Inqilab Logo

বৃহস্পতিবার, ০৭ জুলাই ২০২২, ২৩ আষাঢ় ১৪২৯, ০৭ যিলহজ ১৪৪৩ হিজরী

ছেলেকে হত্যাচেষ্টার প্রতিবাদে মানববন্ধনে গ্রেফতার বাবার জামিন

ঝালকাঠি জেলা সংবাদদাতা | প্রকাশের সময় : ২৬ এপ্রিল, ২০২২, ১২:০৩ এএম

গ্রেফতারের একদিন পরেই জামিন পেলেন ঝালকাঠির নলছিটির সেই বাবা কমল চন্দ্র অধিকারী। তাঁর মেধাবী সন্তান শান্ত অধিকারীকে হত্যাচেষ্টা মামলার আসামিকে পুলিশ এক সপ্তাহেও গ্রেফতার না করায় মানববন্ধন করেছিলেন তিনি। গত রবিবার সকালে নলছিটি প্রেস ক্লাবের সামনে মানববন্ধন শেষে উল্টো প্রতিপক্ষের মামলায় তাকেই গ্রেফতার করে পুলিশ। এ ঘটনায় গণমাধ্যমে সংবাদ প্রকাশ ও সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে প্রতিবাদের ঝড় ওঠে। পুলিশ গ্রেফতারের পরপরই তাড়াহুড়ো করে তাকে আদালতের মধ্যেমে কারাগারে পাঠায়। গতকাল সোমবার দুপুরে ঝালকাঠির জ্যেষ্ঠ বিচারিক হাকিম আদালতে তাঁর পক্ষে অ্যাডভোকেট জি কে মোস্তাফিজুর রহমান জামিন আবেদন করেন। আদালতের বিচার মো. মনিরুজ্জামান শুনানি শেষে কমল চন্দ্র অধিকারীর জামিন মঞ্জুর করেন। আহত শান্ত অধিকারীর মা কল্যাণী রানী অধিকারী বলেন, আমার স্বামীকে মিথ্যা মামলায় পুলিশ গ্রেফতার করেছে। এ মামলায় আদালত থেকে তাঁর জামিন হয়েছে। অথচ পুলিশ এখনো আমার ছেলেকে হত্যাচেষ্টা মামলার আসামি সৈয়র ভোজপুর সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের দপ্তরি সঞ্জয় মন্ডলকে গ্রেফতার করতে পারেনি। আমরা গরিব বিধায় আমাদের হয়রানির শিকার হতে হয়। ওদের টাকা আছে, তাই পুলিশ ধরে না। জানা যায়, কমল চন্দ্র অধিকারীর সঙ্গে প্রতিবেশী সৈয়র ভোজপুর সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের দপ্তরি সঞ্জয় মন্ডলের পরিবারের জমি নিয়ে বিরোধ চলছিল। এ ঘটনায় একাধিকবার শালিস মিমাংসা হলেও সঞ্জয় মন্ডলের পরিবার তা মানছেন না। উল্টো বিভিন্ন সময় কমল চন্দ্র অধিকারীকে গ্রামছাড়া করার হুমকি দিয়ে আসছিল। এরই জের ধরে গত ১৬ এপ্রিল বাড়ির কাছেই সঞ্জয় মন্ডল ও তাঁর মা অঞ্জলী রানী মন্ডল কমলের স্ত্রী কল্যাণী রানীকে পিটিয়ে আহত করে। মাকে বাঁচাতে গেলে ছেলে বরিশাল অমৃত লাল দে কলেজের মেধাবী শিক্ষার্থী শান্ত অধিকারীকেও এলোপাথারি পিটিয়ে আহত করে।

এতে শান্তর মাথা ফেটে যায়। গুরুতর অবস্থায় তাকে বরিশাল শের-ই-বাংলা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে নিলে উন্নত চিকিৎসার জন্য ঢাকা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে পাঠায়। সেখানেই চিকিৎসা চলছে শান্তর।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

আরও পড়ুন