Inqilab Logo

বৃহস্পতিবার, ০৭ জুলাই ২০২২, ২৩ আষাঢ় ১৪২৯, ০৭ যিলহজ ১৪৪৩ হিজরী

সার্চ কমিটির কাছে ৩২৯ জনের নামের প্রস্তাব

প্রস্তাবনা নিয়ে আজ আলোচনায় সাংবাদিকদের মন্ত্রিপরিষদ সচিব

স্টাফ রিপোর্টার | প্রকাশের সময় : ১৩ ফেব্রুয়ারি, ২০২২, ১২:০০ এএম

প্রধান নির্বাচন কমিশনার ও অন্যান্য নির্বাচন কমিশনার নিয়োগের জন্য এখন পর্যন্ত ৩২৯ জনের নাম প্রস্তাব এসেছে বলে জানিয়েছেন সার্চ কমিটির সাচিবিক দায়িত্ব পালনকারী মন্ত্রিপরিষদ সচিব খন্দকার আনোয়ারুল ইসলাম।

গতকাল শনিবার বাংলাদেশ সুপ্রিম কোর্ট ভবনের জাজেস লাউঞ্জে দেশের বিশিষ্টজনদের সঙ্গে বৈঠক শেষে তিনি এ সাংবাদিকদের তথ্য জানান। মন্ত্রিপরিষদ সচিব বলেন, বিশিষ্টজনরা যেসব সুপারিশ করেছেন। সেগুলোর বিষয়ে আজ রোববারের বৈঠক শেষে সিদ্ধান্ত নেওয়া হবে।

তিনি বলেন, এরই মধ্যে বিভিন্ন রাজনৈতিক দলের কাছ থেকে ১৩৬ জনের, পেশাজীবীদের মাধ্যমে ৪০ জনের, ব্যক্তিগতভাবে ৩৪ জনের এবং ই-মেইলের মাধ্যমে ৯৯ জনের নাম পাওয়া গেছে। মোট ৩২৯ জনের নাম প্রস্তাব আমরা পেয়েছি। এটা আমাদের কমিটি বসবে, বসে কীভাবে সিলেকশন করা যায় সেটা নির্ধারণ করবেন। তবে এটি চূড়ান্ত সংখ্যা নয় উল্লেখ করে তিনি বলেন, এমনও হতে পারে, একজনের নাম হয়তো চার-পাঁচবারও এসেছে। সেগুলো সর্টআউট করলে প্রকৃত সংখ্যাটা পাওয়া যাবে।

বৈঠকে সার্চ কমিটির নামের তালিকা আগেই প্রকাশ করার প্রস্তাব দিয়েছেন বিশিষ্টজনরা। এ বিষয়ে এক প্রশ্নের জবাবে মন্ত্রিপরিষদ সচিব বলেন, এটা একটা সাজেশন, কমিটি যখন বসবে তখন ওনারা কার্যপদ্ধতি ঠিক করবেন।

প্রধান নির্বাচন কমিশনার ও অন্যান্য নির্বাচন কমিশনার নিয়োগ আইন, ২০২২’ এর বিধান মতে ৫ ফেব্রুয়ারি নির্বাচন কমিশন গঠনে সুপ্রিম কোর্টের আপিল বিভাগের বিচারপতি ওবায়দুল হাসানকে প্রধান করে অনুসন্ধান বা সার্চ কমিটি গঠন করেন প্রেসিডেন্ট মো. আবদুল হামিদ। সার্চ কমিটি বাছাই করে ১০ জনের নাম পাঠাবেন এবং সেখান থেকেই পাঁচজনকে নিয়ে নির্বাচন কমিশন গঠন করে দেবেন প্রেসিডেন্ট।

সার্চ কমিটির অন্য সদস্যরা হলেন হাইকোর্ট বিভাগের বিচারপতি এস এম কুদ্দুস জামান, মহাহিসাব নিরীক্ষক মোহাম্মদ মুসলিম চৌধুরী, সরকারি কর্ম কমিশনের (পিএসসি) চেয়ারম্যান মো. সোহরাব হোসাইন, সাবেক নির্বাচন কমিশনার ছহুল হোসাইন ও কথাসাহিত্যিক আনোয়ারা সৈয়দ হক।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: নির্বাচন কমিশনার

২১ ফেব্রুয়ারি, ২০২২
২১ ফেব্রুয়ারি, ২০২২

আরও
আরও পড়ুন