Inqilab Logo

বৃহস্পতিবার, ৩০ জুন ২০২২, ১৬ আষাঢ় ১৪২৯, ২৯ যিলক্বদ ১৪৪৩ হিজরী

আজ শফিউজ্জামান খান লোদীর মৃত্যুবার্ষিকী

বিনোদন রিপোর্ট: | প্রকাশের সময় : ১৮ এপ্রিল, ২০২২, ১২:০৩ এএম

আজ টেলিভিশন অনুষ্ঠান উপস্থাপক শফিউজ্জামান খান লোদী’র প্রথম মৃত্যুবার্ষিকী। তিনি ২০২১ সালের ১৮ এপ্রিল, করোনায় আক্রান্ত হয়ে মৃত্যুবরণ করেন। শফিউজ্জামান খান লোদী ১৯৫৪ সালের ২১ নভেম্বর, সিরাজগঞ্জ জেলার শাহজাদপুরের বিখ্যাত লোদী বংশে জন্মগ্রহণ করেন। তাঁর পূর্বপুরুষ ইব্রাহিম লোদী ছিলেন ‘লোদী রাজবংশে’র শেষ সুলতান। তিনি লেখাপড়া করেছেন, ধানমন্ডি গভঃ বয়েজ হাই স্কুল, ঢাকা কলেজ ও ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ে। ছাত্রজীবন থেকেই পত্র-পত্রিকায় তিনি লেখালেখি শুরু করেন। বেশীরভাগই ছিল চলচ্চিত্র বিষয়ক লেখা। সত্তর দশকে তিনি জড়িত হন চলচ্চিত্রসংসদ আন্দোলনের সাথে। এক সময় চিত্রালী পাঠক-পাঠিকা চলচ্চিত্রসংসদ (চিপাচস)-এর সাধারণ স¤পাদক ছিলেন। মৃত্যুর আগপর্যন্ত ছিলেন চিপাচস-এর উপদেষ্টা। দীর্ঘ দিন তিনি বাংলাদেশ বেতার-এ বিনোদনজগতের তারকাদের নিয়ে অনুষ্ঠান করেছেন। চ্যানেল আইয়ে প্রচারিত চলচ্চিত্রবিষয়ক অনুষ্ঠান ‘আমার ছবি’ উপস্থাপনার মাধ্যমে তিনি ব্যাপক জনপ্রিয়তা অর্জন করেন। অনুষ্ঠানটি দীর্ঘ আঠার বছর তিনি সফলভাবে উপস্থাপনা করেছেন। এছাড়াও এটিএন বাংলা ও ইটিভি'সহ কয়েকটি চ্যানেল-এ তাঁর পরিচালিত বেশ কিছু অনুষ্ঠান প্রচারিত হয়েছে। তিনি বাংলাদেশের শিল্প-সংস্কৃতির বিখ্যাত ব্যক্তিদের নিয়ে বেশকিছু প্রামাণ্যচিত্র নির্মাণ করেছেন। শফিউজ্জামান খান লোদী বিভিন্ন সামাজিক ও সাংস্কৃতিক সংগঠনের সাথেও জড়িত ছিলেন। তিনি বিশ্ব সাহিত্য কেন্দ্র’র প্রতিষ্ঠাতা সদস্যদের একজন। এছাড়া আরো অনেক সংগঠনের সাথে জড়িয়ে ছিলেন। টেলিভিশন অনুষ্ঠান উপস্থাপক-নির্মাতা, বিজ্ঞাপন নির্মাতা, চলচ্চিত্রসংসদকর্মী ও সাংবাদিক শফিউজ্জামান খান লোদী ছিলেন টেলিভিশনের অতি প্রিয় মুখ।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: শফিউজ্জামান খান লোদীর মৃত্যুবার্ষিকী
আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ