Inqilab Logo

বুধবার, ২৯ জুন ২০২২, ১৫ আষাঢ় ১৪২৯, ২৮ যিলক্বদ ১৪৪৩ হিজরী

সাটু‌রিয়ায় শহীদ বেদিতে ফুল দিতে গি‌য়ে আ. লীগের দুই গ্রুপের সংঘর্ষ: আহত ৮

সাটু‌রিয়া (মা‌নিকগঞ্জ) উপজেলা সংবাদদাতা | প্রকাশের সময় : ২৬ মার্চ, ২০২২, ১২:৪৩ পিএম

মা‌নিকগ‌ঞ্জের সাটু‌রিয়া উপ‌জেলায় স্বাধীনতা ও জাতীয় দিবস উপল‌ক্ষে উপজেলার শহীদ বেদিতে ফুল দিতে গি‌য়ে আওয়ামী লীগের দুই গ্রুপের সংঘর্ষের ঘটনা ঘটেছে। এ ঘটনায় আহত হয়েছে ৮ জন।

শ‌নিবার (২৬ মার্চ) সকা‌লে উপজেলার বা‌লিয়া‌টি‌তে বাংলাদেশ চত্বরের শহীদ বেদিতে ফুল দিতে গি‌য়ে আওয়ামী লীগের দুই গ্রুপের সংঘর্ষের এ ঘটনা ঘটে।
জানা গেছে, শনিবার সকালে বালিয়াটি ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান মীর সোহেল আহমেদ চৌধুরী আওয়ামী লীগের ব্যানারে শহীদ বেদিতে ফুল দিতে গেলে বাধা দেয় বালিয়াটি ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সভাপতি মো. রুহুল আমিনের সমর্থকেরা। এতেই হট্টগোলের সৃষ্টি হয়। প‌রে দুপ‌ক্ষের সংঘর্ষ বাধ‌লে বা‌লিয়া‌টি ইউ‌নিয়ন যুবলীগের বহিষ্কৃত নেতা মো. জাকির হোসেন ও নাজমুলসহ কয়েকজন আহত হয়। পরে স্থানীয় আওয়ামীলীগ ও যুবলী‌গের নেতাকর্মীরা এবং পুলিশ পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনে।
বালিয়াটি ইউনিয়নের আওয়ামী লীগের সভাপতি ও সাবেক ইউপি চেয়ারম্যান রুহুল আ‌মিন বলেন, ঘটনাটি দুঃখজনক। বহিষ্কৃত আওয়ামী লীগ নেতা সোহেল চৌধুরী তাঁর দলবল নিয়ে আওয়ামী লীগের ব্যানারে শহীদ বেদিতে ফুল দিতে গেলে এই ঘটনা ঘটে।
বা‌লিয়া‌টি ইউপি চেয়ারম্যান মীর সোহেল আহমেদ চৌধুরী বলেন, ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক হিসেবে আওয়ামী লীগের পক্ষ থেকে শহীদ বেদিতে ফুলের তোড়া দিতে গেলে আওয়ামী লীগের ইউনিয়নের সভাপতি মো. রুহুল আমীন ও তাঁর দলবল তার ওপর হামলা করে। এতে ধাওয়া পাল্টা ধাওয়ার ঘটনা ঘটে, যা ন্যক্কার জনক।
সাটুরিয়া উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক মো. আফাজ উদ্দিন বলেন, শহীদ বেদিতে ফুল দেওয়াকে কেন্দ্র করে ধাওয়া পাল্টা ধাওয়ার বিষয়টি দুঃখজনক। জ্যেষ্ঠ নেতাদের সঙ্গে কথা বলে যারা এই ঘটনা ঘটিয়েছে তাঁদের বিরুদ্ধে আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া হবে।
সাটুরিয়া থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. আশরাফুল আলম বলেন, শহীদ বেদিতে ফুল দেওয়াকে কেন্দ্র করে আওয়ামী লীগের দুই গ্রুপের সংঘর্ষ বাধলে পুলিশ পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনে।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: সংঘর্ষ


আরও
আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ