Inqilab Logo

মঙ্গলবার, ১৭ মে ২০২২, ০৩ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৯, ১৫ শাওয়াল ১৪৪৩ হিজরী
শিরোনাম

মার্কিন নিষেধাজ্ঞা সত্ত্বেও ফের ব্যালিস্টিক ক্ষেপণাস্ত্র ছুড়লো উত্তর কোরিয়া

ইনকিলাব ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ১৭ জানুয়ারি, ২০২২, ১০:৩০ এএম

মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের নতুন করে নিষেধাজ্ঞার হুঁশিয়ারি সত্ত্বেও ফের দুটি স্বল্প-পাল্লার ব্যালিস্টিক ক্ষেপণাস্ত্র ছুড়েছে উত্তর কোরিয়া। দক্ষিণ কোরিয়ার সামরিক বাহিনী জানিয়েছে, জাতিসংঘ নিন্দা জানানোর পরও মিসাইল পরীক্ষা অব্যাহত রেখেছে পিয়ংইয়ং।

স্থানীয় সময় সোমবার (১৭ জানুয়ারি) দক্ষিণ কোরিয়ার জয়েন্ট চিফ অব স্টাফ জানান, রাজধানী পিয়ংইয়ংয়ের সুনান বিমানবন্দর থেকে দুটি ব্যালিস্টিক ক্ষেপণাস্ত্র ছুড়েছে উত্তর কোরিয়া। তবে সেগুলোর লক্ষ্যবস্তু কতদূর ছিল তা তাৎক্ষণিকভাবে জানা যায়নি।
জাপান সরকারও উত্তর কোরিয়ার ক্ষেপণাস্ত্র ছোড়ার বিষয়টি নিশ্চিত করেছে। তারা বলছে, এই অঞ্চলের শান্তি ও নিরাপত্তার জন্য এটি হুমকি স্বরুপ।
দেশটির প্রধানমন্ত্রী ফুমিও কিশিদা সংশ্লিষ্টদের এ ব্যাপারে বিস্তারিত তথ্য সংগ্রহের নির্দেশনা দিয়েছেন এবং জাহাজ ও বিমানের নিরাপত্তা নিশ্চিত করার আহ্বান জানিয়েছেন।
জাপানের কোস্ট গার্ড তাদের জলসীমার মধ্যে থাকা জাহাজগুলোকে সতর্ক করে দিয়েছে। তবে এখনো কোনো ক্ষয়ক্ষতির খবর পাওয়া যায়নি।
উত্তর কোরিয়া চলতি বছরের শুরুতেই ক্ষেপণাস্ত্র উৎক্ষেপণ শুরু করে। গত সপ্তাহেও হাইপারসনিক ক্ষেপণাস্ত্রের সফল পরীক্ষা চালায় দেশটি। সেটি পর্যবেক্ষণ করেন দেশটির নেতা কিম জন উন। শুক্রবারও (১৪ জানুয়ারি) ট্রেন থেকে দুটি মিসাইল ছুড়ে দেশটি।
গত বছর বেশ কয়েকবার ক্ষেপণাস্ত্র পরীক্ষা চালায় উত্তর কোরিয়া। অক্টোবরের শুরুতে বিমানবিধ্বংসী ক্ষেপণাস্ত্র পরীক্ষা চালায় দেশটি। এর আগে হাইপারসনিক ক্ষেপণাস্ত্রের পরীক্ষা চালানোর অভিযোগ ওঠে তাদের বিরুদ্ধে। গত বছরের সেপ্টেম্বরেও পিয়ংইয়ং ব্যালিস্টিক ও ক্রুজ উভয় ধরনের ক্ষেপণাস্ত্রের পরীক্ষা চালায়।
পরমাণু ও ব্যালিস্টিক ক্ষেপণাস্ত্র কর্মসূচির কারণে ২০০৬ সাল থেকে যুক্তরাষ্ট্রের নিষেধাজ্ঞায় রয়েছে উত্তর কোরিয়া। এসব কর্মসূচিতে অর্থায়ন বন্ধ করতে জাতিসংঘের নিরাপত্তা পরিষদও ধারাবাহিকভাবে বিধিনিষেধ বাড়িয়েছে। কিন্তু সব নিষেধাজ্ঞাকে বুড়ো আঙুল দেখিয়ে একের পর এক ক্ষেপণাস্ত্র পরীক্ষা চালিয়ে যাচ্ছে উত্তর কোরিয়া। সূত্র: আল-জাজিরা



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: উত্তর কোরিয়া


আরও
আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ
গত​ ৭ দিনের সর্বাধিক পঠিত সংবাদ