, ২০২২, ১২:০২ এএম

ধর্ষণের সাজা থেকে বাঁচতে নিজের মৃত্যুর নাটক সাজিয়েছিলেন এক যুবক। এরপর পালিয়ে বেড়াচ্ছিলেন নানা জায়গায়। কিন্তু গোল বাঁধল করোনার কারণে। করোনা আক্রান্ত হয়ে হাসপাতালে ভর্তির পর বেরিয়ে এলো তার আসল পরিচয়। ধরা পড়লেন পুলিশের জালে। বার্তা সংস্থা এপি শনিবার এক প্রতিবেদনে এ তথ্য জানিয়েছে। ওই প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, যুক্তরাষ্ট্রের রোড আইল্যান্ডের বাসিন্দা নিকোলাস আলভার্ডিয়ান ধর্ষণের সাজা থেকে বাঁচতে নিজের মৃত্যুর খবর রটিয়ে স্কটল্যান্ডে পালিয়ে যায়। কিন্তু করোনা আক্রান্ত হয়ে মারাত্মক অসুস্থ হয়ে গেলে গ্লাসকোর একটি হাসপাতালে ভেন্টিলেশনে নেওয়া হয় তাকে। রোড আইল্যান্ড স্টেট পুলিশ মেজর রবার্ট ক্রিমার স্থানীয় গণমাধ্যমকে জানান, যুক্তরাষ্ট্রের উটাহ প্রদেশে ২০০৮ সালের একটি ধর্ষণের অভিযোগ প্রমাণিত হয়েছিল তার বিরুদ্ধে। ২০০৮ সালে ওই ধর্ষণের ঘটনা ঘটলেও কারিগরি ত্রুটির কারণে সে সময় ঘটনাস্থল থেকে সংগৃহীত নমুনা পরীক্ষা করা সম্ভব হয়নি। ২০১৭ সালে ওই নমুনা পরীক্ষার পর বিচারকার্য শুরু হয়। নিকোলাসের বিরুদ্ধে অভিযোগ প্রমাণিতও হয়। কিন্তু সাজা ঘোষণার আগেই ২০২০ সালের শুরুর দিকে নিকোলাস স্থানীয় গণমাধ্যমগুলোকে জানিয়েছিল তার মরণব্যাধি ক্যান্সার হয়েছে। তার আয়ু আর মাত্র কয়েকসপ্তাহ। এর পর ২০২০ সালের ২৯ ফেব্রুয়ারি সংবাদপত্রে তার মৃত্যুর সংবাদ ছাপা হয়। তবে বিষয়টি নিয়ে খটকা লাগায় পুলিশ গত বছরই নিকোলাসের সাবেক আইনজীবী আর তার পালক বাবা-মাকে এ নিয়ে প্রকাশ্যে প্রশ্ন করেন। এখন সেই অপরাধে বিচারের মুখোমুখি হতে হবে তাকে। এপি।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: যুক্তরাষ্ট্র


আরও
আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ
গত​ ৭ দিনের সর্বাধিক পঠিত সংবাদ