Inqilab Logo

মঙ্গলবার, ২৮ জুন ২০২২, ১৪ আষাঢ় ১৪২৯, ২৭ যিলক্বদ ১৪৪৩ হিজরী

অলরাউন্ডার রুমানাও পারলেন না জেতাতে

স্পোর্টস ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ১৬ মে, ২০২২, ১২:০১ এএম

সাত নম্বরে ব্যাটিংয়ে নেমে ঝড়ো ইনিংস উপহার দিলেন রুমানা আহমেদ। পরে তিনি জ্বলে উঠলেন বল হাতেও। কিন্তু তার অলরাউন্ড পারফরম্যান্স দলের জন্য যথেষ্ট হলো না। দুবাইয়ে ‘ফেয়ারব্রেক’ নামের আমন্ত্রণমূলক টি-টোয়েন্টি টুর্নামেন্টের দ্বিতীয় সেমি-ফাইনালে বার্মি আর্মির হয়ে ১৫ বলে অপরাজিত ৩৫ রানের ইনিংস খেলেন বাংলাদেশের অলরাউন্ডার রুমানা। দলের হয়ে সর্বোচ্চ ইনিংসটি গড়া ৪টি চার ও ২টি ছক্কায়।
গতপরশু রাতে দুবাই আন্তর্জাতিক স্টেডিয়ামে টস হেরে ব্যাটিংয়ে নেমে ৬ উইকেট হারিয়ে ১৪১ রান করে বার্মি আর্মি। টর্নেডোস সেটি পেরিয়ে যায় ৪ উইকেট ও ২ বল হাতে রেখে। লেগ স্পিনে ৪ ওভারে ২৩ রানে ৩ উইকেট নেন রুমানা। দল হারলেও ম্যাচ সেরার পুরস্কার জেতেন তিনিই।
রুমানা ব্যাটিংয়ে নামেন ষোড়শ ওভারে, দলের রান তখন ৫ উইকেটে ৮৬। প্রথম ৮ বলে তার রান ছিল ১০। এরপর বাড়ান রানের গতি। পাকিস্তানের পেসার দিয়ানা বাইগের টানা চার বলে মারেন তিনটি চার ও একটি ছক্কা। ইনিংসের শেষ বলে তিনি আরেকটি ছক্কা হাঁকান দক্ষিণ আফ্রিকার লেগ স্পিনার সুনে লুসকে।
প্রতিপক্ষের রান তাড়ায় সপ্তম ওভারে প্রথমবার বল হাতে পেয়ে রুমানা দেন ৬ রান, পরের ওভারে ৮। ১৫তম ওভারে বোলিংয়ে ফিরে ৪ রান দিয়ে তিনি নেন একটি উইকেট। ৩৪ রান করে ক্যাচ তুলে দেন স্টেরে ক্যালিস। শেষ ১২ বলে টর্নেডোসের দরকার ছিল ৯ রান। ১৯তম ওভারে দারুণ বোলিংয়ে ৫ রান দিয়ে ২ উইকেট তুলে নিয়ে রুমানা জমিয়ে তোলেন লড়াই। তবে শেষ ওভারে ৪ রান আর ডিফেন্ড করতে পারেনি তারা।
টুর্নামেন্টে বাংলাদেশের আরেক প্রতিনিধি জাহানারা আলমের দল ফ্যালকন্স অবশ্য উঠে গেছে ফাইনালে। একই দিন প্রথম সেমি-ফাইনালে তারা স্পিরিটকে হারায় ২৫ রানে। জাহানারা ২ ওভারে ২৩ রান দিয়ে উইকেটশূন্য ছিলেন।
৬ দলের এই টুর্নামেন্টে অংশ নিয়েছেন মোট ৩০টি দেশের নারী ক্রিকেটাররা। আসরে ৬ ম্যাচে ব্যাট হাতে ৬২ রানের পাশাপাশি হাত ঘুরিয়ে ৭ উইকেট নেন রুমানা।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: অলরাউন্ডার রুমানাও পারলেন না জেতাতে
আরও পড়ুন