Inqilab Logo

শনিবার, ০২ জুলাই ২০২২, ১৮ আষাঢ় ১৪২৯, ০২ যিলহজ ১৪৪৩ হিজরী

টুর্নামেন্ট চলাকালীনই বুলেটে ঝাঁজরা কবাডি খেলোয়াড়, ক্যামেরাবন্দি চাঞ্চল্যকর মুহূর্ত

স্পোর্টস ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ১৫ মার্চ, ২০২২, ১২:৪৪ পিএম

টুর্নামেন্ট চলাকালীনই চলল গুলি। আর সেই গুলির আঘাতেই লুটিয়ে পড়লেন ভারতের আন্তর্জাতিক স্তরের কাডাবি খেলোয়াড়। ঘটনায় তীব্র আতঙ্ক ছড়ায় পাঞ্জাবের জলন্ধরে।

ঘটনা সোমবারের। জলন্ধরের একটি কবাডি টুর্নামেন্টে অতিথি হিসেবে হাজির হয়েছিলেন সন্দীপ সিং নাঙ্গাল। সেখানেই ঘটে যায় এই চাঞ্চল্যকর ঘটনা। পুলিশের তরফে জানানো হয়েছে, নাকোদারের মালিয়ান খুর্দ গ্রামে টুর্নামেন্টের আয়োজন করা হয়েছিল। সন্দীপ মাঠের বাইরে রাস্তার দিকে বেরিয়ে এসেছিলেন। ঠিক সেই সয়মই তাকে তাক করে গুলি চালাতে শুরু করে চারজন। গাড়ি থেকে নেমে দু’জন প্রথমে আকাশে গুলি চালায়। আর অন্য দু’জন সন্দীপকে লক্ষ্য করে ছোঁড়ে গুলি। অন্তত আট থেকে দশটি বুলেট ঝাঁজরা করে দেয় সন্দীপের শরীর। সেখানে উপস্থিত আরও একজন পায়ে চোট পান বলে খবর। গুলির আওয়াজে ছড়িয়ে পড়ে তীব্র আতঙ্ক। মাঠে উপস্থিত দর্শকদরা এদিক সেদিক ছুটতে শুরু করে দেন।

৪০ বছর বয়সি খেলোয়াড়কে হাসপাতাল নিয়ে যাওয়া হলে চিকিৎসকরা তাকে মৃত বলে ঘোষণা করে। জলন্ধরের (গ্রামীণ) ডিএসপি লখিন্দর সিং জানান, সন্দীপ শাহকোটের ছেলে হলেও পরবর্তীতে তিনি ইংল্যান্ডে চলে যান। ব্রিটিশ নাগরিকত্বও নিয়েছিলেন। একাধিক আন্তর্জাতিক কবাডি প্রতিযোগিতায় অংশ নিয়েছেন। কিন্তু মাতৃভূমির প্রতি টান রয়ে গিয়েছিল। তাই মাঝেমধ্যে পাঞ্জাব আসতেন। এমনকী, সেখানকার উঠতি প্রতিভাদের উৎসাহ দিতে কবাডি টুর্নামেন্টের আয়োজনও করতেন। তেমনই একটি টুর্নামেন্ট চলছিল সোমবার। কিন্তু সেখানেই যে তিনি শেষ নিশ্বাস ত্যাগ করবেন, ভাবতে পারেননি তার অনুরাগীরা। ইংল্যান্ডে স্ত্রী ও দুই ছেলেকে তার মৃত্যু সংবাদ দেওয়া হয়েছে।

সোশ্যাল মিডিয়ায় ইতিমধ্যেই ছড়িয়ে পড়েছে সন্দীপকে গুলি চালানোর মুহূর্তটি। যা দেখে শিউরে উঠছেন নেটিজেনরা। দিনেদুপুরে কে বা কারা সন্দীপের উপর গুলি চালাল, তা তদন্ত করে দেখছে পুলিশ। সূত্র: এনডিটিভি।

ভিডিও লিংক



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: কাবাডি


আরও
আরও পড়ুন