Inqilab Logo

শনিবার, ২৫ জুন ২০২২, ১১ আষাঢ় ১৪২৯, ২৪ যিলক্বদ ১৪৪৩ হিজরী

এবার ভারতকে একহাত নিলেন মার্কিন পররাষ্ট্রমন্ত্রী

অনলাইন ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ২৮ এপ্রিল, ২০২২, ১:০২ পিএম

আমেরিকা মুখ ফেরানোর কারণেই রাশিয়ার সঙ্গে ‘নতুন সম্পর্কে’ জড়াচ্ছে ভারত। এমনই মন্তব্য করলেন আমেরিকার পররাষ্ট্র সচিব অ্যান্টনি ব্লিঙ্কেন। রাশিয়ার সঙ্গে ভারত ‘প্রয়োজনের বাইরে গিয়ে’ সম্পর্ক তৈরি করছে বলেও তিনি উল্লেখ করেন। তবে আমেরিকা এবং ভারতের মধ্যে কৌশলগত অভিন্নতা রয়েছে বলেও দাবি ব্লিঙ্কেনের।

ব্লিঙ্কেন বলেন, ‘‘ভারতের সঙ্গে কোনও দেশের সম্পর্ক তৈরি হলে, তা কয়েক দশক ধরে চলে। আমেরিকা, ভারতের সঙ্গে নতুন সম্পর্ক তৈরি করার জায়গায় নেই। আর সে কারণেই রাশিয়ার সঙ্গে সম্পর্ক তৈরি করছে ভারত। কিন্তু আমেরিকা আবার ভারতের সঙ্গে নতুন সম্পর্ক তৈরি করার প্রয়াসী হয়েছে।’’

ব্লিঙ্কেন আরও বলেন, ‘‘আমেরিকার প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী এবং ভারতের নেতৃত্বের সঙ্গে সরাসরি যুক্ত থাকার চেষ্টায় অনেক সময় অতিবাহিত করেছেন।’’ তাই ভারতের সঙ্গে দীর্ঘমেয়াদী সম্পর্ক তৈরি করার জন্য আমেরিকা আবার চেষ্টা করবে বলেও তিনি মন্তব্য করেন।

কিন্তু ভারত এই বিষয়ে কী ভাবছে? পররাষ্ট্রমন্ত্রী এস জয়শঙ্কর বুধবার জানান, ভারত এখন থেকে নিজের স্বার্থই দেখবে। বিশ্বকে আর তুষ্ট করার চেষ্টা করবে না। ভারতের কোনও দেশের অনুমোদনের প্রয়োজন নেই বলেও তিনি মন্তব্য করেন। ইউক্রেন যুদ্ধের আবহে রাশিয়ার সঙ্গে সখ্য বজায় না রাখার জন্য ভারতকে ‘বার্তা’ দিয়েছে আমেরিকা।

গত সপ্তাহে নয়াদিল্লি-মস্কো সামরিক সহযোগিতা নিয়ে ক্ষোভ প্রকাশ করে পেন্টাগনের মুখপাত্র জন কিরবি বলেছিলেন, ‘‘ভারতের পাশাপাশি অন্য দেশগুলিকে আমাদের বার্তা— আমরা প্রতিরক্ষার ক্ষেত্রে তাদের রাশিয়া-নির্ভরতা দেখতে চাই না। আমরা এই বিষয়ে স্পষ্ট ভাষায় তাদের নিরুৎসাহিত করছি।’’ তারই উত্তরে এই কথা জানান জয়শঙ্কর। এর পর এল ব্লিঙ্কেনের ‘বার্তা’। যে বার্তার এক দিকে যেমন রয়েছে রুশ-ঘনিষ্ঠতা নিয়ে প্রকাশ্যে তোপ, তেমনই থাকছে ভববিষ্যতে ভারতের সঙ্গে সুসম্পর্ক গড়ার প্রতিশ্রুতিও। সূত্র: হিন্দুস্থান টাইমস।

 



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: মার্কিন পররাষ্ট্রমন্ত্রী
আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ