Inqilab Logo

রোববার, ২৬ জুন ২০২২, ১২ আষাঢ় ১৪২৯, ২৫ যিলক্বদ ১৪৪৩ হিজরী

জিয়া মুক্তিযোদ্ধা নন এ কথা মানতেই পারি না: কাদের সিদ্দিকী

অনলাইন ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ১৭ মে, ২০২২, ১০:১৮ পিএম

বিএনপির প্রতিষ্ঠাতা জিয়াউর রহমান মুক্তিযোদ্ধা নন এ কথা মানতেই পারি না বলে মন্তব্য করেছেন কৃষক শ্রমিক জনতা লীগের সভাপতি বীর উত্তম বঙ্গবীর কাদের সিদ্দিকী। তিনি বলেন, ‘বঙ্গবন্ধুকে যেভাবে গালিগালাজ করা হয়, তাতে আমার বড় খারাপ লাগে। জিয়াউর রহমান মুক্তিযোদ্ধা নন, এ কথা তো মানতেই পারি না। তিনি (জিয়াউর রহমান) যদি বঙ্গবন্ধু হত্যায় জড়িত থাকেন, তাহলে তার বিচার করা হোক। কিন্তু তিনি মুক্তিযোদ্ধা নন, এটা তো বলা যায় না। এমনটা হচ্ছে, কেননা আমরা একজন অন্যজনের প্রতি শ্রদ্ধাবোধ হারিয়ে ফেলেছি।’

মঙ্গলবার (১৭ মে) বিকেলে জাতীয় প্রেস ক্লাবের আবদুস সালাম হলে বাংলাদেশ পিপলস পার্টি-বিপিপি আয়োজিত এক আলোচনা সভায় তিনি এসব কথা বলেন। কাদের সিদ্দিকী বলেন, ‘জনগণ শুধু শেখ হাসিনাকে চায় না তা নয়, জনগণ অনদেরও চায় না। সেটা খালেদা জিয়াকে বলা যেতে পারে, তারেক রহমানকে বলা যেতে পারে। একটু বদল হওয়া দরকার, সেটা এখন পর্যন্ত হয়নি। যেদিন থেকে মানুষ আমাদের বিশ্বাস করা শুরু করবে, ডাকে সাড়া দেবে, সেদিন শেখ হাসিনার কিছুই থাকবে না। তবে শেখ হাসিনাকে সরিয়ে আমি খালেদা জিয়াকে মানতে চাই না, তারেক রহমানকেও মানতে চাই না। আমি তাকে (শেখ হাসিনা) সরাতে চাই, তার কর্মকাণ্ডের জন্য। কথা দিয়ে কথা না রাখার জন্য, মানুষকে মনে না রাখার জন্য।’

এসময় গণফোরামের সভাপতি মোস্তফা মহসিন মন্টু বলেন, ‘একটা নির্বাচন আমরা চাই, যে নির্বাচন হবে অবাধ, সুষ্ঠু ও নিরপেক্ষ। এজন্য সবাইকে ঐক্যবদ্ধ হতে হবে। আমরা যদি এখন এক হতে না পারি, এক ছাতার তলে দাঁড়াতে না পারি, তাহলে এ সরকারের পতন ঘটানো যাবে না।’

আমার বাংলাদেশ (এবি) পার্টির সদস্য সচিব মজিবর রহমান মঞ্জু বলেন, ‘সরকার উন্নয়নের গল্প শোনাচ্ছে। উন্নয়ন তো হয়েছে পি কে হালদারদের। এমন উন্নয়ন হয়েছে, সবচেয়ে দামি বালিশ, পর্দা আমাদের দেশে পাওয়া যায়। এ মিথ্যাবাদী, ওয়াদা ভঙ্গকারীদের আর ক্ষমতায় দেখতে চাই না।’

গণফোরামের সদস্য সচিব অ্যাডভোকেট সুব্রত চৌধুরী বলেন, ‘আমরা সিদ্ধান্ত তো নিয়েই নিয়েছি, শেখ হাসিনার অধীনে নির্বাচনে যাবো না। তাহলে এতো দ্বিধা কীসের? এখন প্রয়োজন শেখ হাসিনা সরকারের পদত্যাগ ও অন্তর্বর্তীকালীন সরকারের অধীনে নির্বাচনের দাবিতে রাজপথে ঐক্যবদ্ধ আন্দোলনে নামা।’

আলোচনা সভায় অন্যদের মধ্যে আরও বক্তৃতা করেন গণফোরামের নির্বাহী সভাপতি জগলুল হায়দার আফ্রিক, নাগরিক ঐক্যের সাধারণ সম্পাদক শহীদুল্লাহ কায়সার, ন্যাশনাল পিপলস পার্টির সভাপতি ফরিদুজ্জামান ফরহাদ, জাতীয়তাবাদী গণতান্ত্রিক আন্দোলনের চেয়ারম্যান ববি হাজ্জাজ প্রমুখ।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ