Inqilab Logo

ঢাকা, শুক্রবার, ২০ সেপ্টেম্বর ২০১৯, ৫ আশ্বিন ১৪২৬, ২০ মুহাররম ১৪৪১ হিজরী

নওগাঁয় স্ত্রীকে পিটিয়ে হত্যা : স্বামীসহ পরিবারের সবাই পলাতক

প্রকাশের সময় : ৭ নভেম্বর, ২০১৬, ১২:০০ এএম

নওগাঁ জেলা সংবাদদাতা : নওগাঁ সদর উপজেলার হাঁসাইগাড়ী গ্রামে গত মধ্যরাতে পরকীয়ায় বাধা দেয়ায় পারিবারিক কলহের জের ধরে ইসরাফিল নামের এক ব্যক্তি স্ত্রী পারভীন আকতারকে পিটিয়ে হত্যা করেছে বলে স্ত্রীর স্বজনরা জানিয়েছে। ঘটনার পর থেকে স্বামী ইসরাফিলসহ পরিবারের লোকজন সবাই পলাতক রয়েছে। গতকাল রোববার সকালে পুলিশকে খবর দিলে পুলিশ লাশ উদ্ধার করে সদর হাসপাতাল মর্গে ময়না তদন্তের জন্য প্রেরণ করেছে।
গৃহবধূর স্বজনরা জানায়, প্রায় ১০ বছর পূর্বে নওগাঁ সদর উপজেলার হাসাইগাড়ী গ্রামের রমজান আলীর পুত্র ইসরাফিলের সাথে একই ইউনিয়নের কাঠখৈর (হ্যামরাপাড়া) গ্রামের পারভিন আকতার (২৮) এর সাথে আনুষ্ঠানিকভাবে বিয়ে হয়। বিয়ের পর একটি সন্তানের জন্ম দেয়। এরপর স্বামী ইসরাফিল আরেকটি বিয়ে করে। বিয়ের পর থেকে নানা রকমের নির্যাতন চালায় পারভিনের উপর। তবুও সন্তানের দিকে চেয়ে স্বামীর সংসার করে। দুই স্ত্রী থাকার পরও পরকিয়ায় জড়িয়ে পড়ে স্বামী ইসরাফিল। এরই জের ধরে স্ত্রী পারভীন আকতারের সাথে প্রায়ই ঝগড়া ও মারপিট করত। গত মধ্যরাতে স্ত্রী পরকীয়ায় বাধা দেয়ায় কথাকাটাকাটির এক পর্যায়ে পারভিনকে লোহার রড দিয়ে বেদম মারপিট করলে মাটিতে লুটিয়ে গড়ে মারা যায়। পরে পরিবারের সবাই ওই রাতেই পালিয়ে যায়। সকালে প্রতিবেশীরা সদর মডেল থানা পুলিশকে খবর দিলে পুলিশ লাশ উদ্ধার করে ময়না তদন্তের জন্য হাসপাতাল মর্গে প্রেরণ করে।
সদর মডেল থানার অফিসার ইনচার্জ ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করেছেন। এ ঘটনায় সদর মডেল থানায় মামলা দায়েরের প্রস্তুতি চলছিল বলে জানান তিনি।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ