Inqilab Logo

শনিবার, ০২ জুলাই ২০২২, ১৮ আষাঢ় ১৪২৯, ০২ যিলহজ ১৪৪৩ হিজরী

দ্রব্যমূল্য বৃদ্ধির প্রতিবাদে সংসদের সামনে বিক্ষোভ ইন্দোনেশিয়ায়

ইনকিলাব ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ১৩ এপ্রিল, ২০২২, ১২:০২ এএম

ইন্দোনেশিয়ায় ভোজ্য তেলের দাম বৃদ্ধি ও প্রেসিডেন্ট জোকো উইদোদোর কার্যকালের মেয়াদ বৃদ্ধির প্রতিবাদে শিক্ষার্থীদের বিক্ষোভ সমাবেশে পানি কামান ও কাঁদানে গ্যাস নিক্ষেপ করেছে পুলিশ। জবাবে আন্দোলনকারীরাও পুলিশকে লক্ষ্য করে ইট-পাটকেল ছোড়ে। সোমবার জাকার্তায় বিক্ষোভ সমাবেশে অংশ নিয়েছিলেন দেশটির বিভিন্ন বিশ্ববিদ্যালয়ের অসংখ্য শিক্ষার্থী। সংসদের বাইরে তারা প্রতিবাদ করছিলেন। রয়টার্স জানায়, বিক্ষোভকারীদের সংসদের বাইরে ছুটতে দেখা গেছে। কম্পাস টিভি জানিয়েছে, এ সময় পাথর ছুড়তেও দেখা গেছে শিক্ষার্থীদের। সোমবার দক্ষিণ সুলাওয়েসি, পশ্চিম জাভা এবং জাকার্তাসহ ইন্দোনেশিয়ার বেশ কিছু অঞ্চলে এ প্রতিবাদ সমাবেশের আয়োজন করা হয়। জাকার্তায় পুলিশ প্রধান ফাদিল ইমরান জানিয়েছেন, বিশ্ববিদ্যালয়ের একজন শিক্ষক এই সমাবেশে অংশ নিয়েছিলেন। এ সময় পদপিষ্ট হয়ে গুরুতর আহত হয়েছেন ওই শিক্ষক। শরিক দলের সমর্থনের মাধ্যমে কার্যকালের মেয়াদ বাড়ানোর পরিকল্পনার বিষয়টি উড়িয়ে দিয়েছেন বর্তমান প্রেসিডেন্ট জোকো উইদোদো। কিন্তু তার আগে সংবিধানে সংশোধনী এনে কিংবা ২০২৪ সালের নির্বাচন পিছিয়ে প্রেসিডেন্টের মেয়াদ বাড়ানোর বিষয়টিতে প্রকাশ্যে সমর্থন জানিয়েছেন প্রভাবশালী রাজনৈতিক ব্যক্তিত্বরা। বিশ্বের তৃতীয় বৃহত্তম গণতন্ত্রের দেশ হিসেবে পরিচিত দেশটিতে বিষয়টি নিয়ে জল্পনা-কল্পনা বেড়েই চলছে। বিক্ষোভে অংশ নেয়া ছাত্র মোহাম্মদ লুৎফি বলেন, ‘কিভাবে অভিজাত গোষ্ঠীর একটা অংশ ইচ্ছে করে নির্বাচনে দেরি করাচ্ছে সেটা আমাদের কাছে স্পষ্ট, এভাবে সংবিধান লঙ্ঘন করা হচ্ছে। ১৯৯৮ সালে প্রেসিডেন্ট সুহার্তোকে ক্ষমতাচ্যুত করার ক্ষেত্রে ছাত্র আন্দোলনের অন্যতম ভ‚মিকা ছিলো। দুটি মেয়াদের পর আবারো একই প্রেসিডেন্ট কার্যভার গ্রহণ করলে গণতন্ত্রের কাঠামো নিয়ে সংশয় তৈরি হয়, জোকো উইদোদোর ক্ষেত্রেও এমনটাই মনে করছেন রাজনৈতিক বিশ্লেষকরা। জনগণের মধ্যে জল্পনা বন্ধ করতে ৬০ বছর বয়সি জোকো রোববার মন্ত্রী এবং নিরাপত্তা প্রধানদের এ বিষয়ে আলোচনা বন্ধ করার আহŸান জানিয়েছেন উইদোদো। ২০২৪ সালে স্বাভাবিক নিয়মে নির্বাচন হবে, এমনটাই জানিয়েছেন বর্তমান প্রেসিডেন্ট। ডয়েচে ভেলে।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: ইন্দোনেশিয়া


আরও
আরও পড়ুন