Inqilab Logo

রোববার, ২৯ মে ২০২২, ১৫ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৯, ২৭ শাওয়াল ১৪৪৩ হিজরী
শিরোনাম

অস্বাস্থ্যকর বাতাসের তালিকায় শীর্ষে ঢাকা: নেটিজেনদের উদ্বেগ

সোশাল মিডিয়া ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ২৬ জানুয়ারি, ২০২২, ৭:৫৯ এএম

রাজধানী ঢাকা বিশ্বের সবচেয়ে অস্বাস্থ্যকর বাতাসের তালিকায় আবারও শীর্ষে রয়েছে। আজ মঙ্গলবার সকাল ১১ টা ১০ মিনিটে ঢাকার এয়ার কোয়ালিটি ইনডেক্স (একিউআই) রেকর্ড করা হয়েছে ২৬৯, যা ‘অত্যন্ত অস্বাস্থ্যকর’ বলে বিবেচনা করা হয়। একিউআই স্কোর ২০১ থেকে ৩০০ হলে স্বাস্থ্য সতর্কতাসহ তা জরুরি অবস্থা হিসেবে বিবেচিত হয়। এ অবস্থায় শিশু, প্রবীণ এবং অসুস্থ রোগীদের বাড়ির ভেতরে এবং অন্যদের বাড়ির বাইরের কার্যক্রম সীমাবদ্ধ রাখার পরামর্শ দেওয়া হয়ে থাকে।

বিশেষজ্ঞরা বলছেন, বায়ুদূষণ আমাদের স্বাস্থ্যের ওপর নানাভাবে মারাত্মক প্রভাব ফেলছে। ফুসফুসের নানা রোগ, নিউমোনিয়া, অ্যাজমা, শ্বাসকষ্ট, ক্যানসার, লিউকেমিয়া, অটিজম, স্নায়ুজনিত সমস্যা বেড়ে যাওয়া, বুদ্ধিমত্তা কমে যাওয়াসহ অনেক শিশু দূষণের ফলে নানা স্বাস্থ্য সমস্যা নিয়ে জন্ম নিচ্ছে। এদিকে বিশ্বব্যাপী চলমান মহামারী করোনাতে বায়ুদূষণের মাত্রা রাড়ার কারণে মৃত্যুহার বাড়ার আশংকাও রয়েছে বলে সতর্ক করছেন তারা।

বিষয়টি নিয়ে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে উদ্বেগ প্রকাশ করেছে নেটিজেনরা। অনতিবিলম্বে বায়ুদূষণ রোধে প্রয়োজনীয় পদক্ষেপ নিতে সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষের কাছে জোর দাবি জানিয়েছেন তারা।

এ প্রসঙ্গে নীরা হক ফেইসবুকে লিখেছেন, ‘ঢাকার পরিবেশ বসবাসের উপযোগিতা অনেক আগেই হারিয়েছে। শহরটি বিশ্বের সবচেয়ে দূষিত পরিবেশের শীর্ষে রয়েছে। এটা আমাদের জন্য খুবই উদ্বেগের। বায়ুদূষণ রোধে প্রয়োজনীয় পদক্ষেপ নিতে সংশ্লিষ্ট সকলের কাছে আকুল আবেদন জানাচ্ছি।’

ক্ষোভ প্রকাশ করে সবুজ হোসেন লিখেছেন, ‘পৃথিবীর জঘন্যতম এবং বাজে শহর হলো ঢাকা। যেখানে মানুষের বাস করার মত কোনো অবস্থায় নেই। শুধুই চলিতেছে উন্নয়নের ফাকা বুলি!’

কাওসার আহমেদের প্রশ্ন, ‘বসবাসের অনুপযোগী, দূষিত নগরীর খেতাব নিয়ে উন্নতির দাবী করা কি উন্নয়নের সঙ্গে মানানসই?’

জাহিদুর রহমান ইমরান লিখেছেন, ‘জীবনই যদি না থাকে তাহলে উন্নয়ন দিয়ে কি হবে? বায়ুদূষণ কমান, রোগমুক্ত থাকুন এবং জীবন বাঁচান।’

মুহিব বিল্লার পরামর্শ, ‘ঢাকার রাস্তা খোড়াখুড়ির কাজ সমন্বিতভাবে দ্রুততম সময়ে করতে হবে। কাজের সময় ধুলো ও দুষণ প্রতিরোধ ব্যবস্থাপনা নিশ্চিত করতে হবে। নিয়মিত রাস্তায় পানি ছিটানোর ব্যবস্থা করতে হবে। ঢাকার রাস্তাগুলো প্রতিদিন পরিস্কার করতে ঝাড়ু ব্যবহারের বিকল্প প্রযুক্তি ব্যবহার নিশ্চিত করতে হবে। যেকোন মূল্যে ইটের ভাটা ঢাকার চারপাশ থেকে সরিয়ে দিতে হবে। শিল্পকারখানায় পরিবেশবান্ধব ব্যবস্থাপনা নিশ্চিত করতে হবে।’

রেজাউল করিম লিখেছেন, ‘ঢাকার রাস্তার পাশে প্রচুর ময়লা আবর্জনা পরে থাকে। তা অপসারনে সিটি কর্পোরেশনকে দ্রুত ব্যবস্থা নিতে হবে। পাশাপাশি শহরকে পরিস্কার রাখতে নাগরিক সচেতনতা বৃদ্ধি করতে হবে।’

বায়ু দূষণ রোধ কমিশন গঠন করে প্রয়োজনীয় পদক্ষেপ গ্রহণের দাবি জানাচ্ছেন অনেকেই।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: পরিবেশ দূষণ

১০ এপ্রিল, ২০২১

আরও
আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ