Inqilab Logo

সোমবার, ০৪ জুলাই ২০২২, ২০ আষাঢ় ১৪২৯, ০৪ যিলহজ ১৪৪৩ হিজরী

কোটালীপাড়ায় স্কুলছাত্রীকে গণধর্ষণ মামলার ৪ আসামীকে গ্রেফতার করেছে র‍্যাব

কোটালীপাড়া (গোপালগঞ্জ) উপজেলা সংবাদদাতা | প্রকাশের সময় : ১০ এপ্রিল, ২০২২, ৪:৫৩ পিএম

গোপালগঞ্জের কোটালীপাড়ায় ৬ষ্ঠ শ্রেণির এক স্কুলছাত্রীকে চার দিন আটকে রেখে পালাক্রমে গণধর্ষণ মামলার ৪ আসামীকে গ্রেফতার করেছে র‍্যাব । আজ রবিবার দুপুরে র‍্যাব ৮ সিপিসি ৩ মাদারীপুর ক্যাম্পে এক প্রেস বিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য জানান মাদারীপুর র‍্যাবের কোম্পানী অধিনায়ক স্কোয়াড্রন লীডার মোহাম্মদ সাদেকুল ইসলাম। র‍্যাব প্রেস বিজ্ঞপ্তিতে জানান র‌্যাব সদর দপ্তরের গোয়েন্দা শাখা ও র‌্যাব-৮ এর কোম্পানী অধিনায়ক স্কোয়াড্রন লীডার মোহাম্মদ সাদেকুল ইসলাম ও সহকারী পরিচালক মোঃ রবিউল ইসলাম এর নেতৃত্বে গতকাল শনিবার অভিযান চালিয়ে ঢাকা জেলার শাহাবাগ হতে আসামি গোপাল বাড়ৈ (৩০), কে গ্রেফতার করে। তার দেওয়া তথ্য মোতাবেক মাদারীপুর জেলার শিবচর হতে বরুন বালা (২৩), এবং কোটালীপাড়া উপজেলার একটি মাছের ঘের হতে অটল বাড়ৈ (২২) ও প্লাবন বাড়ৈ (২৫), কে গ্রেফতার করা হয়। প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে গ্রেফতারকৃতরা গণধর্ষণের সাথে তাদের সম্পৃক্ততার বিষয়ে তথ্য প্রদান করেছে । গ্রেফতারকৃত আসামীদের জিজ্ঞাসাবাদে জানা যায় গত ২৬শে মার্চ ২০২২ তারিখ রাতে ভূক্তভোগী গোপালগঞ্জ জেলার কোটালীপাড়ার পীড়ার বাড়ি মন্দির হইতে গান শুনে মামা বাড়ি যাওয়ার পথে গ্রেফতারকৃত আসামীরা উক্ত ভিকটিমের গলায় দেশীয় অস্ত্র ঠেকিয়ে মোটরসাইকেল যোগে অজ্ঞাত স্থানের একটি দোতলা ভবনে তুলে নিয়ে প্রথমে ভিকটিমকে নগ্ন করে ভিডিও করে। তারপর গ্রেফতারকৃত আসামীরা সবাই ভিকটিমকে পালাক্রমে ধর্ষণ করে এবং নেশাজাতীয় কোন বস্তু খাইয়ে দিয়ে সারারাত পালাক্রমে নির্যাতন করে। পরের দিন ১ নং আসামি গোপালের এক আত্মীয়ের বাসায় নিয়ে যায় এবং উচ্চ স্পীকারে বক্স বাজিয়ে ০৩ (তিন) দিন ধরে পালাক্রমে আবারো ধর্ষন করে। এক পর্যায়ে ভিকটিম জানালা ভেঙ্গে পালিয়ে পাশের বাড়ি আশ্রয় নেয়।

এঘটনায় গত ৬ এপ্রিল ধর্ষণের স্বীকার ওই স্কুল ছাত্রীর বাবা বাদী হয়ে আসামীদের বিরুদ্ধে কোটালীপাড়া থানায় নারী ও শিশু নির্যাতন দমন আইনে একটি মামলা করেন। বিষয়টি বিভিন্ন গণমাধ্যমে প্রকাশিত হলে আসামীদের দ্রুত আইনের আওতায় আনতে নজরদারি বৃদ্ধি করে র‍্যাব এবং বিভিন্ন এলাকায় অভিযান চালিয়ে তাদের গ্রেফতার করতে সক্ষম হয়। প্রেস বিজ্ঞপ্তিতে আরো জনানো হয় র‌্যাব প্রতিষ্ঠালগ্ন থেকে বিভিন্ন ধরণের অপরাধীদের গ্রেফতারের ক্ষেত্রে অত্যন্ত অগ্রনী ভূমিকা পালন করে আসছে। র‌্যাবের সৃষ্টিকাল থেকে অদ্যাবধি জঙ্গি, মাদক, অস্ত্রধারী সন্ত্রাসী, অপহরণকারী, ছিনতাইকারী, চাঁদাবাজ ও প্রতারকচক্র গ্রেফতারে সদা তৎপর রয়েছে। এছাড়াও সাম্প্রতিক সময়ে বেশ কয়েকটি চাঞ্চল্যকর ধর্ষণের মত নেক্কারজনক ঘটনার সাথে জড়িত আসামীদের দ্রæততম সময়ের মধ্যে আটক করে আইনের আওতায় এনে সাধারণ জনমনে স্বতি ফিরিয়ে আনতে সক্ষম হয়েছে র‌্যাব যেখানেই মানবাধিকার লুণ্ঠিত হয়েছে, নারী অধিকার ক্ষুন্ন করা হয়েছে বা নারী নির্যাতন/ধর্ষণের কোন ঘটনা ঘটেছে, র‌্যাব তৎক্ষণাৎ ভিকটিম অথবা নির্যাতিতার পাশে দাঁড়িয়েছে এবং ঘটনার সাথে জড়িত আসামীদের দ্রততম সময়ের মধ্যে গ্রেফতার করে আইনের আওতায় নিয়ে এসেছে। সাম্প্রতিক সময়ে কক্সবাজার পর্যটন এলাকায় নির্মম, মর্মান্তিকও পৈশাচিক ধর্ষণের শিকার হয়েছেন এক নারী, যেখানে ভিকটিম মা তার ৮ মাস বয়সি অসুস্থ শিশুর চিকিৎসার জন্য মানুষের দ্বারে দ্বারে সাহায্য কামনা করছিল। এই ঘটনার সাথে জড়িত ধর্ষককে র‌্যাব দ্রততম সময়ের মধ্যে গ্রেফতার করে আইনের হাতে সোপর্দ করেছে। তাছাড়া কিছুদিন পূর্বে গোপালগঞ্জ জেলার একটি পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয়ের একজন ছাত্রী ন্যাক্কারজনকভাবে গণধর্ষনের শিকার হলে তাৎক্ষনিক তাদেরওকে গ্রেফতার করে আইনের আওতায় আনা হয়েছে বলে তারা জানান।

আমামীরা সবাই গোপালগঞ্জ জেলার কোটালীপাড়া উপজেলার বাসিন্দা এদের মধ্যে আসামী গোপাল বাড়ৈ পলোটানা গ্রামের কালু বাড়ৈর ছেলে, বরুন বালা মুশুরিয়া গ্রামের নারায়ন বালার ছেলে অটল বাড়ৈ পলোটানা গ্রামের খোকন বাড়ৈর ছেলে ও

প্লাবন বাড়ৈপলোটানা গ্রামের প্রতাপ চন্দ্র বাড়ৈর ছেলে।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: ধর্ষক আটক


আরও
আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ