Inqilab Logo

মঙ্গলবার, ১৭ মে ২০২২, ০৩ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৯, ১৫ শাওয়াল ১৪৪৩ হিজরী
শিরোনাম

মেয়র আতিকের ড্রেনে নামা নিয়ে ট্রল

সোশ্যাল মিডিয়া ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ২৮ জানুয়ারি, ২০২২, ৫:৩৩ পিএম

রাজধানীর একটি ড্রেনে নেমে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ভাইরাল হয়েছেন ঢাকা উত্তর সিটি করপোরেশনের মেয়র আতিকুল ইসলাম। মেয়রের নালায় নামার বেশ কিছু স্থিরচিত্র অনেকে ফেসবুকে শেয়ার করেছেন। বিষয়টি নিয়ে অনেকেই ট্রল করছেন। কেউ কেউ আবার কাজটি ইতিবাচকভাবে দেখছেন।

গতকাল মঙ্গলবার রাজধানীর মোহাম্মদপুরের বছিলা এলাকার স্বপ্নধারা হাউজিং মূল সড়ক (বছিলা ৪০ ফুট সড়ক) এলাকায় এভাবেই নালায় নেমেছিলেন ঢাকা উত্তর সিটি করপোরেশনের (ডিএনসিসি) মেয়র মো. আতিকুল ইসলাম। লাউতলা খালের উচ্ছেদ অভিযান পরিদর্শনের জন্য মেয়র সেখানে গিয়েছিলেন।

মঙ্গলবার (২৫ জানুয়ারি) রাতে উত্তর সিটি করপোরেশনের ফেসবুক পেজে এ সংক্রান্ত একটি পোস্ট হয়। সেখানে মেয়রের ড্রেনে নামার বেশ কয়েকটি ছবি দেখা যায়।

ভাইরাল ছবিতে দেখা যাচ্ছে, একটি খোলা স্ল্যাবের জায়গা দিয়ে নালায় নামলেন মেয়র। মাথা নিচু করে নালার ভেতরটা দেখছেন। সড়কটির বিপরীত পাশেও নির্মাণাধীন নালায় ঠিক একইভাবে নামেন তিনি।

মেয়র আতিকের ড্রেনে নামার স্থিরচিত্র ফেসবুকে দিয়ে একজন লিখেছেন, ‘‘ইতিহাস বলছে, হজরত ওমর রাতের বেলা ঘর থেকে বের হয়ে হেঁটে হেঁটে শহর ঘুরতেন। কোথায় কী সমস্যা চলছে সেটা ঘুরে ঘুরে দেখতেন। এই ইতিহাস হুজুররা ওয়াজে বলে বলে সাধারণ মানুষকে আদর্শ শিক্ষা দেন। এবার আসি মূল আলোচনায়। ঢাকা উত্তরের সিটি মেয়র ড্রেনে নেমে কাজ পরিদর্শন করেছেন। লোকজন সেটা নিয়েও অভিনয়, ভাউতাবাজি এসব বলে ট্রল করছে। মজা নিচ্ছে। আবার তিনি যদি ঘরে বসে থাকতেন, তবুও পাবলিক বলতো 'ঘরে বসে থাকলে কি নগর পিতা হওয়া যায়, মানুষের কাছে যেতে হবে'। এই হলো এক যন্ত্রণা। ঘরে বসে থাকলেও যন্ত্রণা, বাইরে বের হলেও যন্ত্রণা।’’

সমির মোহাম্মাদ রেনাত লিখেছেন, ‘‘মিরপুর ১২ থেকে মতিঝিল পর্যন্ত ছদ্মবেশে বাসে চড়ে দেখান একবার। সাধারণ যাত্রী বেশি। এরপরে যদি কিছু করতে ইচ্ছা হয় কইরেন। মেট্রোরেলের নাম করে প্রতিদিন কতখানি অব্যবস্থাপনা মানুষ সহ্য করছে এটা স্বচক্ষে দেখেন তারপর যদি আন্তরিক হয়ে কিছু করেন তাহলেই আপনার প্রতি কিছুটা হলেও...।’’

সমালোচনা করে মোঃ আবরারুল হক লিখেছেন, ‘‘নালা ঠিকমতো হইছে কিনা? সেটা কী নালা নির্মাণের পরে দেখবে? নাকি নালা নির্মাণের সময় কাজের মান তদারকি করবে?’’

শরিফুল ইসলাম লিখেছেন, ‘‘ট্রাকে করে রাস্তায় ময়লা ফেলে আবার সেই ময়লা পরিষ্কার করতে দেখেছে জনগণ।এখন বিষটা হইলো ড্রেনের ভিতরে আবার কি ফালাইছে?’’

এদিকে, ড্রেনের কাজের মান পরীক্ষার জন্য তার এমন ভূমিকার প্রশংসাও করছেন অনেকে। মোহাম্মাদ রহমান লিখেছেন, ‘‘উনি অনেক চেষ্টা করে ভালো কাজ করার জন্য কিন্তু ডানে-বাঁয়ে সামনে-পেছনে দুর্নীতিবাজ ভর্তি। তাদেরকে সরাতে হবে। অপরদিকে অন্য মেয়ররা তো ঘর থেকে বের হয় না।’’

আব্দুর রাজ্জাক লিখেছেন, ‘‘যে যাই মনে করুক একটি ভাল দৃষ্টান্ত হয়ে থাকবে।। প্রকৌশলীসহ কনন্ট্রাকটর যদি খারাপ কাজ করে থাকে তাহলে ভয়ে থাকবে।’’

এরআগে পরিষ্কার রাস্তায় ময়লা ছড়িয়ে ছিটিয়ে সেই ময়লা অপসারণ করে পরিচ্ছন্নতা অভিযান উদ্বোধন করে সামাজিক মাধ্যমে হাসির রোল ফেলেন মেয়র আতিক।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: সোশ্যাল মিডিয়া


আরও
আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ
গত​ ৭ দিনের সর্বাধিক পঠিত সংবাদ