Inqilab Logo

শনিবার, ০২ জুলাই ২০২২, ১৮ আষাঢ় ১৪২৯, ০২ যিলহজ ১৪৪৩ হিজরী

যুদ্ধ-লকডাউনে পণ্যের দাম বেড়েছে

ইনকিলাব ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ১২ এপ্রিল, ২০২২, ১২:০৪ এএম

করোনা নিয়ন্ত্রণে শুরু থেকেই কঠোর অবস্থানে রয়েছে চীন। দেশটিতে এখনো লকডাউনের মতো বিধিনিষেধ চালু আছে। অন্যদিকে রাশিয়া ও ইউক্রেনের মধ্যে চলমান যুদ্ধের প্রভাবও পড়েছে দেশটিতে। এমন পরিস্থিতিতে বিশ্বের দ্বিতীয় বড় অর্থনীতির দেশটিতে পণ্যের মূল্য লাফিয়ে বেড়েছে। মার্চে চীনে মূল্যস্ফীতির হার পূর্বাভাসের চেয়ে বেশি হয়েছে। কাতারভিত্তিক সংবাদমাধ্যম আল-জাজিরার এক প্রতিবেদনে এ তথ্য জানানো হয়। জানা গেছে, জ্বালানির মূল্য বৃদ্ধি ও সরবরাহ সংকটের মধ্যেই দেশটির জাতীয় পরিসংখ্যান ব্যুরো জানায়, এ সময়ে চীনের উৎপাদক মূল্য সূচক (পিপিআই) আট দশমিক তিন শতাংশ বৃদ্ধি পেয়েছে। তবে ফেব্রুয়ারিতে মূল্য বৃদ্ধির এই হার ছিল আট দশমিক আট শতাংশ। তবে বর্তমান মূল্য অর্থনীতিবিদদের পূর্বাভাসের চেয়ে এখনো বেশি। এদিকে চীনের ভোক্তা মূল্যসূচকও প্রত্যাশার চেয়ে বেশি। মার্চে এই বাড়ার হার ছিল এক দশমিক পাঁচ শতাংশ যা ফেব্রুয়ারিতে ছিল শূন্য দশমিক নয় শতাংশ। হংকংয়ের নাটিক্সিসের এশিয়া প্যাসিফিকের প্রধান অর্থনীতিবিদ অ্যালিসিয়া গার্সিয়া হেরেরো বলেছেন, মূল্যস্ফীতির পরিসংখ্যান বিশ্ব অর্থনীতির জন্য উদ্বেগজনক। তিনি বলেন, লকডাউনের কারণেই মূলত পণ্যের দাম বাড়ছে। চীনের কর্তৃপক্ষও এ ব্যাপারে স্থিতিশীলতা আনতে চায়। খাদ্য মজুত চীনের জন্য গুরুত্বপূর্ণ। তবে এ বিষয়টির কারণে বিশ্বব্যাপী মূল্যস্ফীতি বাড়বে। তাছাড়া চীন খাদ্য আমদানি বাড়াবে। ফলে বিশ্ব চাহিদার ওপর চাপ আরও বাড়বে বলেও মনে করেন তিনি। করোনার সংক্রমণ আবার বেড়ে যাওয়ায় চীনের বিভিন্ন অঞ্চলে ফের লকডাউন জারি করা হচ্ছে। এর প্রতিক্রিয়ায় বেশ কিছু বহুজাতিক কোম্পানি চীনে তাদের ব্যবসা সাময়িকভাবে বন্ধ ঘোষণা করেছে। আল-জাজিরা।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: যুদ্ধ-লকডাউনে পণ্যের দাম বেড়েছে
আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ