Inqilab Logo

রোববার, ২৬ জুন ২০২২, ১২ আষাঢ় ১৪২৯, ২৫ যিলক্বদ ১৪৪৩ হিজরী
শিরোনাম

শ্রীলঙ্কায় জাতীয় উড়োজাহাজ বিক্রির পরিকল্পনা

ইনকিলাব ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ১৭ মে, ২০২২, ৪:৩৫ পিএম

আর্থিক লোকসান কমাতে দেশের জাতীয় উড়োজাহাজ সংস্থা বিক্রির পরিকল্পনা করছে শ্রীলঙ্কার নতুন সরকার। এ ছাড়া বাধ্য হয়ে সরকারি বেতনভাতা দিতে নতুন করে মুদ্রা ছাপানোর নির্দেশ দেওয়া হয়েছে।
ভারতীয় গণমাধ্যম এনডিটিভি জানায়, শ্রীলঙ্কার নতুন প্রধানমন্ত্রী রনিল বিক্রমাসিংহে সোমবার জাতির উদ্দেশে দেওয়া ভাষণে জানান, নতুন প্রশাসন শ্রীলঙ্কান এয়ারলাইনসের বেসরকারিকরণের পরিকল্পনা করছে। ২০২০-২১ অর্থবছরে এই বিমান সংস্থা ৪৫ বিলিয়ন রুপি লোকসান করেছে। বিক্রমাসিংহে বলেন, ‘এটি উচিত নয় যে, এই ক্ষতি দরিদ্রতম দরিদ্রদের বহন করতে হবে যারা কোনোদিন উড়োজাহাজে পা অবধি রাখেননি।’
২০১০ সালে, কলম্বো সরকার দুবাই এমিরেটস থেকে শ্রীলঙ্কান এয়ারলাইনসের একটি অংশ কিনে নেয়। জাতীয় এই উড়োজাহাজে সংস্থায় ২৫টি এয়ারবাস এসই উড়োজাহাজ রয়েছে, যা ইউরোপ ও মধ্যপ্রাচ্যের পাশাপাশি দক্ষিণ এবং দক্ষিণ-পূর্ব এশিয়ার বিভিন্ন দেশে চলাচল করে।
বিক্রমাসিংহে জানান, সরকারি বেতন দেওয়ার জন্য রুপি ছাপতে বাধ্য করা হয়েছে তাঁকে, যা দেশের মুদ্রার ওপর চাপ সৃষ্টি করবে। এ ছাড়া দেশের কাছে মাত্র একদিনের পেট্রল মজুত রয়েছে এবং শ্রীলঙ্কার জলসীমায় নোঙর করা অপরিশোধিত তেল এবং ফার্নেস ওয়েলসহ তিনটি জাহাজের মূল্য পরিশোধের জন্য খোলা বাজারে ডলার অর্জনের জন্য চেষ্টা করছে সরকার।
প্রধানমন্ত্রী বিক্রমাসিংহে বলেন, ‘আগামী কয়েক মাস আমাদের জীবনের সবচেয়ে কঠিন মাস হতে চলেছে, সংকট সমাধানের জন্য আমাদের অবিলম্বে সব রাজনৈতিক দলের অংশগ্রহণে একটি জাতীয় পরিষদ বা রাজনৈতিক প্রতিষ্ঠান গঠন করতে হবে।’
প্রেসিডেন্ট গোতাবায়া রাজাপক্ষের এশিয়ার দ্রুততম মুদ্রাস্ফীতির হারকে বাড়িয়ে তোলা ‘উন্নয়ন’ বাজেটের পরিবর্তে একটি নতুন ‘রিলিফ’ বাজেট ঘোষণা করার প্রতিশ্রুতি দিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী রনিল বিক্রমাসিংহে।
রাজাপক্ষের পদত্যাগের দাবিতে সহিংস বিক্ষোভের পর গত সপ্তাহে নতুন প্রধানমন্ত্রী নিযুক্ত হন রনিল বিক্রমাসিংহে
রাজাপক্ষের পদত্যাগের দাবিতে সরকারের সমর্থক ও বিক্ষোভকারীদের মধ্যে সহিংস সংঘর্ষের পর গত সপ্তাহে নতুন প্রধানমন্ত্রী নিযুক্ত হন রনিল বিক্রমাসিংহে। আন্তর্জাতিক মুদ্রা তহবিলের সঙ্গে আলোচনায় নেতৃত্ব দেওয়ার জন্য এখনো অর্থমন্ত্রী নিযুক্ত করতে পারেননি নতুন প্রধানমন্ত্রী। এ ছাড়া ভারত ও চীনসহ অন্যান্য দেশগুলোর কাছ থেকে ঋণ চাইছে শ্রীলঙ্কা। উদ্ভূত পরিস্থিতিতে পূর্ণ মন্ত্রিসভার অনুপস্থিতিতে সরকার নগদ অর্থ পাবে কিনা তা নিয়ে দেখা দিয়েছে সংশয়।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: পরিকল্পনা


আরও
আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ