Inqilab Logo

মঙ্গলবার, ২৮ জুন ২০২২, ১৪ আষাঢ় ১৪২৯, ২৭ যিলক্বদ ১৪৪৩ হিজরী
শিরোনাম

টিফিনে গোশত আনার অপরাধে হাজতবাস

ইনকিলাব ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ২০ মে, ২০২২, ১২:০২ এএম

স্কুলে গোশত এনেছিলেন প্রধান শিক্ষিকা! স্রেফ এই অপরাধে হাজতবাস করতে হচ্ছে সরকারি স্কুলের প্রৌঢ়া শিক্ষিকাকে। ঘটনাস্থল বিজেপিশাসিত অসম। স্বাভাবিকভাবেই খবরটি প্রকাশ্যে আসতে তীব্র সমালোচনা শুরু হয়েছে। প্রশ্ন উঠছে, এদেশে কি নিজের ইচ্ছেমতো খাবার খাওয়ার স্বাধীনতাও নেই? চলতি সপ্তাহের শুরুতে অর্থাৎ সোমবার অসমের গোয়ালপাড়া জেলার এক সরকারি স্কুলে মধ্যাহ্নভোজের জন্য গোশত এনেছিলেন প্রধান শিক্ষিকা। অভিযোগ, তিনি নিজে খাওয়ার পাশাপাশি সহকর্মীদের সঙ্গে ওই গোশত ভাগ করে নিয়েছিলেন। অভিযোগ, প্রকাশ্যে গরু গোশত খাওয়ায় উপস্থিত কিছু সহকর্মীদের ভাবাবেগে আঘাত লাগে। তারাই আপত্তি জানায়। পরে বিষয়টি পুলিশের কাছে পৌঁছে যায়। স্কুল পরিচালন কমিটি পুলিশের কাছে অভিযোগ দায়ের করে। জানা গিয়েছে, ৫৬ বছর বয়সি ওই শিক্ষিকার বিরুদ্ধে ভারতীয় দন্ডবিধি ১৫৩ এ ধারা (ধর্ম, জাতপাত, জন্মস্থান, বসবাসের কারণে দুই গোষ্ঠীর মধ্যে শত্রæতা তৈরি), ২৯৫এ ধারায় (কোনও ধর্ম বা ধর্মীয় বিশ্বাসকে অপমান করার উদ্দেশে বারবার কৃত কোনও কাজ) মামলা দায়ের হয়েছে। পরিচালন কমিটির অভিযোগের উপর ভিত্তি করে শিক্ষিকাকে গ্রেপ্তার করেছে জেলা পুলিশ। আপাতত তিনি বিচারবিভাগীয় হেফাজতে রয়েছেন। সংবাদ প্রতিদিন।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: গোশত

৫ এপ্রিল, ২০২২
১০ ফেব্রুয়ারি, ২০২২
২১ ডিসেম্বর, ২০২১
১২ সেপ্টেম্বর, ২০২১

আরও
আরও পড়ুন