Inqilab Logo

রোববার, ২৬ জুন ২০২২, ১২ আষাঢ় ১৪২৯, ২৫ যিলক্বদ ১৪৪৩ হিজরী
শিরোনাম

উইন্ডিজ সিরিজেই ফিরছেন বিজয়

স্পোর্টস রিপোর্টার | প্রকাশের সময় : ১৮ মে, ২০২২, ১২:০১ এএম

সবশেষ ঢাকা প্রিমিয়ার লিগে রানের বন্যা বইয়ে দিয়ে বিশ্ব রেকর্ড গড়েন এনামুল হক বিজয়। ব্যাট হাতে অমন দুর্দান্ত পারফরম্যান্সের স্বীকৃতি পেতে যাচ্ছেন এই ডানহাতি ওপেনার। ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে বাংলাদেশের সামনের সফরের দলে থাকছেন তিনি। বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ডের (বিসিবি) ক্রিকেট অপারেশন্স চেয়ারম্যান জালাল ইউনুস বিজয়ের স্কোয়াডে থাকার নিশ্চয়তা দিয়েছেন। পূর্ণাঙ্গ সিরিজ খেলতে ক্যারিবিয়ান দ্বীপপুঞ্জে যাওয়ার অপেক্ষায় থাকা বাংলাদেশের ওয়ানডে ও টি-টোয়েন্টি দলে জায়গা পাচ্ছেন তিনি।
আগামী জুনে টাইগাররা যাচ্ছে ওয়েস্ট ইন্ডিজ সফরে। লম্বা সফরে সেখানে স্বাগতিকদের বিপক্ষে দুটি টেস্ট এবং তিনটি করে ওয়ানডে ও টি-টোয়েন্টি খেলবে তারা। বিজয়ের দলে থাকার প্রসঙ্গে জালাল গণমাধ্যমকে বলেছেন, ‘বিজয় ওয়েস্ট ইন্ডিজ সিরিজে আছে। টি-টোয়েন্টি ও ওডিআই সিরিজে থাকবে। এটা নির্বাচকদের ব্যাপার। তারপরও আমার মনে হয়, তারা বিবেচনা করছে। নিশ্চিতভাবে বিজয় টি-টোয়েন্টি আর ওডিআই দলে থাকছে।’
লিস্ট ‘এ’ স্বীকৃতি পাওয়ার পর ঢাকা প্রিমিয়ার লিগের এক আসরে সর্বোচ্চ রানের রেকর্ড বিজয় গড়েন গত মাসে। ১৫ ম্যাচে ৮১.২৫ গড়ে ১১৩৮ রান আসে তার উইলো থেকে। লিস্ট ‘এ’ স্বীকৃতি পাওয়ার পর প্রথম ব্যাটার হিসেবে প্রিমিয়ার লিগে হাজার রানের কীর্তি গড়েন তিনি। বাংলাদেশে তো বটেই, লিস্ট ‘এ’ ক্রিকেটের ইতিহাসে বিজয়ই প্রথম ব্যাটার যিনি কোনো আসরে স্পর্শ করেছেন এক হাজার রান। কীর্তি গড়ার পথে তিনি ছাড়িয়ে যান অস্ট্রেলিয়ার টম মুডিকে। ৩১ বছর আগে ১৯৯১ সালে ইংলিশ কাউন্টি দল ওয়ারউইকশায়ারের হয়ে সানডে লিগে ১৫ ম্যাচে মুডি করেছিলেন ৯১৭ রান।
প্রিমিয়ার লিগে প্রাইম ব্যাংক ক্রিকেট ক্লাবের হয়ে আলো ছড়ানোয় শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে প্রস্তুতি ম্যাচের বিসিবি একাদশের স্কোয়াডেও ডাক পেয়েছিলেন বিজয়। তবে সাভারের বিকেএসপিতে প্রবল বৃষ্টির বাগড়ায় ভেসে যায় দুদিনের ওই ম্যাচ।
২০১২ সালের নভেম্বরে ওয়ানডে দিয়ে জাতীয় দলে অভিষেক হয়েছিল বিজয়ের। আন্তর্জাতিক মঞ্চে তার শেষ ম্যাচ ছিল ২০১৯ সালের জুলাইতে। শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে ওই ওয়ানডেতে ২৪ বলে ১৪ রান করে আউট হয়েছিলেন তিনি। বাংলাদেশের হয়ে এখন পর্যন্ত ৪ টেস্ট, ৩৮ ওয়ানডে ও ১৩ টি-টোয়েন্টি খেলেছেন তিনি।
এদিকে চোটে পড়া তাসকিন আহমেদ অনিশ্চিত ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে টেস্ট সিরিজেও। এমনকি সীমিত ওভারের সিরিজে খেলা নিয়েও খানিক শঙ্কা আছে। বর্তমানে লন্ডনে পুনর্বাসন প্রক্রিয়ার মধ্য দিয়ে যাচ্ছেন এই পেসার। আপাতত অস্ত্রোপচার না লাগলেও খুব দ্রæতই মুক্তি মিলছে না চোট থেকে। তাসকিন খেলতে না পারলে তার জায়গায় দেখা যেতে পারে নতুন ও তরুণ কাউকে, জানালেন ক্রিকেট অপারেশন্সের প্রধান কর্তা, ‘কয়েকজন ফাস্ট বোলার আছে। একটু আগে কোচ, নির্বাচকরা মিলে মিটিংয়ে বসেছিলাম। তাসকিন না থাকলে কারা থাকতে পারে তাদের নিয়া আলাপ-আলোচনা হয়েছে। নির্বাচকরা সময়মত ওয়েস্ট ইন্ডিজ সফরের দল দিয়ে দেবেন।’

 



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

আরও পড়ুন