Inqilab Logo

শুক্রবার, ২০ মে ২০২২, ০৬ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৯, ১৮ শাওয়াল ১৪৪৩ হিজরী
শিরোনাম

ভিয়েনায় টেকসই ও নির্ভরযোগ্য চুক্তি ছাড়া অন্য কিছু ভাবছে না ইরান

অনলাইন ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ২৩ জানুয়ারি, ২০২২, ৯:৪৬ এএম

ইরান ভিয়েনা সংলাপে সময়ক্ষেপণ করছে বলে পশ্চিমা গণমাধ্যমগুলো যে অপপ্রচার চালাচ্ছে তা নাকচ করে দিয়েছে তেহরান। ইরান বলেছে, দেশটি ভিয়েনা সংলাপ থেকে একটি টেকসই ও নির্ভরযোগ্য চুক্তি বের করে আনার চেষ্টা করছে।

অস্ট্রিয়ার রাজধানী ভিয়েনায় চলমান পরমাণু সমঝোতা পুনরুজ্জীবনের সংলাপে অংশগ্রহণকারী ইরানের একটি সূত্র কাতার-ভিত্তিক আলজাযিরা নিউজ চ্যানেলকে বলেছে, আমরা একটি স্থায়ী পরমাণু চুক্তির কথাই শুধু ভাবছি যা কোনো অবস্থাতেই সাময়িক বা অস্থায়ী হবে না। সূত্রটি আরো বলেছে, সাময়িক যেকোনো চুক্তির প্রস্তাব ইরান কোনো অবস্থাতে মেনে নেবে না।

নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক ইরানি সূত্রটি আরো জানিয়েছে, তেহরান শক্ত ভিত্তির ওপর প্রতিষ্ঠিত একটি টেকসই ও স্থায়ী চুক্তির কথা ভাবছে এবং এর বাইরে কোনো কিছু মেনে নেয়া তেহরানের পক্ষে সম্ভব নয়।

২০১৫ সালে ছয় জাতিগোষ্ঠীর সঙ্গে স্বাক্ষরিত পরমাণু সমঝোতাটি ছিল অনেকটা অস্থায়ী চুক্তি। ওই সমঝোতা অনুযায়ী, মার্কিন সরকার প্রতি চার মাস অন্তর ইরানের ওপর আরোপিত নিষেধাজ্ঞা অকার্যকর রাখার বিষয়টি নবায়ন করত। ২০১৭ সালের জানুয়ারি মাসে ক্ষমতায় এসে তৎকালীন মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প কয়েকবার সমঝোতার ওই ধারাটি নবায়ন করেন। কিন্তু ২০১৮ সালের মে মাসে তিনি হঠকারী সিদ্ধান্ত নিয়ে এটি নবায়ন করতে অস্বীকৃতি জানান। ফলে ইরানের ওপর আরোপিত সব মার্কিন নিষেধাজ্ঞা পুনর্বহাল হয়ে যায়।

কিন্তু ইরানের এবারের মূল দাবি হচ্ছে, এমন চুক্তি স্বাক্ষরিত হতে হবে যাতে আমেরিকায় সরকার পরিবর্তন হলেও নতুন সরকারের পক্ষে চুক্তিটি বাতিল করে দেয়া সম্ভব না হয়। কিন্তু পশ্চিমা গণমাধ্যম এ বিষয়টি চেপে গিয়ে দাবি করছে, ইরান আসলে ভিয়েনা সংলাপ থেকে কোনো ফল বেরিয়ে আসুক তা চায় না বরং দেশটি আলোচনার নামে সময়ক্ষেপণ করছে মাত্র।

সূত্র: পার্সটুডে



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ
গত​ ৭ দিনের সর্বাধিক পঠিত সংবাদ