Inqilab Logo

বৃহস্পতিবার, ৩০ জুন ২০২২, ১৬ আষাঢ় ১৪২৯, ২৯ যিলক্বদ ১৪৪৩ হিজরী

মোংলায় শ্রমিক শাহিন হত্যার আসামী মারুফকে কয়রা থেকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ

বা‌গেরহাট সংবাদদাতা | প্রকাশের সময় : ২৯ মার্চ, ২০২২, ৮:৫৭ পিএম

তালাক দেওয়া স্ত্রীকে বিয়ে করায় ক্ষিপ্ত হয়ে মোংলার ছাড়াবাড়ী এলাকার বাসিন্ধা শ্রমিক শাহীনকে সোমবার রাতে ছুরিকাঘাতে হত্যার ঘটনার আসামী মারুফ কে খুলনার কয়রা থেকে গ্রেঘতার করেছে পুলিশ।

মঙ্গলবার (২৯ মার্চ) কয়রা থেকে মোবাইল ফোনে বিকাশে আত্বীয়ের কাছে টাকা চায় হত্যা মামলার আসামী মারুফ। এর পর ওই ফোনের স্থান চিহ্নিত করে কয়রা থানা পুলিশের সহায়তায় এস আই রেজার নেতৃত্বে মোংলা থানা পুলিশের একটি টিম মারুফকে গ্রেফতার করতে সক্ষম হয়।
মোংলা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মনিরুল ইসলাম জানান, মঙ্গলবার রাতে কয়রা থানা পুলিশের হেফাজতে রাখা হবে মারুফকে। সকল আইনী প্রক্রীয়া শেষে বুধবার মোংলা থানায় আনা হবে।
ধারনা করা হচ্ছে ভারতে পালাতে কয়রা আত্বীয়ের বাড়ীতে অবস্থান নেয় মারুফ।
পুলিশের হাতে আটক মারুফ খুলনা জেলার কয়রার আব্দুর রশিদের ছেলে। সে পৌর শহরের ছাড়াবাড়ি এলাকায় ভাড়া থাকতো। পেশায় একজন কাঠমিস্ত্রী ছিলো।
ছুরিকাঘাতে নিহত শাহীন (৩৫) ছাড়াবাড়ি এলাকার একরামুল হকের ছেলে। মারুফ ও নিহত শাহিনের মধ্যে এক সময় খুবই বন্ধুত্ব ছিলো। মারুফের তালাক দেয়া স্ত্রীকে শাহিন বিয়ে করলে তাদের মধ্য শত্রুতা শুরু হয়। এর জেরে সোমবার(২৮ মার্চ) রাত ৮ টার সময় পেটের বামপাশে ছুরিকাঘাত করে। এর পর হাসপাতালে নেয়ার পথে শাহিনের মৃত্যু হয়।#



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: গ্রেফতার


আরও
আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ