Inqilab Logo

সোমবার, ০৪ জুলাই ২০২২, ২০ আষাঢ় ১৪২৯, ০৪ যিলহজ ১৪৪৩ হিজরী

জেনিনে গোলাগুলিতে নিহত ইসরাইলি নিরাপত্তা কর্মকর্তা

ইনকিলাব ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ১৫ মে, ২০২২, ১২:০২ এএম

ফিলিস্তিনি বন্দুকধারীর গুলিতে নিহত হয়েছেন ইসরাইলের কাউন্টার টেররিজম ইউনিটের এক কর্মকর্তা। শুক্রবার পশ্চিম তীরের জেনিন শহরে অভিযান চালায় ইসরাইলি সেনারা। এ সময়ই উভয় পক্ষের মধ্যে গুলি বিনিময় হলে নিহত হন ৪৭ বছর বয়স্ক সার্জেন্ট-মেজর নোয়াম রাজ। প্রায় ৪ ঘণ্টা ধরে সেখানে ফিলিস্তিনি বন্দুকধারীদের সঙ্গে গোলাগুলি চলে ইসরাইলি নিরাপত্তা বাহিনীর। এসময় গুলিবিদ্ধ হলে আহত নোয়ামকে হেলিকপ্টারে করে হাইফা শহরের রামবাম হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। পরে হাসপাতালে চিকিৎসারত অবস্থায় তার মৃত্যু হয়। ১৯৯৯ সালে সেনাবাহিনীতে যোগ দেন নোয়াম। এরপর ২৩ বছর ধরে যোদ্ধা, প্যারামেডিক এবং স্নাইপার হিসেবে বাহিনীতে কাজ করেছেন তিনি। এক বিবৃতিতে ইসরাইল পুলিশ নোয়ামকে বীর হিসেবে আখ্যায়িত করে। এতে বলা হয়, নোয়াম অত্যন্ত সাহসী, পেশাদার এবং নম্র মানুষ ছিলেন। তিনি শত শত সন্ত্রাসবাদ বিরোধী অভিযানে অংশ নিয়েছেন। এর আগেও তিনি নিজের জীবনের ঝুঁকি নিয়ে অন্যের জীবন বাঁচিয়েছেন। ইসরাইলি সেনাবাহিনীর এক কর্মকর্তা সাংবাদিকদের জানান, প্রচণ্ড গুলির মুখে ইসরাইলি সেনারা পিছু হটতে গেলে গুলিবিদ্ধ হন নোয়াম। তিনি বলেন, আমি গত ২০ বছরে অনেক ঘটনার মুখোমুখি হয়েছি কিন্তু এরকম বর্ণনাতীত পরিস্থিতির মুখোমুখি হইনি কখনো। হাজার হাজার গুলি ছোড়া হয় আমাদের দিকে। ইসরাইলি হামলায় ১৩ ফিলিস্তিনি আহত হয়েছে বলে জানা গেছে। এরমধ্যে দুই জনের অবস্থা গুরুতর। ইসলামিক জিহাদের সদস্য মাহমুদ আল-ডেবিকে গ্রেফতার করতে ওই অভিযান চালানো হয়েছিল। জেরুজালেম পোস্ট।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: ইসরাইল


আরও
আরও পড়ুন