Inqilab Logo

ঢাকা, শনিবার, ১৭ আগস্ট ২০১৯, ০২ ভাদ্র ১৪২৬, ১৫ যিলহজ ১৪৪০ হিজরী।

পরাজয়ের পর হিলারির বক্তব্যে গণতান্ত্রিক মানসিকতা ও সৌজন্যের প্রতিফলন

প্রকাশের সময় : ১১ নভেম্বর, ২০১৬, ১২:০০ এএম

ইনকিলাব ডেস্ক : প্রেসিডেন্ট নির্বাচনে রিপাবলিকান প্রতিদ্বন্দ্বী ডোনাল্ড ট্রাম্পের কাছে অপ্রত্যাশিতভাবে হেরে যাওয়ার পর ডেমোক্রেট প্রার্থী হিলারি ক্লিনটন অত্যন্ত সৌজন্যমূলক ও গুরুত্বপূর্ণ বক্তব্য রেখেছেন। তার এই সংক্ষিপ্ত বক্তব্য ছিল ইতিবাচক, যা গণতান্ত্রিক মানসিকতার প্রতিফলন ঘটায়। ডোনাল্ড ট্রাম্পের কাছে হেরে যাওয়ার পর দেশে শান্তিপূর্ণভাবে ক্ষমতা হস্তান্তরে সহযোগিতার জন্য এবং তাদের অধিকার অর্জনের লড়াই চালিয়ে যাওয়ার জন্য তিনি তার সমর্থকদের প্রতি আহ্বান জানান। তিনি বলেন, আমরা যা চেয়েছিলাম এবং যার জন্য কঠোর পরিশ্রম করেছি, এটা তার ফল নয়, সে জন্য আমি দুঃখিত।
দেশকে দেয়ার জন্য আমাদের যে ইচ্ছা ও লক্ষ্য ছিল তা পূরণে আমরা নির্বাচনে জয়ী হতে পারিনি। তবে আমরা একসঙ্গে যে ধরনের চমৎকার প্রচার চালিয়েছিলাম, সে জন্য আমি গর্বিত। সে প্রচার ছিল ব্যাপক, ইতিবাচক, গঠনমূলক, অহিংস ও শক্তি সঞ্চয়কারী। আজকের ফলাফল বেদনাদায়ক ও দীর্ঘ সময় ধরে তা মনে থাকবে। কিন্তু আমি চাই আপনারা এটা মনে রাখেন। আমাদের প্রচার কখনোই শুধু এক ব্যক্তিকেন্দ্রিক ও এক নির্বাচনমুখী ছিল না। আমাদের প্রচারণায় ছিল যে দেশকে আমরা ভালোবাসি, তাকে আরও আশাবাদী ও মহৎ করে তোলার বিষয়। হিলারি বলেন, আমরা দেখেছি, যে রকম ভেবেছিলাম তার চেয়ে বেশি বিভক্ত হয়ে পড়েছিলাম আমরা। তবে আমি এখনও মনে করি, এক আমেরিকা এবং এটা সব সময়ই। দেশ চেয়েছে ডোনাল্ড ট্রাম্পকে এবং তাই তিনি সুযোগ পেয়েছেন। আমাদের সাংবিধানিক গণতন্ত্রে শান্তিপূর্ণভাবে ক্ষমতা হস্তান্তরের কথা বলা আছেÑ এটা আমাদের মনে রাখতে হবে।
তিনি বলেন, জনগণ, সকল ধর্ম-বর্ণ, নারী-পুরুষ, অভিবাসী, এলজিবিটি জনগণ, অক্ষম নাগরিকÑ সবার জন্য আমেরিকার স্বপ্ন অনেক বড়। হিলারি তার রানিংমেট টিম কেইন, তার পরিবার এবং তার প্রচার সঙ্গী হিসেবে প্রেসিডেন্ট ওবামাকে ধন্যবাদ জানান। তিনি আরও বলেন, সর্বোচ্চ এবং কঠিন কাঁচের আবরণ এখনো অক্ষত আছে, তবে এটা চিরদিনের জন্য থাকবে না। ছোট ছোট শিশু, যারা এ অনুষ্ঠান দেখছোÑ এতে কোন সন্দেহ নেই যে, তোমাদের স্বপ্নগুলো একদিন মূল্যায়ন হবে, যে কোন সুযোগ গ্রহণে তা জোরালো হবে। ‘ঈশ^র আমেরিকার মঙ্গল করুন’Ñ এ বলে হিলারি তার বক্তব্য শেষ করেন। মাশাবেল ইনক।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ