Inqilab Logo

বুধবার, ২৯ জুন ২০২২, ১৫ আষাঢ় ১৪২৯, ২৮ যিলক্বদ ১৪৪৩ হিজরী

ইউক্রেন সঙ্কটের মাঝেই রাশিয়ার সাথে নতুন চুক্তি জাপানের

ইনকিলাব ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ২৩ এপ্রিল, ২০২২, ২:২২ পিএম

শুরু থেকেই ইউক্রেনে রাশিয়ার হামলার তীব্র নিন্দা করেছে জাপান। মিত্রদেশ আমেরিকার পাশে দাঁড়িয়ে মস্কোর উপর নিষেধাজ্ঞা জারি করেছে টোকিও। শুধু তাই নয়, জাপানের প্রধানমন্ত্রী ফুমিও কিশিদা পুতিন প্রশাসনের বিরুদ্ধে যুদ্ধাপরাধের অভিযোগে মামলা চালানোর দাবিও জানিয়ে ফেলেছেন। তবে যুদ্ধে আপত্তি থাকলেও রুশ মাছে জাপানের যে অরুচি নেই তা স্পষ্ট। এবার মৎস্য শিকার সংক্রান্ত একটি চুক্তি স্বাক্ষর করেছে দুই দেশ।

রয়টার্স সূত্রে খবর, স্যামন ও ট্রাউট মাছ শিকার নিয়ে রাশিয়া ও জাপানের মধ্যে একটি চুক্তি স্বাক্ষরিত হয়েছে। শনিবার জাপানের মৎস দপ্তর জানিয়েছে, রাশিয়ার নদীতে জন্মানো স্যামন ও ট্রাউট মাছ শিকারের বরাদ্দ নিয়ে দুই দেশের মধ্যে চুক্তি হয়েছে। এর ফলে নিজের ‘এক্সক্লুসিভ ইকোনোমিক জোন’ তথা ‘স্বতন্ত্র অর্থনৈতিক অঞ্চলে’ রাশিয়ায় জন্মানো ২ হাজার ৫০ টন স্যামন ও ট্রাউট মাছ শিকার করতে পারবেন জাপানি মৎসজীবীরা।

এর জন্য রাশিয়াকে ফি বাবদ প্রায় ২০০ মিলিয়ন ইয়েন (১.৫৬ মিলিয়ন মার্কিন ডলার) দেবে জাপান। গতবছরও মস্কো ও টোকিওর মধ্যে এই চুক্তি হয়েছিল। তবে এবছর ইউক্রেন যুদ্ধের আবহে দুই দেশের মধ্যে উত্তেজনার পারদ চড়ে। যার জেরে জাপানের মৎসজীবীরা কিছুটা আশঙ্কায় ভুগছিলেন।

প্রসঙ্গত, শুরু থেকেই ইউক্রেনে রাশিয়ার হামলার তীব্র নিন্দা করেছে জাপান। মিত্রদেশ আমেরিকার পাশে দাঁড়িয়ে মস্কোর উপর নিষেধাজ্ঞা করেছে টোকিও। যার ফলে দুই দেশের মধ্যে পূর্বনির্ধারিত বেশ কিছু প্রকল্পের কাজ থেমে গিয়েছে। রাশিয়া থেকে তেল ও গ্যাস আমদানিতেও রাশ টেনেছে টোকিও। সবমিলিয়ে দুই দেশের সম্পর্ক তলানিতে ঠেকেছে।

উল্লেখ্য, গত ২৪ ফেব্রুয়ারি ইউক্রেনে হামলা চালায় রাশিয়া। প্রায় একপক্ষ কালের বেশি সময় ধরে ভয়াবহ যুদ্ধ চলছে দুই দেশের মধ্যে। এহেন পরিস্থিতিতে রুশ প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিনকে জব্দ করতে রাশিয়ার উপর একগুচ্ছ আর্থিক নিষেধাজ্ঞা চাপিয়েছে আমেরিকা, ব্রিটেন, ইউরোপীয় ইউনিয়ন, অস্ট্রেলিয়া, জাপান-সহ একাধিক দেশ। রাশিয়া থেকে তেল আমদানি করাও বন্ধ করে দিয়েছে ওয়াশিংটন। শুধু তাই নয়, রাশিয়ার কয়েকটি ব্যাংককে আন্তর্জাতিক আর্থিক লেনদেনের ‘সুইফট’ ব্যবস্থা থেকে বাদ দেয়া হয়। সূত্র: রয়টার্স।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: জাপান


আরও
আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ