Inqilab Logo

মঙ্গলবার, ২৮ জুন ২০২২, ১৪ আষাঢ় ১৪২৯, ২৭ যিলক্বদ ১৪৪৩ হিজরী

আফগান নারী শিক্ষার্থীদের জন্য শিগগিরই ‘সুখবর’ আসছে

অনলাইন ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ১৭ মে, ২০২২, ১:৪৯ পিএম

আফগানিস্তানের মাধ্যমিক ও উচ্চমাধ্যমিক পর্যায়ের নারী শিক্ষার্থীদের জন্য শিগগিরই ‘সুখবর’ আসছে। দেশটিতে ক্ষমতাসীন তালেবান সরকারের স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী সিরাজউদ্দিন হাক্কানি মার্কিন সংবাদমাধ্যম সিএনএনকে দেওয়া এক সাক্ষাৎকারে এ তথ্য জানিয়েছেন। -সিএনএন

সাক্ষাৎকারে হাক্কানি বলেন, আফগান মেয়েদের মাধ্যমিক ও উচ্চমাধ্যমিক পর্যায়ের শিক্ষা ব্যবস্থায় কিছু সংস্কারের প্রয়োজন ছিল, সেসব এখন শেষ পর্যায়ে। খুব শিগগিরই আপনারা এ বিষয়ে সুখবর পাবেন। যেসব তালেবান নেতা নিজেদের আড়ালে রাখতে ভালবাসেন, তাদের মধ্যেও অন্যতম সিরাজুদ্দিন হাক্কানি। এ কারণে সিএনএনকে দেওয়া তার সম্প্রতিক এই সাক্ষাৎকারটিকে ‘বিরল’ হিসেবেই বিবেচনা করেছে এএফপিসহ আন্তর্জাতিক বিভিন্ন সংবাদমাধ্যম।

২০২১ সালের মার্চে আফগানিস্তানে ২০ বছর ধরে চলা যুদ্ধের সমাপ্তি ঘোষণা করেন মার্কিন প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন। ওই বছর আগস্টের মধ্যে দেশটি থেকে সব মার্কিন সেনা প্রত্যাহার করে নেওয়ার প্রতিশ্রুতিও দেন তিনি। তার সেই প্রতিশ্রুতির মাত্র চার মাসের মধ্যে ত্বরিৎ গতিতে দেশের ক্ষমতা দখল করে তালেবান, যারা ২০০১ সালে এই মার্কিন বাহিনীর অভিযানেই ক্ষমতা হারিয়েছিল।

এদিকে, তালেবান বাহিনী ক্ষমতা দখলের পর থেকেই বন্ধ করে দেওয়া হয় আফগানিস্তানের মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক মেয়েস্কুলগুলো। ব্যাপক আন্তর্জাতিক চাপের মুখে চলতি বছর মার্চের শেষ দিকে মেয়ে স্কুলগুলো খুলে দেওয়া হলেও কয়েক ঘণ্টার মধ্যে ফের সেসব বন্ধ করে দেওয়া হয়। তবে স্কুল খুলেও বন্ধ করে দেওয়ার এই পদক্ষেপে ব্যাপক ক্ষুব্ধ হন সাধারণ আফগান জনগণ ও আন্তর্জাতিক বিশ্ব।

তবে সিএনএনকে দেওয়া সাক্ষাৎকারে হাক্কানি দাবি করেন, তালেবানরা নারী শিক্ষার বিরোধী নয়। সাক্ষাৎকারে তিনি আরও বলেন, আন্তর্জাতিক বিশ্বের সঙ্গে সুসম্পর্ক বজায় রাখতে আগ্রহী তালেবান সরকার। ২০২০ সালে যুক্তরাষ্ট্রের সঙ্গে যে চুক্তি হয়েছিল, সেটির প্রতিও তালেবান শ্রদ্ধাশীল বলে উল্লেখ করেছেন হাক্কানি। গত ২০ বছরের যুদ্ধ শেষ হয়ে গেছে। আমরা যুক্তরাষ্ট্র ও আন্তর্জাতিক বিশ্বের সঙ্গে সুসম্পর্ক স্থাপন করতে চাই; কাউকে শত্রু মনে করি না আমরা।

 



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: আফগানিস্তান


আরও
আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ