Inqilab Logo

বুধবার, ২৫ মে ২০২২, ১১ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৯, ২৩ শাওয়াল ১৪৪৩ হিজরী

‘সাবাশ মিঠু’র ডাবিং ঘিরে সৃজিত-তাপসীর খুনসুটি

বিনোদন ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ২৭ জানুয়ারি, ২০২২, ১২:০৪ পিএম

ঢাকার জামাই সৃজিত মুখার্জির ‘শাবাশ মিঠু’ সিনেমাতে দেখা যাবে বলিউডের হার্টথ্রব নায়িকা তাপসী পান্নুকে। এটা বেশ পুরনো খবর। নতুন খবর হলো, এরইমধ্যে সিনেমাটির শুটিং শেষ হয়েছে। চলছে দ্রুততার সাথে ডাবিংয়ের কাজ। আর সেই ডাবিংয়ের খবর জানিয়ে সৃজিত নিজের এবং তাপসীর ছবি ইনস্টাগ্রামে পোস্ট করেছেন।

ইনস্টাগ্রামে পোস্টে নিজেদের ভেতরের খুনসুটির বহিঃপ্রকাশ ঘটিয়ে তিনি ক্যাপশনে মজা করে লিখেছেন, ‘ডাব নে বানা দি জোড়ি’। সৃজিতের এই ক্যাপশন আর ছবিতেই বাজিমাত। মুহূর্তেই অন্তর্জালে ভাইরাল হয়ে যায় তার এই পোস্ট।

শাহরুখ খান ও অনুশকা শর্মার ‘রাব নে বানা দে জোড়ি’র রেশ ধরেই সৃজিত এই ক্যাপশনটি দিয়েছেন। কম যাননা তাপসীও। তিনি ইনস্টাগ্রামে সৃজিতের মন্তব্যের ঘরে এসে লেখেন, ‘দরদি ডাব ডাব করদি’! এটি তিনি নিয়েছেন বিখ্যাত পঞ্জাবি একটি গান থেকে।

এখানেই শেষ নয়, সৃজিতের পোস্ট করা ছবি ইনস্টাগ্রাম স্টোরিতে শেয়ার করে তাপসী লেখেন, ‘মাঠের বাইরে বাজিমাত করতে আসছি শিগগিরই।’

ঢাকার জামাই সৃজিত টালিউড জয় করে বলিউডের বাউন্ডারি হাঁকানোর ভালোই প্রস্তুতি নিয়েছেন এরমধ্যে। প্রশংসিত হয়েছেন ‘বেগম জান’ সিনেমা ও ‘রে’ অ্যান্থলজি সিরিজ পরিচালনা করে। এবার বলিউডে আসছেন তাপসী পান্নুকে নিয়ে।

ভারতীয় নারী ক্রিকেটের আইকন মিতালি রাজের বায়োপিক ‘শাবাশ মিঠু’। ২০১৯ সালের ডিসেম্বরে মিতালি রাজের জন্মদিনে এই সিনেমার ঘোষণা দিয়েছিলেন প্রযোজনা সংস্থা ভায়াকম এইট্টিন। তখন এটি পরিচালনার দায়িত্বে ছিলেন শাহরুখ খানের ‘রইস’-খ্যাত নির্মাতা রাহুল ঢোলাকিয়া। অবশ্য শুটিং শুরুর আগেই সেটি চলে আসে সৃজিতের হাতে। এই সিনেমাতে নাম ভূমিকায় অভিনয় করছেন তাপসী পান্নু।

উল্লেখ্য, ভারতের প্রাক্তন অধিনায়ক মিতালি আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে নারীদের মধ্যে সবচেয়ে বেশি রানের মালিক। একমাত্র নারী হিসেবে ওডিআইতে ৬০০০ রান পেরিয়েছেন মিতালি। সাধারণত মিতালি রাজের জীবনের নানা জানা-অজানা ঘটনা তুলে ধরা হবে এই সিনেমাতে।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

আরও পড়ুন