Inqilab Logo

সোমবার, ০৪ জুলাই ২০২২, ২০ আষাঢ় ১৪২৯, ০৪ যিলহজ ১৪৪৩ হিজরী
শিরোনাম

দরিদ্র দেশগুলো মুদ্রাস্ফীতি এবং ঋণ বিপর্যয়ের মুখে

দ্য নিউ ইয়র্ক টাইম্স | প্রকাশের সময় : ১৯ মে, ২০২২, ১২:০৬ এএম

ইউক্রেন-রাশিয়ার যুদ্ধ, চলমান করোনা মহামারীর সাথে বিশ্বব্যাপী ঋণের কঠোর শর্ত এবং বিশে^র দ্বিতীয় বৃহত্তম অর্থনীতি চীনের মন্থর প্রবৃদ্ধি, নিম্ন এবং মধ্যম আয়ের দেশগুলির জন্য বিপর্যয় ডেকে এনেছে। যুদ্ধবিধ্বস্ত দেশ এবং দরিদ্র দেশগুলির মুদ্রাস্ফীতি এবং একটি বিস্তৃত সঙ্কটকে তুলে ধরেছে। রান্নার জ্বালানি, সার এবং গমের মতো প্রধান পণ্যগুলির ক্রমবর্ধমান মূল্য এবং ব্যাহত কৃষি বিশ্বের বেশিরভাগ অংশে অপুষ্টির হুমকিতে ফেলেছে। বিশে^র প্রধান তেল ও গ্যাস রপ্তানিকারক রাশিয়ার উপর আরোপিত নিষেধাজ্ঞাগুলি জ¦ালানীশক্তির সরবরাহকে সীমাবদ্ধ করে দাম আকাচুৃম্বি করেছে এবং অর্থনৈতিক প্রবৃদ্ধি মন্থও করে দিয়েছে, বিশেষ করে আমদানি নির্ভর দেশগুলিতে।

আন্তর্জাতিক রেসকিউ কমিটির মতে, মহামারী, ভয়ানক খরা এবং রাশিয়া ও ইউক্রেন আসা খাদ্য শস্যের ঘাটতির কারণে আফ্রিকাতে ১৪ মিলিয়নেরও বেশি মানুষ এখন অনাহারের দ্বারপ্রান্তে রয়েছে। গত সপ্তাহে, বিশ্বের দ্বিতীয় বৃহত্তম গম উৎপাদক ভারত তার বেশিরভাগ গমের রপ্তানি নিষিদ্ধ করেছে। এতে উদ্বেগ আরও গভীর হয়েছে। ইয়েমেনের ইউনিসেফ প্রতিনিধি ফিলিপ ডুয়ামেল বলেন, ‘আমি ইয়েমেনের মতো জায়গায় এবং বিশ্বের অন্যান্য অনেক জায়গায় একটি নিখুঁত ঝড়ের বিকাশ দেখছি।’

মার্কিন ফেডারেল রিজার্ভ এবং অন্যান্য কেন্দ্রীয় ব্যাংক মুদ্রাস্ফীতি ঠেকাতে সুদের হার বাড়িয়েছে। এটি ধনী অর্থনীতিগুলিতে বিনিয়োগকারীদের কম ঝুঁকিপূর্ণ তহবিল স্থানান্তর করতে এবং নিম্ন আয়ের দেশগুলি পরিত্যাগ করতে প্ররোচিত করেছে। অর্থের প্রবাহে এই পরিবর্তন মার্কিন ডলারের দর বাড়িয়ে দিয়েছে এবং ভারত থেকে দক্ষিণ আফ্রিকা ও ব্রাজিল পর্যন্ত দেশগুলির মুদ্রার মূল্য কমিয়েছে, তাদের আমদানি আরও ব্যয়বহুল করে তুলেছে। কঠোর শর্তের ঋণ উচ্চ ঋণগ্রস্ত সরকারগুলির জন্য ঋণের ব্যয়ও বাড়িয়ে দিচ্ছে। ম্যাসাচুসেটস অ্যামহার্স্ট বিশ্ববিদ্যালয়ের অর্থনীতিবিদ জয়তি ঘোষের মন্তব্য, ‘এটা সব দিকেই দাবানলের মতো।’

যুদ্ধ ইউক্রেনের কৃষকদের পালিয়ে যেতে প্ররোচিত করেছে এবং রাশিয়া কৃষ্ণ সাগরে রপ্তানির জন্য গুরুত্বপূর্ণ ইউক্রেনীয় বন্দর অবরোধ করেছে। জাতিসংঘের বাণিজ্য ও উন্নয়নের সম্মেলনের গবেষণা অনুসারে, রাশিয়া এবং ইউক্রেন সোমালিয়া এবং বেনিন দ্বারা আমদানি করা সমস্ত গম সরবরাহ করে এবং সরবরাহের কমপক্ষে দুই-তৃতীয়াংশ তানজানিয়া, সেনেগাল, গণতান্ত্রিক প্রজাতš কঙ্গো, সুদান এবং মিশরে পৌঁছায়। গত সপ্তাহে বিশ্ব খাদ্য কর্মসূচি সতর্ক করেছে যে, বন্দরগুলি বন্ধ করার ফলে ইথিওপিয়া, দক্ষিণ সুদান, সিরিয়া, ইয়েমেন এবং আফগানিস্তানের মারাত্মক খাদ্য নিরাপত্তাহীনতা আরও খারাপ হওয়ার হুমকি রয়েছে।

বিশ্ব খাদ্য কর্মসূচি অনুসারে, রাশিয়া-ইউক্রেন যুদ্ধের পরে বিশ্বব্যাপী গম এবং ভুট্টার রপ্তানি মূল্য এক-পঞ্চমাংশেরও বেশি বেড়েছে। অনেক দেশ এখন তাদের জনসংখ্যাকে সাহায্য করার জন্য তাদের ঋণ পরিশোধের পাশাপাশি, বাজেটে কঠোরতা আরোপ এবং সামাজিক সঙ্ঘাতের মতো অস্বস্তিকর পরিস্থিতির মুখোমুখি হচ্ছে। গত সপ্তাহে, শ্রীলঙ্কাতে একটি ঊর্ধ্বমুখী ঋণ সঙ্কটের মধ্যে দ্রুত মুদ্রাস্ফীতি কারণে জনগণের ক্ষোভ সরকার পতন ঘটিয়েছে। অক্সফোর্ড ইকোনমিক্স একটি সাম্প্রতিক প্রতিবেদনে সতর্ক করেছে যে, তিউনিসিয়া, ঘানা, দক্ষিণ আফ্রিকা এবং মরক্কো এখন অভ্যুত্থানের ভয়ঙ্কর ঝুঁকিতে রয়েছে।

এদিকে, চীন তার শূন্য-কোভিড নীতি কার্যকর করার জন্য লকডাউন বাড়ানোতে সারা বিশ্ব থেকে চীনের আমদানিকৃত পাঠানো কাঁচামাল, যন্ত্রাংশ এবং তৈরি পণ্যের চাহিদা কম। তুরস্কে এপ্রিলে লিরার দর নতুন করে কমেছে এবং তুরস্কের মুদ্রাস্ফীতির হার প্রায় ৭০ শতাংশে পৌছেছে। উচ্চ ঋণ এবং নিম্নগামী অর্থনীতিতে জর্জরিত পাকিস্তানের জনগণ ব্যাপক হারে ভুগছে। দেশটি এখন ৬ বিলিয়ন ডলারের ঋণ প্যাকেজের মেয়াদ বাড়ানোর জন্য আন্তর্জাতিক মুদ্রা তহবিলের সাথে আলোচনা করছে।

ল্যাটিন আমেরিকা জুড়ে উদ্ভূত সঙ্কট জীবনযাত্রার মানের কয়েক দশকের অগ্রগতিকে হুমকিতে ফেলেছে। বিশে^ও অন্যতম প্রধান রপ্তানিকারক ব্রাজিল প্রায়শই পণ্যের দাম বৃদ্ধির সুবিধাভোগী হিসাবে চিহ্নিত হয়। কিন্তু এখন ব্রাজিলের প্রধান শহরগুলির দরিদ্র এলাকাগুলিতে মানুষ তরল পেট্রোলিয়াম গ্যাসের বিস্ফোরিত মূল্যেও শিকার, যা দেশটির ৯৬ শতাংশ বাড়িতে রান্নার জ্বালানী ব্যবহৃত হয়।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: ইউক্রেন-রাশিয়া


আরও
আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ