Inqilab Logo

বুধবার, ২৯ জুন ২০২২, ১৫ আষাঢ় ১৪২৯, ২৮ যিলক্বদ ১৪৪৩ হিজরী

নারায়ণগঞ্জে হিন্দু থেকে মুসলমান হলেন কিশোরী

নারায়ণগঞ্জ থেকে স্টাফ রিপোর্টার | প্রকাশের সময় : ২২ মে, ২০২২, ৫:৫৩ পিএম


নারায়ণগঞ্জে হিন্দু ধর্ম ত্যাগ করে মুসলমান হয়েছেন এক কিশোরী। রবিবার (২২ মে) নারায়ণগঞ্জ আদালতের আইনজীবী আব্দুল রহিমের চেম্বারে ইসলামী শরিয়ত মেনে কালেমা পড়ে মুলমান হন নারায়ণগঞ্জ জেলার আড়াইহাজার থানার গোপালদী এলাকার স্বপন কুমার সাহার কিশোরী মেয়ে স্নেহা ।
ইসলাম ধর্ম গ্রহন করার পরে তার নাম রাখা হয় জান্নাতুল ফেরদৌস রূম্পা। তাকে ইসলাম ধর্মের রীতিনীতি মেনে কালেমা পড়ান আদালত সংলগ্ন বিলাসনগর বায়তুল আজিম জামে মসজিদের মুয়াজ্জিন হাফেজ মাওলানা মো. ওসমান গনি। পরে নোটারী পাবলিকের হলফনামায় স্বাক্ষর করেন তিনি।
মুসলমান ধর্ম গ্রহন করার পরে জান্নাতুল ফেরদৌস রূম্পা জানান, আমি হিন্দু ধর্মের দীক্ষায় দীক্ষিত ছিলাম। কিন্তু মুসলমান সম্প্রদায়ের সাথে চলাফেরা করে বিভিন্ন ওয়াজ মাহফিলে গিয়ে এবং বিভিন্ন ধর্মীয় আলোচনায় বসে এই মর্মে উপলব্ধি করতে পেরেছি যে, বিভিন্ন ধর্মের মধ্যে ইসলামই শ্রেষ্ঠ ধর্ম।
আল্লাহ এক ও অদ্বিতীয়। আল্লাহ ছাড়া কোনো মাবুদ নাই। দুনিয়া ও আখেরাতের মঙ্গলের জন্য ইসলামই একমাত্র সঠিক পথ। তাই আমি ইসলাম ধর্মের অনুশাসন মেনে চলার বিষয়ে প্রতিজ্ঞাবদ্ধ হয়ে আমার পুরাতন ধর্ম (হিন্দু) পরিবর্তন করে ইসলাম ধর্ম গ্রহনের চূড়ান্ত সিদ্ধান্তে উপনীত হয়েছি।
ইসলাম ধর্মের অনুসারী হিসেবে আমি সম্পূর্ণ স্বেচ্ছায়, স্বজ্ঞানে ও সুুস্থ্য মস্তিষ্কে আমার নাম স্নেহা পরিবর্তন করে ইসলামী নাম জান্নাতুল ফেরদৌস রূম্পা নামে পরিচয় দেওয়ার সিদ্ধান্ত গ্রহন করেছি। আজ হতে মৃত্যু পর্যন্ত ইসলাম ধর্মের অনুসারী হিসেবে বহাল থাকবো। সবাই আমার জন্য দোয়া করবেন।#



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: কিশোরী

২৬ নভেম্বর, ২০২১

আরও
আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ